kalerkantho

মঙ্গলবার । ৪ মাঘ ১৪২৮। ১৮ জানুয়ারি ২০২২। ১৪ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

বাংলা দ্বিতীয় পত্র

ষষ্ঠ শ্রেণি : নির্মিতি

আতাউর রহমান সায়েম, সিনিয়র সহকারী শিক্ষক, আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজ, মতিঝিল, ঢাকা

৫ ডিসেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



   সারাংশ

১।        আগেকার দিনে আমাদের ... অনেক সহজ হয়ে উঠেছে।

            উত্তর : বর্তমান বেলুনের পরিবর্তে মহাকাশ স্যাটেলাইট পাঠিয়ে আকাশে পরীক্ষা-নিরীক্ষা চলছে। আর তার মাধ্যমে বিশ্বব্যাপী যোগাযোগ ব্যবস্থা বিস্তৃত হয়েছে। বিভিন্ন ইলেকট্রনিক যন্ত্রের সংকেত পাঠানোর মাধ্যমে যোগাযোগ আজ অনেক সহজ হয়েছে।

২।         সাজসজ্জার দিকে বেশ ঝোঁকে ... গলায় ফুলের মালা।

            উত্তর : প্রাচীনকালে বাঙালি জাতি পোশাক-পরিচ্ছদের ব্যাপারে বেশ শৌখিন ছিল। ছেলেমেয়ে উভয়েই তাদের পোশাক ব্যবহারের প্রতি ছিল সচেতন। তবে সমাজের উঁচু-নিচু শ্রেণিভেদে পোশাক-পরিচ্ছদে কিছু পার্থক্যও ছিল।

          

        সারমর্ম

 

১।        সবুজ-শ্যামল বনভূমি মাঠ নদীতীর বালুচর ... মুজিব আয় ঘরে ফিরে আয়।

            উত্তর : বাংলাদশের সব জায়গায়ই বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের অস্তিত্ব অনুভূত হয়। প্রকৃতির নিসর্গে, মানুষের সৌন্দর্যেও তাঁকে প্রত্যক্ষ করা যায়। তাঁর নেতৃত্বের জন্যই বাঙালির মনে চিরঞ্জীব হয়ে থাকবেন।

২।         পরের কারণে স্বার্থ দিয়া বলি ... প্রত্যেক মোরা পরের তরে।

            উত্তর : আপন ভোগ-বিলাসে মগ্ন থাকার জন্যই মানুষের জন্ম হয়নি। পরার্থে জীবন উৎসর্গ করার মধ্যেই মানবজীবনের প্রকৃত সুখ নিহিত। অতএব, প্রকৃত সুখ পেতে হলে নিজেকে পরের কল্যাণে বিলিয়ে দিতে হবে।

 

            অনুচ্ছেদ

 

            শীতের পিঠা

            উত্তর : ষড়ঋতুর দেশ বাংলাদেশ। শীতকাল এর মধ্যে অন্যতম। শীতকালে নতুন ধান ওঠে। সেই ধানে ঘরে ঘরে পিঠা বানানোর উৎসব শুরু হয়। নতুন চালের গুঁড়া আর খেজুর রসের গুড় দিয়ে বানানো হয় নানা রকম পিঠা। বিভিন্ন রকম নাম এগুলোর, নানা রকম এদের রূপের বাহার। যেমন—ভাপাপিঠা, চিতই পিঠা, পুলি পিঠা, পাটিসাপটা এবং আরো হরেক রকম পিঠা তৈরি হয় বাংলার ঘরে ঘরে। পায়েস, ক্ষীর ইত্যাদি মুখরোচক খাবার আমাদের রসনাকে তৃপ্ত করে শীতকালে। এ সময় শহর থেকে অনেকে গ্রামে যায় পিঠা খেতে। তখন গ্রামাঞ্চলের বাড়িগুলো নতুন অতিথিদের আগমনে মুখরিত হয়ে ওঠে। শীতের সকালে চুলার পাশে বসে গরম গরম ভাপাপিঠা খাওয়ার মজাই আলাদা। গ্রামের মতো শহরে শীতের পিঠা সে রকম তৈরি হয় না। তবে শহরের রাস্তাঘাটে শীতকালে ভাপা ও চিতই পিঠা বানিয়ে বিক্রি করা হয়। এ ছাড়া বড় বড় হোটেলে পিঠা উৎসব হয়। পিঠা বাঙালি সংস্কৃতির অন্যতম উপাদান।

 

            স্কুল লাইব্রেরি

            উত্তর : শিক্ষাই জীবন, জীবনই শিক্ষা। বই হচ্ছে জ্ঞানের ভাণ্ডার। তাই প্রতিটি স্কুলে গ্রন্থাগার হচ্ছে জ্ঞানভাণ্ডারের একটি স্থান বা উৎস। প্রতিটি স্কুলে লাইব্রেরি থাকা একান্ত প্রয়োজন। বিভিন্ন গল্পের বই, উপন্যাস, কবিতা, মনীষীদের জীবনী, ম্যাগাজিন, সাহিত্য, ধর্মীয় বই ইত্যাদি স্কুলের গ্রন্থাগারে থাকা আবশ্যক। স্কুলে লাইব্রেরি প্রতিটি শিক্ষার্থীকে জ্ঞান আহরণের জন্য নতুন আলোড়ন সৃষ্টি করতে পারে। স্কুল লাইব্রেরি থেকে শিক্ষার জ্ঞান আহরণ করা যায়, তেমনি শিক্ষার্থীরাও জ্ঞান আহরণের জন্য স্কুল লাইব্রেরিতে বিশেষ সময়ে যেতে পারে। আমাদের আইডিয়াল স্কুলেও একটি লাইব্রেরি আছে, যেখানে শিক্ষার্থীরা এসে নীরবে বই পড়ে জ্ঞান আহরণ করে। বই পড়ার মাধ্যমে নতুন জিনিস, নতুন তথ্য, সমস্যার সমাধান করার নতুন উপায় অর্জনের মাধ্যমগুলো খুঁজে পাওয়া যায়। তাই নিয়মিতভাবে লাইব্রেরি চর্চা করা উচিত।



সাতদিনের সেরা