kalerkantho

বুধবার । ৮ বৈশাখ ১৪২৮। ২১ এপ্রিল ২০২১। ৮ রমজান ১৪৪২

পুলিশের গা বাঁচিয়ে চলার সুযোগ নেই

এ কে এম শহীদুল হক

৮ এপ্রিল, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



পুলিশের গা বাঁচিয়ে চলার সুযোগ নেই

পুলিশকে আইনের মধ্যে থেকে জনগণের কল্যাণে কাজ করতে হয়। এর বাইরেও সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকে পুলিশ অনেক কাজ করে। এমনই একটি সময় আমরা পার করছি। তবে অনেক সময় এই সামাজিক কাজ করাও কঠিন হয়ে যায়। করোনা মহামারির মধ্যে প্রথমে পুলিশ নিজের জীবনের তোয়াক্কা না করে দেশের মানুষের সুরক্ষায় এগিয়ে এসেছে। তবে এখনো যদি মানুষ মাস্ক না পরে তাহলে পুলিশ আসলে কী করবে? গাড়ি আটকে পুলিশ দেখতে পারে দূরত্ব বজায় রাখা হচ্ছে কি না। তবে একা পুলিশ এসব কি করতে পারে? পরিবহন সেক্টরের সমিতি আছে, সংগঠন আছে, কর্মী আছে—তাদেরও দায়বদ্ধতা আছে।

অফিস-আদালতের সুরক্ষার ব্যাপারটি নিজ নিজ মন্ত্রণালয়কে দেখতে হবে। সবাইকে মাস্ক পরতে হবে, স্বাস্থ্যবিধি মানতে হবে সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকে। দেশের প্রতি দায়বদ্ধতা থেকে পরিস্থিতি বুঝতে হবে। পরিবার থেকে শুরু করে জনপ্রতিনিধি, পেশাদার গ্রুপ এবং কমিউনিটি নেতাদের এসব বিষয় নিশ্চিত করতে হবে। পুলিশের বাধ্য করার ক্ষেত্রে আইনগত কিছু সীমাবদ্ধতা আছে। বেশি ক্ষমতা পেলে জেল-জরিমানার মাধ্যমে পুলিশ এটা হয়তো করতে পারে। তবে সরকার এখন একটি সফট নীতি নিয়ে আছে। সবাইকে বুঝিয়ে পরিস্থিতি মোকাবেলা করতে হচ্ছে। এই ভূমিকটাই আসলে পালন করছে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। সচেতনতায় তাই সবচেয়ে বেশি জোর দিতে হবে।

ব্যবসায়ীরা যেভাবে রাস্তায় নামছেন তাতে ভয় হচ্ছে। তাঁদের বুঝতে হবে, তাঁদের বাঁচাতেই সরকার এই নির্দেশনা দিয়েছে। এক সপ্তাহ বন্ধ রাখলে তো আর ব্যবসা শেষ হয়ে যাবে না। কেন এভাবে ঝুঁকি নিয়ে মাস্ক না পরে জড়ো হচ্ছেন? জীবন বিপন্ন করবেন কেন? আপনাদের কি নাগরিক দায়িত্ব নেই? এদিকে হেফাজতে ইসলাম তো দেশ, প্রশাসন কিছু মানে না। তারা করোনার মধ্যেও কিছু মানছে না। গণজমায়েত করেছে। মাদরাসাও বন্ধ করছে না। তাদের ব্যাপারে সরকারের আরো কঠোর হওয়া উচিত বলে মনে করি।

এমন পরিস্থিতিতে যদি কেউ বলে পুলিশ নিজেদের সুরক্ষার কথা চিন্তা করে সামনে থাকবে না; এটা ঠিক বলেনি। কোনো দুর্যোগে পুলিশের গা বাঁচিয়ে চলার সুযোগ নেই। তবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে। ফার্স্ব রেসপন্ডার হিসেবে পুলিশ সব সময় বিপদে জনগণের পাশে সবার আগে থাকে। অতীতে যেভাবে ছিল, যেভাবে কাজ করেছে, এভাবেই কাজ করতে হবে। ঝুঁকি নিয়ন্ত্রণে পুলিশের গুরুত্ব অপরিসীম।

লেখক : সাবেক আইজিপি

মন্তব্য