kalerkantho

বুধবার । ২৩ অক্টোবর ২০১৯। ৭ কাতির্ক ১৪২৬। ২৩ সফর ১৪৪১                 

টেনিসের কেনাকাটা

২৭ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



টেনিসের কেনাকাটা

টেনিস বল : বাজারে বিভিন্ন কম্পানির টেনিস বল পাওয়া যায়। তার মধ্যে নাসাউ, ডানলপ, উইলসন, পেন, প্রিন্স—এ ব্র্যান্ডগুলো আন্তর্জতিক টেনিস সংস্থা আইটিএফ অনুমেদিত।

দাম নির্ভর করে ব্র্যান্ডের ওপর। নাসাও বল এক ডজন সতেরো শ থেকে আঠারো শর মধ্যে। ডানলপের ডজন প্রায় দুই হাজার টাকা। পেন, প্রিন্স ও উইলসন কম্পানির বলগুলোর দাম প্রতি ডজন প্রায় সাড়ে তিন হাজার টাকা। ইন্দোনেশিয়ার নাসাউ বলটিই আমাদের দেশে বেশি চলে। রোমানদের কাছে জানা গেল, ভালো বল কিনতে গেলে আইটিএফ অনুমোদিত কি না দেখতে হবে। বল হাতে নিয়ে টিপে দেখতে হবে দেবে যায় কি না। দেবে গেলে কোয়ালিটি ভালো নয়। বলের ফোমগুলো ভালোভাবে লাগানো কি না চেক করে নিতে হবে।

র‍্যাকেট : র‍্যাকেট বিভিন্ন ব্র্যান্ডের পাওয়া যায়। এর মধ্যে হেড, ব্যাবল্যাট, ডানলপ, প্রিন্স, উইলসন, ইয়োনেক্স, টেকনিফাইবার, গামা, ভলকি উল্লেখযোগ্য। সব কম্পানির র‍্যাকেট আমাদের দেশে পাওয়া না গেলেও বড়সড় স্পোর্টসসামগ্রীর দোকানে এগুলোর বেশির ভাগই পাওয়া যাবে। এ ব্র্যান্ডগুলোর মধ্যেই আবার আছে নানা কোয়ালিটির র‍্যাকেট। দাম ছয় হাজার থেকে শুরু। প্র্যাকটিসের জন্য ৪৫ হাজার টাকা দামের র‍্যাকেটও পাওয়া যাবে। শিখতে গেলে কমপক্ষে ১৫ হাজার টাকা বাজেট রাখতেই হবে।

সব র‍্যাকেটই ফাইবারের তৈরি। দেখে নিতে হবে, বাঁধাইটা ঠিকঠাক আছে কি না। বাঁধাই নরম হলে বল জোরে ছুটবে না। আবার র‍্যাকেটটি নব্বই ডিগ্রি সোজা আছে কি না তা-ও দেখতে হবে। আবার ধরার পর আরামদায়ক কি না তা-ও বুঝে নিতে হবে।

টেনিস শু ও টি-শার্ট : টেনিস খেলতে পায়ের কাজ আছে। তাই পরা চাই জুত্সই জুতা। বাজারে বিভিন্ন ব্র্যান্ডের টেনিস শু পাওয়া যায়। নামকরা ব্র্যান্ডগুলো হলো—অ্যাডিডাস, পুমা, রিবক, কে-সুইস, নিউব্যালেন্স, অ্যাসিক্স, এইট্রেক্স, স্কেচারস, উইলসন ও নাইকি। দাম দুই হাজার থেকে ১৫ হাজার টাকা পর্যন্ত। টেনিসের টি-শার্টের দাম ২০০-৫০০ টাকার মধ্যে। চীন থেকে আসা টি-শার্টগুলো চলছে ভালো। রাজধানীর বেশির ভাগ স্পোর্টসসামগ্রীর দোকানে টেনিসের জন্য আলাদা টি-শার্ট পাওয়া যাবে। যেতে পারো স্টেডিয়াম মার্কেট, বসুন্ধরা সিটি, যমুনা ফিউচার পার্ক, কলাবাগান ওয়ার্ল্ড স্পোর্টস, পান্থপথের বডি অ্যান্ড স্পোর্টস, গুলশান ডিএনসিসির ওয়ার্ল্ড স্পোর্টস বা স্পোর্টস টাইম গুলশান-২ এর স্পোর্টস মার্কেটগুলোতে।

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা