kalerkantho

রবিবার । ৯ মাঘ ১৪২৮। ২৩ জানুয়ারি ২০২২। ১৯ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

নওগাঁয় সহিংসতায় আহত যুবকের মৃত্যু

আরো তিন জায়গায় হামলা, সংঘর্ষ, আহত ২১

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৯ নভেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৬ মিনিটে



নওগাঁয় সহিংসতায় আহত যুবকের মৃত্যু

তৃতীয় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে নওগাঁর মান্দার গণেশপুরে সহিংসতায় আহত যুবকের মৃত্যু হয়েছে। রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গতকাল বৃহস্পতিবার ভোর ৪টার দিকে তাঁর মৃত্যু হয়। এর পর থেকে ঘটনাস্থল সতিহাট বাজার এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। সংঘাত এড়াতে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

এদিকে তৃতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচন ঘিরে আরো তিন উপজেলায় সংঘর্ষ ও হামলায় ২১ জনের বেশি আহত হয়েছে। ঘটেছে আচরণবিধি লঙ্ঘনও। এ ছাড়া এক চেয়ারম্যান প্রার্থীর ওপর হামলা ও দ্বিতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচন-পরবর্তী সহিংসতায় এক ব্যক্তি নিহত হওয়ার ঘটনায় দুই উপজেলায় মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। গত বুধবার রাতে ও গতকাল বৃহস্পতিবার এসব ঘটনা ঘটে।

মান্দা উপজেলায় নিহত এমরান হোসেন রানা (৩৬) গণেশপুর ইউনিয়নের উত্তর শ্রীরামপুর গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা মৃত নাসির উদ্দিনের ছেলে। রানাকে নিয়ে দ্বিতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচনে সংঘর্ষে নিহতের সংখ্যা ৪১। আর দুই ধাপের নির্বাচনে গতকাল পর্যন্ত মৃত্যু হলো ৪৮ জনের। রানার মা রেজিয়া বিবি বলেন, তাঁর ছেলে কোনো রাজনৈতিক দলের সঙ্গে জড়িত ছিলেন না। তিনি স্বতন্ত্র প্রার্থী বাবুল চৌধুরীর বিআর সুপার পরিবহনের সুপারভাইজার ছিলেন। নির্বাচনী সহিংসতায় তিনি আহত হয়েছিলেন। ঘটনার সুষ্ঠু তদন্তসহ দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান তিনি। স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, প্রতীক বরাদ্দের দিন গত ১২ নভেম্বর সন্ধ্যায় সতিহাট বাসস্ট্যান্ড এলাকায় দুই চেয়ারম্যান পদপ্রার্থীর কর্মী ও সমর্থকদের মধ্যে ধাওয়াধাওয়ি ও সংঘর্ষ হয়। এতে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী হানিফ উদ্দিন মণ্ডলের পাঁচ কর্মী এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী উপজেলা বিএনপির আহ্বায়ক শফিকুল ইসলাম বাবুল চৌধুরীর তিন কর্মী আহত হন।

মান্দা থানার ওসি শাহিনুর রহমান বলেন, নির্বাচনী সহিংসতার ঘটনায় নৌকার প্রার্থী হানিফ উদ্দিন মণ্ডলের পক্ষে ৬০ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতপরিচয় ১৮০ থেকে ২০০ জনের বিরুদ্ধে থানায় একটি মামলা করা হয়েছে। স্বতন্ত্র প্রার্থী বাবুল চৌধুরীর পক্ষে মামলা করা হয়নি। মৃত্যুর ঘটনায় এজাহার পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

কুমিল্লার হোমনার মাথাভাঙ্গা ইউনিয়নের সিনাই এলাকায় গতকাল দুপুরে আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী নাজিউর রহমান ভূঁইয়ার সমর্থকদের সঙ্গে স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী জাহাঙ্গীর আলমের সমর্থকদের সংঘর্ষে উভয় পক্ষের অন্তত ১০ জন আহত হয়। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। আহতদের হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। হোমনা থানার ওসি আবুল কায়েছ আকন্দ জানান, প্রচার চালানোকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগ ও স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে ধাওয়াধাওয়ি হয়েছে।

লক্ষ্মীপুরের রায়পুরের উত্তর চরবংশী ইউপির ৫ নম্বর ওয়ার্ডে দুই সদস্য (মেম্বার) প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে উভয় পক্ষের অন্তত ১০ জন আহত হয়েছে। বুধবার রাতে আবদুর রব (মোরগ প্রতীক) ও মাইন উদ্দিনের (টিউবওয়েল প্রতীক) সমর্থকদের মধ্যে এ সংঘর্ষ হয়। আহতদের উপজেলা হাসপাতাল ও ক্লিনিকে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। রায়পুর থানার ওসি আবদুল জলিল বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়। অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে পুলিশ তৎপর রয়েছে। অভিযোগ পেলে তদন্ত করে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

যশোরের শার্শা উপজেলার উলাশী ইউনিয়নের উলাশী বাজারে বুধবার সন্ধ্যায় আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থীর সমর্থকদের বিরুদ্ধে স্বতন্ত্র প্রার্থী আয়নাল হকের নির্বাচনী অফিস ভাঙচুর ও কর্মী-সমর্থকদের মারধরের অভিযোগ উঠেছে। এতে আয়নাল হকের কর্মী নজরুল ইসলামসহ কয়েকজন আহত হয়েছে। ঘটনায় আয়নাল হক থানায় অভিযোগ করেছেন। একই সময়ে সম্বন্ধকাঠি মোড়ে মেম্বার প্রার্থী সাইফুল ইসলামের নির্বাচনী অফিস ভাঙচুর করে গুঁড়িয়ে দেয় হামলাকারীরা। শার্শা থানার ওসি বদরুল আলম খান বলেন, উলাশীর ঘটনায় তদন্ত করে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

নড়াইলের কালিয়ার চাচুড়ি ইউপিতে ঘোড়া প্রতীকের প্রার্থী তৌরুত হোসেনের পোস্টারের ওপর আনারস প্রতীকের প্রার্থী মেলজার ভূইয়ার পোস্টার সাঁটিয়ে ঢেকে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। ইউনিয়নের হাড়িয়ারঘোপ, সুমেরুখোলাসহ কয়েকটি এলাকার গাছ, দেয়ালসহ অন্তত এক শ স্থানে আনারস প্রতীকের পোস্টারের নিচে ঘোড়া প্রতীকের পোস্টার দেখা গেছে।

জানতে চাইলে অভিযুক্ত প্রার্থী মেলজার হোসেন ভূইয়া বলেন, পোস্টার অনেক সময় শিশুরা লাগায়; তারা ভুল করতে পারে। আবার দুই পক্ষের মধ্যে গণ্ডগোল লাগাতে তৃতীয় পক্ষ কাজটা করতে পারে। তৌরুত হোসেন বলেন, একটি পক্ষ গণ্ডগোল তৈরির পাঁয়তারা চালাচ্ছে। চাচুড়ি ইউনিয়নের দায়িত্বপ্রাপ্ত রিটার্নিং কর্মকর্তা ও কালিয়া উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা বিশ্বাস সুজন কুমার বলেন, লিখিত অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ার কয়ড়া ইউপি নিবার্চনে স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী, উল্লাপাড়ার ‘প্রথম স্বাধীনতার পতাকা উত্তোলনকারী’ বীর মুক্তিযোদ্ধা খোরশেদ আলম ও তাঁর কর্মী-সমর্থকদের ওপর হামলা ও মারধরের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও সমাবেশ করা হয়েছে। গতকাল সকালে উল্লাপাড়ার মুক্তিযোদ্ধারা শহীদ মিনার চত্বরে এই মানববন্ধন ও সমাবেশ করেন। বক্তারা হামলাকারীদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা নিতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানান। পরে খোরশেদ আলম স্থানীয় একটি হোটেলে সংবাদ সম্মেলন করে ভোটারদের সুষ্ঠু ও নিরাপদে ভোট দেওয়ার পরিবেশ সৃষ্টি এবং ভোটের দিন ভোটকেন্দ্রে ব্যালট পেপার সরবরাহের জন্য প্রশাসনের প্রতি দাবি জানান। গত বুধবার সকালে ইউপির বর্তমান চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী হেলাল উদ্দীন ও তাঁর কর্মীরা ওই হামলা চালান বলে অভিযোগ। এতে খোরশেদ আলমসহ ছয়জন আহত হয়।

বরিশালের আগৈলঝাড়ার বাগধা ইউপিতে নির্বাচন-পরবর্তী সহিংসতায় (১৩ নভেম্বর) ভ্যানচালক মোকলেস মিয়া নিহত হওয়ার ঘটনায় দোষীদের বিচার দাবিতে বুধবার সন্ধ্যায় মানববন্ধন করা হয়। খাজুরিয়া গ্রামে শত শত এলাকাবাসী এ মানববন্ধন করে। এ সময় মোকলেস মিয়ার স্ত্রী খাদিজা বেগম বলেন, ‘মোকলেস মিয়াকে বিনা অপরাধে মারধর করে হত্যা করা হলো। আমরা ঘাতকদের বিচারের মাধ্যমে ফাঁসি চাই। ’

মানববন্ধনে বক্তব্য দেন উপজেলা আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক বজলুর রহমান মন্টু, বাগধা ইউনিয়ন যুবলীগ সভাপতি মোশারেফ হোসেন ছবি, সাবেক ইউপি সদস্য আব্দুল কাদের মিয়া প্রমুখ।

[প্রতিবেদনে তথ্য দিয়েছেন সংশ্লিষ্ট এলাকার কালের কণ্ঠের প্রতিনিধিরা। ]

 



সাতদিনের সেরা