kalerkantho

সোমবার। ২৭ মে ২০১৯। ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬। ২১ রমজান ১৪৪০

মাঠপর্যায়ে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা

রমজানে নিত্যপণ্যের দাম বাড়ালে কঠোর ব্যবস্থা

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২৩ এপ্রিল, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



রমজানে নিত্যপণ্যের দাম বাড়ালে কঠোর ব্যবস্থা

পণ্যের দাম বাড়ালে ব্যবস্থা নেবেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। ফাইল ছবি

রমজান মাসে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের মজুদ, সরবরাহ ও মূল্য স্বাভাবিক রাখতে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণে বিভাগীয় কমিশনারদের চিঠি দিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি। চিঠিতে তিনি সব জেলা প্রশাসক ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাদের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য নিদের্শনা দেন। বাণিজ্য মন্ত্রণালয় জনসংযোগ বিভাগ এক বিজ্ঞপ্তি জানায়, গত রবিবার বিভাগীয় কমিশনারদের কাছে বাণিজ্যমন্ত্রীর এ চিঠি পাঠানো হয়।

চিঠিতে বাণিজ্যমন্ত্রী জনান, বাণিজ্য মন্ত্রণালয় পুরো বছরের মতো রমজান মাসে নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যাদি ভোক্তা সাধারণের কাছে ন্যায্যমূল্যে সরবরাহে বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করছে। স্থানীয় পর্যায়ে পণ্যের মূল্য সহনীয় রাখার ক্ষেত্রে স্থানীয় প্রশাসনের ভূমিকা অত্যন্ত গুরত্ব্বপূর্ণ। নিত্যপ্রয়োজনীয় ভোগ্য পণ্য যাতে ক্রেতাদের ক্রয়ক্ষমতার মধ্যে থাকে, সে বিষয়টি নিশ্চিত করার লক্ষ্যে বাজার মনিটরিং কার্যক্রম জোরদার ও আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা প্রয়োজন।

এতে আরো বলা হয়, জনস্বাস্থ্যের বিষয়টি বিবেচনায় নিয়ে রমজান মাসে ভেজালবিরোধী অভিযান জোরদার করা প্রয়োজন। জেলা ও উপজেলায় বাজারে পণ্য সরবরাহ ও মজুদ অটুট রাখা, নির্বিঘ্নে পণ্য পরিবহন, অবৈধ মজুদ প্রতিরোধ এবং পণ্যমূল্য সহনীয় পর্যায়ে রাখতে মোবাইল কোর্ট কার্যক্রম জোরদারসহ প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। এ জন্য জেলা প্রশাসক ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাদের প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দেওয়া হয়।

এর আগে গত বৃহস্পতিবার বাণিজ্যমন্ত্রী সাংবাদিকদের জানান, ‘বাজারদর নিয়ন্ত্রণে রাখতে ভোজ্য তেল, চিনি, ডাল,  ছোলা, পেঁয়াজ ও খেজুর টিসিবির মাধ্যমে শিগগিরই বিক্রি শুরু হবে। আমাদের ধারণা, রমজানে পণ্যের দাম তেমন বাড়বে না। কারণ মজুদসহ সব ধরনের প্রস্তুতি সরকারের আছে। প্রয়োজনের তুলনায় পণ্যের মজুদ অনেক বেশি।

বাজার মনিটরিংয়ের বিষয়ে তিনি বলেন, ‘মনিটরিংয়ের সব ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের পাশাপাশি প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ও বাজার মনিটর করবে। কোনো ব্যবসায়ী রমজানকে কেন্দ্র করে সুযোগ নিচ্ছে কি না, সে বিষয়টি নজরদারি করা হবে বলে সতর্ক করা হয় ব্যবসায়ীদের।

এদিকে টিসিবি সূত্রে জানা গেছে, বাজারের স্বাভাবিক পরিস্থিতি বজায় রাখতে আজ মঙ্গলবার থেকে ন্যায্যমূল্যে টিসিবির তিনটি পণ্য বিক্রি শুরু হচ্ছে। এগুলো হচ্ছে চিনি, তেল ও ডাল।

এদিকে কালের কণ্ঠের ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি জানান, ব্র্রাহ্মণবাড়িয়ার জেলা প্রশাসক হায়াত-উদ-দৌলা খান এসংক্রান্ত একটি নির্দেশনা পেয়েছেন। তিনি জানান, নির্দেশনার আলোকে এরই মধ্যে কাজ শুরু হয়েছে।

মেহেরপুরের জেলা প্রশাসক মো. আতাউল গনি জানান, ‘রমজান মাসে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দাম স্থিতিশীল রাখার জন্য বাণিজ্য মন্ত্রণালয় থেকে একটি নির্দেশনা এসেছে। আমরা সে নির্দেশনা অনুযায়ী কাজ শুরু করেছি।’

মন্তব্য