kalerkantho

সোমবার । ৩ মাঘ ১৪২৮। ১৭ জানুয়ারি ২০২২। ১৩ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

এইচএসসি প্রস্তুতি : সংক্ষিপ্ত সিলেবাস অনুসারে পদার্থবিজ্ঞান প্রথম পত্র

বিশ্বজিৎ দাস, সহকারী অধ্যাপক, দিনাজপুর সরকারি কলেজ দিনাজপুর

৩০ নভেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৬ মিনিটে



এইচএসসি প্রস্তুতি : সংক্ষিপ্ত সিলেবাস অনুসারে পদার্থবিজ্ঞান প্রথম পত্র

জ্ঞানমূলক প্রশ্ন

১।   একক ভেক্টর কাকে বলে?

     উত্তর : যে ভেক্টরের মান এক একক তাকে একক ভেক্টর বলে।

২।   শূন্য ভেক্টর কাকে বলে?

     উত্তর : যে ভেক্টরের অবস্থান আছে কিন্তু মান শূন্য, তাকে শূন্য ভেক্টর বলে।

৩।   অবস্থান ভেক্টর বলতে কী বোঝো?

     উত্তর : প্রসঙ্গকাঠোমার মূলবিন্দুর সাপেক্ষে কোনো বিন্দুর অবস্থান যে ভেক্টরের সাহায্যে প্রকাশ করা হয় তাকে অবস্থান ভেক্টর বলে।

৪।   সদৃশ ভেক্টর বা সমদিক ভেক্টর বা সমান্তরাল ভেক্টর কী?

     উত্তর : সমজাতীয় অসমমানের দুই বা ততোধিক ভেক্টরের দিক যদি একই দিকে হয় তবে তাদের সদৃশ ভেক্টর বা সমদিক ভেক্টর বা সমান্তরাল ভেক্টর বলে।

৫।   ভেক্টর রাশির স্কেলার গুণন বা ডট গুণন বা অদিক গুণন কাকে বলে?

     উত্তর : দুটি ভেক্টর রাশিকে গুণন করলে গুণফল যদি একটি স্কেলার রাশি হয়, তবে ভেক্টরের ওই গুণনকে স্কেলার গুণন বা ডট গুণন বলে। যার মান ভেক্টসরদ্বয়ের মান এবং এদের মধ্যবর্তী কোণের কোসাইনের গুণফলের সমান।

৬।   ভেক্টর রাশির ভেক্টর গুণন বা ক্রস গুণন বা সদিক গুণন বলতে কী বোঝো?

     উত্তর : দুটি ভেক্টর রাশিকে গুণ করলে গুণফল যদি একটি ভেক্টর রাশি হয়, তবে ভেক্টরের ওই গুণনকে ভেক্টর গুণন বা ক্রস গুণন বলে। যার মান ভেক্টরদ্বয়ের মান এবং এদের মধ্যবর্তী কোণের সাইনের গুণফলের সমান এবং দিক হলো একটি ডান পাকের কর্ক স্ক্রুকে প্রথম ভেক্টর থেকে দ্বিতীয় ভেক্টরের দিকে ক্ষুদ্রতম কোণে ঘুরালে স্ক্রুটি যেদিকে অগ্রসর হয় ওই দিকে হয়।

৭।   জড়তার ভ্রামক কী?

     উত্তর : কোনো অক্ষের সাপেক্ষে ঘূর্ণনরত দৃঢ় বস্তুর কণাসমূহের ভর এবং ঘূর্ণন অক্ষ থেকে এদের দূরত্বের বর্গের গুণফলের সমষ্টিকে ওই অক্ষের সাপেক্ষে বস্তুর জড়তার ভ্রামক বলে।

৮।   টর্ক কাকে বলে?

     উত্তর : কোনো ঘূর্ণনরত বস্তুকণার ব্যাসার্ধ বা অবস্থান ভেক্টর এবং বস্তুকণার ওপর প্রযুক্ত বলের ভেক্টর গুণফলকে (ক্রস গুণন) টর্ক বলে।

৯।   কৌণিক ভরবেগ কী?

     উত্তর : ঘূর্ণনরত বস্তুকণার ব্যাসার্ধ বা অবস্থান ভেক্টর এবং রৈখিক ভরবেগের ভেক্টর গুণফলকে (ক্রস গুণন) কৌণিক ভরবেগ বলে।

১০।  কেন্দ্রমুখী বল কী?

     উত্তর : বৃত্তাকার পথে ঘূর্ণনরত কোনো বস্তুকণার ওপর যে বল ব্যাসার্ধ বরাবর কেন্দ্রের দিকে ক্রিয়া করে বস্তুকণাকে বৃত্তাকার পথে চলতে বাধ্য করে তাকে কেন্দ্রমুখী বল বলে।

১১।  বলের ঘাত বলতে কী বোঝো?

     উত্তর : বল এবং বলের ক্রিয়াকালের গুণফলকে বলের ঘাত বা ঘাত বলে।

১২।  চক্রগতির ব্যাসার্ধ কাকে বলে?

     উত্তর : ঘূর্ণন অক্ষ থেকে যে দূরত্বে কোনো বিন্দুতে বস্তুর সমস্ত ভর কেন্দ্রীভূত রয়েছে বিবেচনা করলে ওই অক্ষের সাপেক্ষে কেন্দ্রীভূত বিন্দুতে বস্তুর জড়তার ভ্রামক এবং ওই অক্ষের সাপেক্ষে সমগ্র বস্তুর জড়তার ভ্রামক একই হয়, তাকে চক্রগতির ব্যাসার্ধ বলে।

১৩।  স্থিতিস্থাপক বা প্রত্যয়নী বল কী?

     উত্তর : স্থিতিস্থাপক সীমার মধ্যে বাহ্যিক বল প্রয়োগে কোনো স্থিতিস্থাপক বস্তুর বিকৃতি ঘটানোর পর বাহ্যিক বল অপসারণ করলে যে বলের কারণে বিকৃতি বস্তু আবার আগের অবস্থায় ফিরে আসে তাকে স্থিতিস্থাপক বল বা প্রত্যয়নী বল বলে।

১৪।  সংরক্ষণশীল বল কাকে বলে?

     উত্তর : একটি বস্তুকে পূর্ণচক্র ঘুরিয়ে আনতে প্রযুক্ত বলের দ্বারা কৃতকাজ শূন্য হলে, ওই বলকে সংরক্ষণশীল বল বলে।

১৫।  অসংরক্ষণশীল বল বলতে কী বোঝো?

     উত্তর : একটি বস্তুকে পূর্ণচক্রে ঘুরিয়ে আনতে প্রযুক্ত বলের দ্বারা কৃতকাজ শূন্য না হলে, ওই বলকে অসংরক্ষণশীল বল বলে।

১৬।  স্প্রিং ধ্রুবক বা বল ধ্রুবক কী?

     উত্তর : কোনো স্প্রিংয়ের মুক্ত প্রান্তের একক সরণ ঘটালে স্প্রিংটি সরণের বিপরীত দিকে যে বল প্রয়োগ করে তাকে ওই স্প্রিংয়ের স্প্রিং ধ্রুবক বলে।

১৭।  কর্মদক্ষতা বলতে কী বোঝো?

     উত্তর : কোনো ব্যবস্থা যখন শক্তি রূপান্তরিত করে তখন ব্যবস্থা কর্তৃক কাজে রূপান্তরিত শক্তি এবং ব্যবস্থায় প্রদত্ত মোট শক্তির অনুপাতকে ওই ব্যবস্থার কর্মদক্ষতা বলে।

১৮।  কৌণিক কম্পাঙ্ক কী?

     উত্তর : সরল ছন্দিত গতিসম্পন্ন কোনো কণা একক সময়ে যে কৌণিক দূরত্ব অতিক্রম করে তাকে কৌণিক কম্পাঙ্ক বলে।

১৯।  দশা কী?

     উত্তর : কোনো একটি কম্পমান বস্তুর যেকোনো মুহূর্তের দোলনের অবস্থা যা দ্বারা বোঝা যায় তাকে দশা বলে।

২০।  সরল দোলন বা ছন্দিত গতি বা সরল ছন্দিত স্পন্দন কাকে বলে? 

     উত্তর : পর্যাবৃত্ত গতিসম্পন্ন কোনো বস্তুকণার গতি যদি এমন হয় যে এর ওপর ক্রিয়ারত বল বস্তুকণার সাম্যাবস্থান থেকে সরণের সমানুপাতিক ও বিপরীতমুখী হয়, তবে ওই গতিকে সরল দোলন বা ছন্দিত গতি বলে।

২১।  স্পন্দন গতি বা দোলন গতি বলতে কী বোঝো?

     উত্তর : কোনো বস্তুকণার গতি যদি এমন হয় যে কণাটি তার পর্যায়কালের অর্ধেক সময় তার গতিপথের একদিকে এবং বাকি অর্ধেক সময় তার বিপরীত দিকে গমন করে, তাহলে বস্তুকণার ওই গতিকে স্পন্দন গতি বা দোলন গতি বলে।

২২।  সেকেন্ড দোলক কী?

     উত্তর : যে দোলকের দোলনকাল 2 সেকেন্ড, তাকে সেকেন্ড দোলক বলে।

২৩।  শিশিরাঙ্ক কাকে বলে?

     উত্তর : যে তাপমাত্রায় একটি নির্দিষ্ট আয়তনের বায়ু এর ভেতরের জলীয় বাষ্প দ্বারা সম্পৃক্ত হয়, অথবা যে তাপমাত্রায় শিশির জমতে অথবা অদৃশ্য হতে শুরু করে, তাকে শিশিরাঙ্ক বলে।

২৪।  আপেক্ষিক আর্দ্রতা বলতে কী বোঝো?

     উত্তর : একটি নির্দিষ্ট আয়তনের বায়ুতে যে পরিমাণ জলীয়বাষ্প থাকে, তার সঙ্গে ওই তাপমাত্রায় উক্ত আয়তনের বায়ুকে সম্পৃক্ত করতে যে পরিমাণ জলীয়বাষ্পের প্রয়োজন হয়, তাদের অনুপাতকে আপেক্ষিক আর্দ্রতা বলে।

২৫।  স্বাধীনতার মাত্রা বা স্বাতন্ত্র্য সংখ্যা কাকে বলে?

     উত্তর : কোনো গতিশীল সিস্টেমের অবস্থা বা অবস্থান নির্দিষ্টভাবে প্রকাশ করার জন্য যত সংখ্যক স্বাধীন চল রাশির প্রয়োজন হয়, তাকে ওই সিস্টেমের স্বাধীনতার মাত্রা বা স্বাতন্ত্র্য সংখ্যা বলে।

২৬।  পরম আর্দ্রতা কী?

     উত্তর : কোনো স্থানের একক আয়তনের বায়ুতে যে পরিমাণ জলীয়বাষ্প থাকে, তাকে ওই স্থানের পরম আর্দ্রতা বলে।

২৭।  গড় বর্গবেগের বর্গমূল বা বর্গমূল গড় বর্গবেগ বা মূল গড় বর্গবেগ বা গড় বর্গবেগের মূল কাকে বলে?

     উত্তর : গ্যাসের অণুগুলোর বেগের বর্গের গড় মানের বর্গমূলকে গড় বর্গবেগের বর্গমূল বলে।

২৮।  মোলার গ্যাস ধ্রুবকR বলতে কী বোঝো? 

     উত্তর : 1 atm চাপ স্থির রেখে 1 mol আদর্শ গ্যাসের তাপমাত্রা 1 k বাড়ালে গ্যাসের আয়তন বৃদ্ধির জন্য যে পরিমাণ কাজ সম্পাদিত হয় তাকে মোলার গ্যাস ধ্রুবক R বলে।

২৯।  1 জুল বলতে কী বোঝো? 

উত্তর : 1 নিউটন বল প্রয়োগে বলের ক্রিয়ারেখা বরাবর বস্তুর 1 মিটার সরণ ঘটালে যে কাজ সম্পন্ন হয়, তাকে 1 জুল বলে।



সাতদিনের সেরা