kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১১ আগস্ট ২০২২ । ২৭ শ্রাবণ ১৪২৯ । ১২ মহররম ১৪৪৪

করোনাভাইরাস

আরো চারজনের মৃত্যু শনাক্ত ২১৮৩ জন

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১ জুলাই, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



আরো চারজনের মৃত্যু শনাক্ত ২১৮৩ জন

দেশে টানা চার দিন করোনাভাইরাসে নতুন করে আক্রান্তের সংখ্যা দুই হাজারের ওপরে। গত বুধবার সকাল ৮টা থেকে গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল ৮টা পর্যন্ত শনাক্ত হয়েছে দুই হাজার ১৮৩ জন। আর  মৃত্যুশূন্য একটি দিন পার হওয়ার পর এই ২৪ ঘণ্টায় চারজন মারা গেছেন। শনাক্তের হারও ১৫ শতাংশের ওপরে বহাল।

বিজ্ঞাপন

সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় নমুনা পরীক্ষার বিপরীতে শনাক্তের হার ছিল ১৫.৭০ শতাংশ। এর আগের ২৪ ঘণ্টায়  শনাক্তের হার ছিল ১৫.২৩ শতাংশ।

এই পরিস্থিতি সম্পর্কে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য ও করোনা মোকাবেলায় গঠিত জাতীয় টেকনিক্যাল পরামর্শক কমিটির সদস্য অধ্যাপক ডা. নজরুল ইসলাম কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘আমার মনে হচ্ছে, এবার করোনার সংক্রমণ বর্তমান অবস্থার চেয়ে বেশি হবে না। গত বছর জুনের শেষ দিকে নমুনা পরীক্ষার বিপরীতে শনাক্তের হার ২০ শতাংশের ওপরে ছিল। এবার তার চেয়ে কম আছে। দেশে অনেকে করোনার টিকা নিয়েছে। অনেকে আক্রান্ত হয়ে সুস্থ হয়েছে। এসব কারণে প্রতিরোধক্ষমতা বেড়েছে। তবে মৃত্যুর বিষয়টি আমাকে ভাবাচ্ছে। এ বিষয়ে বিস্তারিত তথ্য পাচ্ছি না। যারা মারা যাচ্ছে তারা কি টিকা নেয়নি? নিয়ে থাকলেও তাদের জীবনহানির কারণ কী? এসব বিষয় জানা দরকার। সবাইকে জানানো দরকার। এতে সাধারণ মানুষের সচেতনতা, সতর্কতা বাড়বে। ’ 

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের গতকালের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, সর্বশেষ ওই  দুই হাজার ১৮৩ জনসহ এখন পর্যন্ত করোনায় মোট শনাক্তের সংখ্যা ১৯ লাখ ৭৩ হাজার ৭৮৫। মোট মৃতের সংখ্যা ২৯ হাজার ১৪৯। সর্বশেষ হাসপাতাল ও বাসায় সুস্থ হয়েছে ২৯০ জন। এ নিয়ে ১৯ লাখ সাত হাজার ৫০৯ জন সুস্থ হয়েছে।

সর্বশেষ মৃত চারজনের মধ্যে তিনজন পুরুষ ও একজন নারী। তাঁদের বয়স যথাক্রমে ৩১-৪০, ৫১-৬০, ৬১-৭০ ও ৭১-৮০ বছর। তাঁরা একজন ঢাকা বিভাগের, দুজন চট্টগ্রাম বিভাগের এবং একজন রাজশাহী বিভাগের ছিলেন।

নতুন শনাক্তদের মধ্যে শুধু ঢাকা বিভাগের ৮৬৯ জন।   চট্টগ্রাম বিভাগে ১৫৬ জন,  বরিশালে ৪৯ জন, খুলনায় ২৩ জন, রাজশাহীতে ৪২ জন, ময়মনসিংহে ২৬ জন, রংপুর পাঁচজন ও সিলেটে ১৩ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে।

 



সাতদিনের সেরা