kalerkantho

সোমবার । ৩ মাঘ ১৪২৮। ১৭ জানুয়ারি ২০২২। ১৩ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

শাহজালালে বোমা আতঙ্কে বিমানের জরুরি অবতরণ

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা ও চট্টগ্রাম   

২ ডিসেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে




শাহজালালে বোমা আতঙ্কে বিমানের জরুরি অবতরণ

যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে চট্টগ্রাম শাহ আমানত বিমানবন্দরে বিমানের একটি ফ্লাইট জরুরি অবতরণের কিছু পরেই বোমা আতঙ্কে ঢাকার শাহজালাল বিমানবন্দরে মালয়েশিয়ান এয়ারলাইনসের আরেকটি ফ্লাইট জরুরি অবতরণ করেছে। আকাশে থাকা অবস্থায় বোমা রয়েছে সন্দেহে গতকাল বুধবার রাত ৯টা ৩৮ মিনিটে শাহজালাল বিমানবন্দরে ফ্লাইটটি জরুরি অবতরণ করে।  

শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের নির্বাহী পরিচালক গ্রুপ ক্যাপ্টেন এ এইচ এম তৌহিদ উল আহসান বলেন, ‘আমাদের কাছে গোয়েন্দা তথ্য ছিল, ফ্লাইটিতে একজন যাত্রীর কাছে বোমাসদৃশ কিছু রয়েছে। যাঁর কাছে এটি রয়েছে তিনি পাকিস্তানের নাগরিক। কিন্তু যাত্রী তালিকায় পাকিস্তানের কোনো নাগরিক নেই। বিমানবাহিনীর বঙ্গবন্ধু ঘাঁটিতে যাত্রীবাহী ফ্লাইটটি সরিয়ে নিয়ে ১৩৫ যাত্রীকে নিরাপদে নামিয়ে আনা হয়েছে। জরুরি অবতরণের কারণে নিরাপত্তার অংশ হিসেবে সেনাবাহিনী, পুলিশের বম্ব ডিসপোজাল ইউনিট এবং ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা এসে লাগেজ তল্লাশি করেছেন। তবে এ ধরনের কিছু পাওয়া যায়নি। পরে বিমানটি নিরাপদ ঘোষণা করার পর যাত্রীরা ফের উঠতে শুরু করেন।’

বিমানবন্দর থানার ওসি বি এম ফরমান আলী কালের কণ্ঠকে বলেন, বিমানবন্দরে একটি বার্তা আসে যে ফ্লাইটটিতে বোমা থাকতে পারে। এ তথ্যের ভিত্তিতে নিরাপত্তাকর্মীরা ফ্লাইটটিতে তল্লাশি চালিয়েছেন। তবে এ ধরনের কিছু পাওয়া যায়নি।

চট্টগ্রামে ক্রুসহ ৪৬ যাত্রীর নিরাপদে অবতরণ

এদিকে এক ঘণ্টা আকাশে চক্কর দেওয়ার পর চট্টগ্রাম শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে নামতে পেরেছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসের যাত্রীবাহী ফ্লাইটটি। ল্যান্ডিং গিয়ারে ত্রুটির কারণে উড়োজাহাজটি চট্টগ্রাম বিমানবন্দরের আকাশে এসে নামতে পারেনি বলে জানা গেছে। এই ফ্লাইটে চট্টগ্রামের সাতকানিয়া-লোহাগাড়া আসনের সংসদ সদস্য ড. আবু রেজা নদভীসহ ৪২ যাত্রী ছিল। ড্যাশ-৮ উড়োজাহাজটিতে থাকা চার বিমান ক্রু ও যাত্রীরা অক্ষত আছে।

সূত্র জানায়, ঢাকা শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে গতকাল রাত ৮টায় ছেড়ে আসা উড়োজাহাজটি চট্টগ্রামে নামার কথা ছিল ৪৫ মিনিট পর। সেই ফ্লাইট চট্টগ্রামে নামতে পেরেছে রাত পৌনে ১০টায়।

দুই দফা চক্কর দিয়ে বিফল হয়ে উড়োজাহাজটি এক ঘণ্টা আকাশে চক্কর দেয়। এর মধ্যে একবার ঢাকা বিমানবন্দরের কাছাকাছি পর্যন্ত পৌঁছে আবার ফিরে আসে। দ্বিতীয় দফায়ও বিফল হয়। পাইলট রুবায়েতের দক্ষতায় তৃতীয়বারের চেষ্টায় উড়োজাহাজটি রাত পৌনে ১০টায় চট্টগ্রামে নামতে সক্ষম হয়।

জানতে চাইলে বাংলাদেশ বিমানের চট্টগ্রাম বিমানবন্দরের পরিচালক উইং কমান্ডার ফরহাদ হোসেন খান কালের কণ্ঠকে বলেন, ?বিমানের চার ক্রু এবং ৪২ যাত্রী সবাই নিরাপদে অবতরণ করতে পেরেছে। নির্ধারিত সময়ের এক ঘণ্টা দেরিতে বিমানটি অবতরণ করেছে। যান্ত্রিক ত্রুটির কারণের কথা আমরা জেনেছি। পরে বিস্তারিত বলব।’

চার সদস্যের তদন্ত কমিটি

কক্সবাজার বিমানবন্দরে বাংলাদেশ বিমানের একটি উড়োজাহাজের পাখার ধাক্কায় দুটি গরুর মৃত্যুর ঘটনায় চার সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। একই সঙ্গে ঘটনার সময় সেখানে দায়িত্বরত চার আনসার সদস্যকে প্রত্যাহার করা হয়েছে।

বিমানবন্দরের চারপাশে কাঁটাতারের বেড়া দেওয়ার সুপারিশ

কক্সবাজার বিমানবন্দরের চারপাশে কাঁটাতারের নিরাপত্তা বেষ্টনী তৈরির সুপারিশ করেছে বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটি। গতকাল জাতীয় সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন সংসদীয় কমিটির সভাপতি র আ ম উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী। বৈঠকে কমিটির সদস্য প্রতিমন্ত্রী মো. মাহবুব আলী, ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন ও আশেক উল্লাহ রফিক আহমদ উপস্থিত ছিলেন। এ ছাড়া বিমানবন্দরে যাত্রী হয়রানি বন্ধে পদক্ষেপ গ্রহণের তাগিদ দেওয়া হয়।

 



সাতদিনের সেরা