kalerkantho

বুধবার । ৭ ডিসেম্বর ২০২২ । ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ । ১২ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

৮১ বছর পর বন্ধ হচ্ছে বিবিসি বাংলা রেডিওর সম্প্রচার

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১ অক্টোবর, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



৮১ বছর পর বন্ধ হচ্ছে বিবিসি বাংলা রেডিওর সম্প্রচার

দীর্ঘ ৮১ বছর পর বন্ধ হয়ে যাচ্ছে বিবিসি বাংলা রেডিও। এর মধ্য দিয়ে অবসান ঘটবে একটি যুগের। ব্যয় সাশ্রয়ের জন্য বাংলাসহ বিশ্বের মোট ১০টি ভাষায় রেডিও সম্প্রচার বন্ধ করছে ব্রিটিশ ব্রডকাস্টিং করপোরেশন (বিবিসি)।

বন্ধ হতে যাওয়া অন্য ৯ ভাষা হচ্ছে আরবি, ফারসি, চীনা, কিরগিজ, উজবেক, হিন্দি, ইন্দোনেশীয়, তামিল ও উর্দু।

বিজ্ঞাপন

বিবিসি কর্তৃপক্ষ বলেছে, উচ্চ মূল্যস্ফীতি এবং দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতির চাপে ‘এই কঠিন সিদ্ধান্ত’ নিচ্ছে তারা। তারা আরো জানায়, ওয়ার্ল্ড সার্ভিসকে আরো আধুনিক ও ডিজিটাল রূপদানে এই পরিকল্পনা সহায়তা করবে।

অন্যদিকে বিবিসি বাংলা অনলাইনের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, কোনো ভাষা বিভাগই পুরোপুরি বন্ধ করা হচ্ছে না। এগুলোর মধ্যে কয়েকটি অনলাইনে কার্যক্রম চালাবে।

বিবিসি বাংলার রেডিও কার্যক্রম শুরু হয়েছিল ১৯৪১ সালের ১১ অক্টোবর বাংলায় ১৫ মিনিটের সাপ্তাহিক সম্প্রচারের মধ্য দিয়ে। পরে ১৯৬৫ সালে সংবাদ প্রচার শুরু হয়।

বিবিসি ওয়ার্ল্ড সার্ভিস ৩২৮টি পদ শূন্য করার মাধ্যমে দুই কোটি ৮৫ লাখ পাউন্ড সাশ্রয়ের প্রস্তাব রেখেছে। অন্যদিকে বছরে ৫০ কোটি পাউন্ড সাশ্রয়ে সিবিবিসি ও বিবিসি ফোরের কার্যক্রমকেও অনলাইনভিত্তিক করে তোলা হচ্ছে।  

আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম সম্প্রচার প্রতিষ্ঠান বিবিসি ওয়ার্ল্ড সার্ভিসের  রেডিও, টিভি ও ডিজিটাল কার্যক্রম রয়েছে। সপ্তাহে বিশ্বজুড়ে প্রায় ৩৬ কোটি ৪০ লাখ মানুষর কাছে পৌঁছায় বিবিসি। এখন এর অর্ধেকই আসে অনলাইন থেকে।

বিশ্বব্যাপী ইংরেজি খবর পরিবেশন অব্যাহত থাকবে বলে জানা গেছে। বিবিসি বলছে, নতুন অনুষ্ঠানসূচি, অনুষ্ঠান ও পডকাস্ট পরে ঘোষণা করা হবে।

ওয়ার্ল্ড সার্ভিস পরিচালক লিলিয়ান ল্যান্ডর বলেন, ‘বস্তুনিষ্ঠ ও নিরপেক্ষ সংবাদের জন্য কোটি কোটি মানুষের কাছে বিবিসি বিশ্বস্ত প্রতিষ্ঠান, বিশেষ করে যেখানে সংবাদ কম পৌঁছায়। আমরা সংকটের সময় মানুষকে সহযোগিতা করি। ইংরেজি এবং আরো ৪০টি ভাষায় শ্রোতাদের কাছে আমরা ভালো সাংবাদিকতা নিয়ে আসব। ’

বিবিসির প্রস্তাবে বলা হয়েছে, কিছু সেবা লন্ডন থেকে সরিয়ে দর্শক-শ্রোতাদের কাছাকাছি নিয়ে যাওয়া হবে। যেমন—থাই সার্ভিস লন্ডন থেকে ব্যাংককে, কোরীয় সার্ভিস সিউলে, বাংলা সার্ভিস ঢাকায় এবং  ফোকাস অন আফ্রিকা টিভি বুলেটিন নাইরোবিতে নেওয়া হবে।

এ ছাড়া লন্ডনে নতুন চীনা ইউনিট চালু, আফ্রিকা হাব প্রতিষ্ঠা, আরবি ও ফারসি সেবার টিভি সম্প্রচার চালু রাখা এবং অনুসন্ধান ও তথ্যচিত্রে বিনিয়োগ বাড়ানোর পরিকল্পনা করা হয়েছে। সূত্র : বিবিসি



সাতদিনের সেরা