kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৯ শ্রাবণ ১৪২৮। ৩ আগস্ট ২০২১। ২৩ জিলহজ ১৪৪২

প্রথম ধাপের ইউপি নির্বাচনে সহিংসতা

► নিহত ৩, অনেকে আহত
► নির্বাচন কমিশন বলছে অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২২ জুন, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৬ মিনিটে



প্রথম ধাপের ইউপি নির্বাচনে সহিংসতা

প্রথম ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচন সহিংসতা এড়াতে পারেনি। এ নির্বাচনে তিনজন নিহত ও অনেকে আহত হওয়ার খবর মিলেছে। গুলিবর্ষণ ও বোমাবাজির ঘটনা ঘটেছে। সংঘর্ষ থামাতে পুলিশকেও গুলি ছুড়তে হয়েছে।

তবে নির্বাচন কমিশন দুজন নিহত হওয়ার বিষয়টি জানিয়ে বলেছে, ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে কয়েকটি অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ঘটেছে। কিন্তু এর দায় নিতে চায়নি কমিশন।

গতকাল সোমবার সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত লক্ষ্মীপুর-২ আসনের উপনির্বাচন, ২০৪ ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচন ও দুটি পৌরসভার নির্বাচন হয়। রাত ১২টায় এ রিপোর্ট লেখার সময় পর্যন্ত নৌকা প্রতীক নিয়ে ১১৫ জন এবং বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ৩৬ জন ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ার খবর জানা গেছে। ভোটগ্রহণের পর নির্বাচন ভবনের মিডিয়া সেন্টারে এক সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন ইসি সচিব। করোনা পরিস্থিতির মধ্যেই সংক্রমণ কম বিবেচনায় এসব নির্বাচন করে কমিশন।

নির্বাচন কমিশন (ইসি) সচিব হুমায়ুন কবীর খোন্দকার বলেন, এতে দুজন নিহত হয়েছে। ভোলার চরফ্যাশন উপজেলায় একজন এবং বরিশালের গৌরনদীতে প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে আরেকজন নিহত হয়। যেহেতু প্রার্থীদের নিজেদের মধ্যে ধাওয়াধাওয়িতে নিহত হয়েছে, তাই প্রার্থীরাই এ বিষয়ে ব্যবস্থা নেবেন। এ ছাড়া ঘটনার তদন্ত হলে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানা যাবে। তিনি বলেন, কোনো মৃত্যুই কাম্য নয়।

ইসি সচিব বলেন, দু-একটি অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ছাড়া ভোট শান্তিপূর্ণভাবে সম্পন্ন হয়েছে। নির্বাচনে পর্যাপ্ত আইন-শৃঙ্খলা রক্ষা বাহিনীর সদস্য মোতায়েন ছিল। ভবিষ্যতে আর কী কী ব্যবস্থা নিলে এ ধরনের অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা আর ঘটবে না, তা পরবর্তী সময়ে পর্যালোচনা করা হবে। তিনি বলেন, নির্বাচন কমিশন থেকে সারা দেশে নির্বাচন মনিটর করা হয়েছে। এ ছাড়া বিভিন্ন মিডিয়ায় যেসব খবর প্রচারিত হয়েছে, তার ওপর ভিত্তি করেও প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। লক্ষ্মীপুর-২ আসনে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনে (ইভিএম) শান্তিপূর্ণভাবে ভোটগ্রহণ শেষ হয়েছে।

স্থগিত থাকা অন্য ইউনিয়ন পরিষদগুলোর নির্বাচন ঈদের আগে অনুষ্ঠিত হবে কি না জানতে চাইলে তিনি বলেন, কমিশন এ বিষয়ে এখনো কোনো সিদ্ধান্ত নেয়নি। পরবর্তী সভায় এ বিষয়ে আলোচনা করা হবে। ইউপির পরবর্তী ধাপের নির্বাচনের বিষয়েও কমিশন সভায় আলোচনার মাধ্যমে জানানো হবে।

কালের কণ্ঠ’র সংশ্লিষ্ট এলাকার নিজস্ব প্রতিবেদক ও প্রতিনিধিরা জানান, বরিশালের গৌরনদী উপজেলার খাঞ্জাপুর ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ডের কমলাপুর প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে জাল ভোট দেওয়াকে কেন্দ্র করে দুই ইউপি সদস্য প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে একজন নিহত হন। এ সময় কয়েকজন আহত হয়। নিহত ব্যক্তির নাম মৌজে আলী মৃধা (৬৫)। এ ছাড়া ভোটের পরে ওই ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ডে খাঞ্জাপুর প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে দুই ইউপি সদস্য প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ ও ককটেল হামলায় একজন নিহত হয়েছেন। নিহত ব্যক্তির নাম আবু বক্কর ফকির (৩৫)। তিনি খাঞ্জাপুর গ্রামের আমজু ফকিরের ছেলে। এ সময় কয়েকজন আহত হয়েছে।

চরফ্যাশন উপজেলার শশীভূষণ থানার হাজারীগঞ্জ ইউপি নির্বাচনের দুই মেম্বার প্রার্থীর পক্ষে কেন্দ্র দখল করতে গিয়ে পুলিশের গুলিতে মনির নামের এক যুবক নিহত হন। সকাল ১১টার দিকে ইউনিয়নের ৫ নম্বর ওয়ার্ডের চরফকিরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্রে এ ঘটনা ঘটে। এ সময় কমপক্ষে ১০-১২ আহত হয়। আহতদের মধ্যে ছয়জনকে চরফ্যাশন স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

পটুয়াখালীর বিভিন্ন ইউনিয়নের সংর্ঘষ, কেন্দ্র দখল, গুলি-বোমা, ব্যালট পেপার ভোটারদের কাছ থেকে জোর করে নিয়ে যাওয়া এবং প্রার্থীদের ভোট বর্জনের মধ্য দিয়ে ভোটগ্রহণ হয়েছে।

জেলার বাউফলের কেশবপুর ইউনিয়নের ২ নম্বর ওয়ার্ডে কেশবপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে সকাল পৌনে ৯টার দিকে আওয়ামী লীগের প্রার্থী সালাউদ্দিন পিকুর কর্মী-সমর্থকরা কেন্দ্র দখলের চেষ্টাকালে স্বতন্ত্র প্রার্থী ও বর্তমান চেয়ারম্যান মহিউদ্দিন লাভলুর সমর্থকরা বাধা দেয়। এ সময় দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষে তিন রাউন্ড গুলি ও কয়েকটি বোমা বিস্ফোরিত হয়। সংর্ঘষে ১০ জন আহত হয়। এর মধ্যে গুরুতর আহত রাশ মোহন দাশ (৪০) ও আতাউর রাব্বিকে (৩০) প্রথমে বাউফল এবং পরে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। ঘটনার পর ৩০ মিনিট ওই কেন্দ্রে ভোট বন্ধ ছিল।

একই উপজেলার ধুলিয়া ইউনিয়নের চাঁদকাঠি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে সকাল ১১টায় ফুটবল ও আপেল প্রতীকের কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে ধাওয়াধাওয়ি ও সংর্ঘষে ১০ জন আহত হয়। ওই কেন্দ্রে ৩০মিনিট ভোট বন্ধ ছিল। কনকদিয়া ইউনিয়নে নৌকা প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থী মো. শাহীন হাওলাদারের নেতৃত্বে জোর করে কেন্দ্র দখলের অভিযোগ এনে প্রতিদ্বন্দ্বী দুই স্বতন্ত্র প্রার্থী সফিকুল ইসলাম মিঠু ও মিজানুর রহমান হিরন সকাল ১১টায় ভোট বর্জন করেন। বগা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান পদে স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. জাকির হোসেনও আওয়ামী লীগ প্রার্থী হাসান হাওলাদারের বিরুদ্ধে কেন্দ্র দখল করে ভোটারদের প্রকাশ্যে ইভিএমে ভোট দেওয়ার অভিযোগ এনে ভোট বর্জন করেন।

এ ছাড়া কালাইয়া ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডে মো. আয়ানালী খন্দকার, আমিরুল ইসলাম ও নুরুল হক মোল্লা নামের তিন মেম্বার প্রার্থী ভোট কারচুপির অভিযোগ এনে ভোট বর্জন করেন।

বরগুনার আমতলী উপজেলার গুলিশাখালী ইউনিয়নের আঙ্গুলকাটা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে উপজেলা যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস ছোবহান লিটন প্রকাশ্যে নৌকা প্রতীকে সিল দিতে ভোটারদের চাপ প্রয়োগ করলে দায়িত্বরত নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তাঁকে আটক করে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষা বাহিনীর হাতে তুলে দেন। দুপুরে একই ইউনিয়নের ডালাচারা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে দুই প্রতিদ্বন্দ্বী সদস্য প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে ধাওয়াধাওয়ির ঘটনা ঘটে। পুলিশ লাঠিপেটা করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। ওই উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নে ভোটকেন্দ্র দখল, প্রকাশ্যে সিল মারা ও প্রভাব বিস্তারের অভিযোগ করেন স্বতন্ত্র প্রার্থীরা।

লক্ষ্মীপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি গোলাম ফারুক পিংকুর ব্যক্তিগত গাড়িতে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর করা হয়েছে। এতে তিনি হাতে আঘাতপ্রাপ্ত হন। এ সময় কয়েকটি দোকানঘর, মোটরসাইকেল ভাঙচুর করা হয় এবং পিটিয়ে ১০ নেতাকর্মীকে আহত করা হয়। গতকাল দুপুর দেড়টার দিকে কমলনগর উপজেলার তোরাবগঞ্জ উত্তর চরপাগলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্রের অদূরে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় শরিফ নামের এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ।

তোরাবগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী ফয়সাল আহমেদ রতনের নেতৃত্বে যুবলীগের নেতাকর্মীরা এ ঘটনা ঘটিয়েছে বলে অভিযোগ করেন পিংকু। এর প্রতিবাদে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা তোরাবগঞ্জ বাজারে বিক্ষোভ মিছিল করেন। লক্ষ্মীপুর শহরের মাদাম ব্রিজ এলাকায় লক্ষ্মীপুর-ঢাকা সড়ক অবরোধ করা হয়।

পিংকুর গাড়ি ভাঙচুরের ঘটনায় দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে তোরাবগঞ্জ ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মামুনুর রশিদকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে। একই সঙ্গে ইউনিয়ন ছাত্রলীগের কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণা করা হয়।

 



সাতদিনের সেরা