kalerkantho

বুধবার । ২০ নভেম্বর ২০১৯। ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ২২ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

জ্ঞানমূলক প্রশ্ন

জেএসসি প্রস্তুতি - বিজ্ঞান

মো. মিকাইল ইসলাম নিয়ন, সহকারী শিক্ষক, ঝিনুক মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়, চুয়াডাঙ্গা সদর, চুয়াডাঙ্গা

১০ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৫ মিনিটে



জেএসসি প্রস্তুতি - বিজ্ঞান

চিত্র : নিউরন

আজ জেএসসি বিজ্ঞান পরীক্ষায় আসার মতো কিছু গুরুত্বপূর্ণ জ্ঞানমূলক প্রশ্ন দেওয়া হলো

(১) প্রজনন কাকে বলে?

উত্তর : যে জটিল প্রক্রিয়ায় জীব তার প্রতিরূপ বা বংশধর সৃষ্টি করে, তাকে প্রজনন বলে।

(২) অঙ্গজ প্রজনন কাকে বলে?

উত্তর : কোনো ধরনের অযৌন রেণু বা জননকোষ সৃষ্টি না করে দেহের অংশ খণ্ডিত হয়ে বা কোনো অঙ্গ রূপান্তরিত হয়ে যে প্রজনন ঘটে তাকে অঙ্গজ প্রজনন বলে।

(৩) পরাগায়ণ কাকে বলে?

উত্তর : ফুলের পরাগধানী থেকে পরাগরেণুর একই ফুলে অথবা একই জাতের অন্য ফুলের গর্ভমুণ্ডে স্থানান্তরিত হওয়াকে পরাগায়ণ বলে।

(৪) সরল ফল কাকে বলে?

উত্তর : ফুলের একটিমাত্র গর্ভাশয় থেকে যে ফলের উৎপত্তি তাকে সরল ফল বলে।

(৫) প্রজনন প্রধানত কয় প্রকার?

উত্তর : প্রজনন প্রধানত দুই প্রকার।

(৬) ফল কাকে বলে?

উত্তর : নিষিক্তকরণের পর গর্ভাশয় এককভাবে অথবা ফুলের অন্যান্য অংশসহ যে অঙ্গ গঠন করে, তাকে ফল বলে।

(৭) সম্পূর্ণ ফুল কাকে বলে?

উত্তর : উদ্ভিদের শাখা-প্রশাখার শীর্ষে বৃতি, দল, পুংকেশর, স্ত্রীকেশর ও গর্ভাশয় নিয়ে যে বিশেষ অঙ্গ গঠিত হয়, তাকে সম্পূর্ণ ফুল বলে।

(৮) বৃতি কী?

উত্তর : ফুলের সবচেয়ে বাইরের স্তবককে বৃতি বলে।

(৯) নিষিক্তকরণের পূর্বশর্ত কী?

উত্তর : জননকোষ অর্থাৎ গ্যামেট সৃষ্টি নিষিক্তকরণের পূর্বশর্ত।

(১০) জনন কাকে বলে?

উত্তর : যে জটিল প্রক্রিয়ায় জীব তার প্রতিরূপ বা বংশধর সৃষ্টি করে, তাকে জনন বলে।

(১১) হরমোন কী?

উত্তর : যে রাসায়নিক বস্তু কোনো কোষে উৎপন্ন হয়ে উৎপত্তিস্থল থেকে বাহিত হয়ে দূরবর্তী স্থানের কোষের কার্যাবলি নিয়ন্ত্রণ করে, তাকে হরমোন বলে।

(১২) মানবদেহের প্রধান রেচন অঙ্গ কী?

উত্তর : মানবদেহের প্রধান রেচন অঙ্গ হলো বৃক্ক।

(১৩) স্নায়ু তাড়না কাকে বলে?

উত্তর : স্নায়ুর ভেতর দিয়ে যে সংবাদ বা অনুভূতি বাহিত হয়, তাকে স্নায়ু তাড়না বলে।

(১৪) উদ্ভিদের ফুল ফোটাতে সাহায্যকারী হরমোনের নাম কী?

উত্তর : উদ্ভিদের ফুল ফোটাতে সাহায্যকারী হরমোনের নাম হলো ফ্লোরিজেন।

(১৫) মস্তিষ্কের প্রধান অংশের নাম লেখো?

উত্তর : মস্তিষ্কের প্রধান অংশের নাম হলো গুরুমস্তিষ্ক বা সেরিব্রাম।

(১৬) ফ্লোরিজেন কী?

উত্তর : ফ্লোরিজেন এক প্রকার হরমোন, যা উদ্ভিদে ফুল উৎপন্ন করে।

(১৭) ফাইটোহরমোন কাকে বলে?

উত্তর : উদ্ভিদের বৃদ্ধি ও বিকাশ, বিভিন্ন অঙ্গ সৃষ্টি ইত্যাদি উদ্ভিদ দেহে উৎপাদিত বিশেষ কোনো জৈব রাসায়নিক পদার্থের প্রভাবে হয়ে থাকে। উদ্ভিদের সব কাজ নিয়ন্ত্রণকারী এই জৈব রাসায়নিক পদার্থকে ফাইটোহরমোন বলে।

(১৮) নিউরন কী?

উত্তর : স্নায়ুতন্ত্রের গঠন ও কার্যকরী একককে নিউরন বলে।

(১৯) রেচনতন্ত্র কী?

উত্তর : যে তন্ত্র রেচন কাজে সাহায্য করে, তাকে রেচনতন্ত্র বলে।

(২০) কার্বনের আইসোটোপ কয়টি?

উত্তর : কার্বনের আইসোটোপ তিনটি।

(২১) এটম শব্দের অর্থ কী?

উত্তর : এটম শব্দটির অর্থ হলো অবিভাজ্য।

(২২) আইসোটোপ কাকে বলে?

উত্তর : একই মৌলের ভিন্ন ভরসংখ্যাবিশিষ্ট পরমাণুকে পরস্পরের আইসোটোপ বলে।

(২৩) অক্সিজেনের পারমাণবিক সংখ্যা কত?

উত্তর : অক্সিজেনের পারমাণবিক সংখ্যা ৮।

(২৪) পরমাণু কাকে বলে?

উত্তর : মৌলিক পদার্থের বৈশিষ্ট্য রক্ষাকারী ক্ষুদ্রতম কণা, যা সরাসরি রাসায়নিক বিক্রিয়ায় অংশগ্রহণ করে, তাকে পরমাণু বলে।

(২৫) ভরসংখ্যা কী?

উত্তর : কোনো মৌলের পরমাণুতে প্রোটন ও নিউট্রনের মোট সংখ্যাকে ভরসংখ্যা বলে।

(২৬) পারমাণবিক সংখ্যা কাকে বলে?

উত্তর : কোনো মৌলের একটি পরমাণুতে প্রোটনের সংখ্যাকে পারমাণবিক সংখ্যা বলে।

(২৭) পরমাণু মডেল কী?

উত্তর : বিভিন্ন বিজ্ঞানী পরমাণুর ওপর বিভিন্ন পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর প্রাপ্ত তথ্য থেকে পরমাণুর গঠন সম্পর্কে যে মতবাদ উপস্থাপন করেন, তাকে পরমাণু মডেল বলে।

(২৮) ক্যাটায়ন কী?

উত্তর : ধনাত্মক চার্জযুক্ত পরমাণুকে ক্যাটায়ন বলে।

(২৯) আয়ন কী?

উত্তর : ধনাত্মক বা ঋণাত্মক চার্জযুক্ত পরমাণুকে আয়ন বলে।

(৩০) তেজস্ক্রিয় আইসোটোপ কী?

উত্তর : যেসব অস্থিত আইসোটোপ থেকে বিভিন্ন তেজস্ক্রিয় রশ্মি নির্গত হয়, তাদের তেজস্ক্রিয় আইসোটোপ বলে।

(৩১) পরমাণু কী?

 উত্তর : মৌলিক পদার্থের বৈশিষ্ট্য রক্ষাকারী ক্ষুদ্রতম কণা, যা সরাসরি রাসায়নিক বিক্রিয়ায় অংশগ্রহণ করে, তাকে পরমাণু বলে।

(৩২) ভর কাকে বলে?

উত্তর : কোনো বস্তুতে পদার্থের মোট পরিমাণকে ভর বলে।

(৩৩) মহাকর্ষ কী?

উত্তর : মহাবিশ্বের সব বস্তুকণাই একে অপরকে নিজের দিকে আকর্ষণ করে। এই আকর্ষণ বলকে মহাকর্ষ বলে।

(৩৪) মাধ্যাকর্ষণজনিত ত্বরণ বা অভিকর্ষজ ত্বরণ কাকে বলে?

উত্তর : মাধ্যাকর্ষণজনিত বলের প্রভাবে ভূপৃষ্ঠে মুক্তভাবে পড়ন্ত বস্তুর বেগ বৃদ্ধির হারকে মাধ্যাকর্ষণজনিত ত্বরণ বা অভিকর্ষজ ত্বরণ বলে।

(৩৫) মাধ্যাকর্ষণ বা অভিকর্ষ কী?

উত্তর : পৃথিবী ও অন্য একটি বস্তুর আকর্ষণকে মাধ্যাকর্ষণ বা অভিকর্ষ বলে।

(৩৬) ওজন কাকে বলে?

উত্তর : কোনো বস্তুকে পৃথিবী যে বল দ্বারা তার কেন্দ্রের দিকে আকর্ষণ করে, তাকে বস্তুর ওজন বলে।

(৩৭) ওজনের এসআই একক কী?

 উত্তর : ওজনের এসআই একক নিউটন।

(৩৮) ওজনহীনতা কী?

উত্তর : কোনো বস্তুর ওপর প্রতিক্রিয়া বল না থাকলে বস্তুর ওজন অনুভূত হয় না। এ ঘটনাকে ওজনহীনতা বলে।

(৩৯) অ্যানায়ন কী?

উত্তর : ঋণাত্মক চার্জযুক্ত পরমাণুকে অ্যানায়ন বলে।

(৪০) অভিকর্ষজ ত্বরণের মান কোন অঞ্চলে সবচেয়ে কম?

উত্তর : অভিকর্ষজ ত্বরণের মান বিষুবীয় অঞ্চলে সবচেয়ে কম।

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা