kalerkantho

বুধবার । ২০ নভেম্বর ২০১৯। ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ২২ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

সিটি-ইউসেপ সনদ পেল প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ১৫০ ছাত্রী

বাণিজ্য ডেস্ক   

২২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সিটি-ইউসেপ সনদ পেল প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ১৫০ ছাত্রী

সিটি-ইউসেপ : সিটি ইউসেপ টেকনিক্যাল এডুকেশন প্রগ্রামের আওতায় সম্প্রতি প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ১৫৭ জন ছাত্রীকে সংবর্ধনা দেওয়া হয়। প্রধান অতিথি ছিলেন এস এম রবিউল হাসান, নির্বাহী পরিচালক, বাংলাদেশ ব্যাংক, চট্টগ্রাম

সিটি-ইউসেপ টেকনিক্যাল এডুকেশন প্রগ্রাম ২০১৮-এর প্রশিক্ষণপ্রাপ্তদের সংবর্ধনা দিয়েছে সিটিব্যাংক এনএ, বাংলাদেশ ও বেসরকারি সংস্থা ইউসেপ বাংলাদেশ। সম্প্রতি অনুষ্ঠানে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ১৫৭ জন ছাত্রীকে সংবর্ধনা দেওয়া হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন এস এম রবিউল হাসান, নির্বাহী পরিচালক, বাংলাদেশ ব্যাংক, চট্টগ্রাম এবং বিশেষ অতিথি ছিলেন এম মহিউদ্দীন চৌধুরী, সাবেক পরিচালক, বিজিএমইএ। অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন এন রাজাশেকারান, কান্ট্রি অফিসার, সিটিব্যাংক এনএ; বাংলাদেশ, তাহসিনা আহমেদ, নির্বাহী পরিচালক, ইউসেপ বাংলাদেশ; মো. গোলাম নেওয়াজ বাবুল, ইউসেপ নিয়োগকর্তা কমিটি, সিইপিজেড ও কেইপিজেড।

অনুষ্ঠানে সিটি ফাউন্ডেশনের আর্থিক সহায়তায় এ কে খান ইউসেপ কালুরঘাট ও ইউসেপ আমবাগান টেকনিক্যাল স্কুলের ইন্ডাস্ট্রিয়াল সুইং অপারেশন ও ইলেকট্রনিকস অ্যাসেম্বলিং টেকনিশিয়ান ট্রেড থেকে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ১৫০ জনেরও অধিক সুবিধাবঞ্চিত ছাত্রীর মাঝে সনদপত্র বিতরণ করা হয়।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে এস এম রবিউল হাসান বলেন, ‘দেশের প্রধানতম সমস্যাকে চিহ্নিত করে  তরুণসমাজকে সক্রিয় অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ডে সম্পৃক্ত করার জন্য কারিগরি শিক্ষার মতো উদ্যোগ নেওয়ায় আমি সিটি ও ইউসেপ বাংলাদেশকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি। আমার বিশ্বাস, দেশের দ্রুত অর্থনৈতিক উন্নয়ন ত্বরান্বিত করতে এ উদ্যোগটি প্রশংসনীয় ভূমিকা রাখবে।’

এন রাজাশেকারান বলেন, ‘প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত নারীদের মাঝে প্রতিশ্রুতি ও উদ্দীপনা দেখে আমি অভিভূত। তাদের এ উদ্দীপনাশক্তি বাংলাদেশকে দ্রুত অর্থনৈতিকভাবে স্বাবলম্বী করতে ভূমিকা রাখবে। আমাদের বিশ্বাস, সিটি ফাউন্ডেশন দেশের সমৃদ্ধি এবং অর্থনৈতিক উন্নয়নে তরুণ মেধাকে প্রস্তুত হতে সহায়তা করবে।’

তাহসিনা আহমেদ বলেন, ‘আজকের এ প্রাতিষ্ঠানিক স্বীকৃতি তোমাদের জীবনে অধিকতর সাফল্য বয়ে আনতে এবং কর্মময় জীবন বিকাশে নিয়ামক শক্তি হিসেবে কাজ করবে। সমাজ পরিবর্তনে তরুণী ও নারীরা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। সে জন্য প্রয়োজন তাদের ক্ষমতায়ন। এ প্রচেষ্টায় সহযোগিতা করার জন্য ইউসেপ বাংলাদেশ সিটি ফাউন্ডেশনের কাছে কৃতজ্ঞ।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা