kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ২১ নভেম্বর ২০১৯। ৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ২৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

সোনারগাঁয় ঝুঁকি নিয়ে ভাঙা সেতুতে যানবাহন চলাচল

সোনারগাঁ (নারায়ণগঞ্জ) প্রতিনিধি   

১৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয় সনমান্দী ও সাদিপুর ইউনিয়নের সংযোগ সেতুতে ঝুঁকি নিয়ে যানবাহান চলাচল করছে। দীর্ঘদিন ধরে এ সেতুর মাঝখানে ফাটল ও ভেঙে যাওয়ায় ব্যবহার অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। ভাঙা সেতুতে চলাচল করতে গিয়ে দুর্ঘটনার শিকার হচ্ছে চালক ও যাত্রীরা। এতে শিক্ষার্থীসহ অনেকেই আহত হয়েছেন। যেকোনো সময় ধসে পড়তে পারে সেতুটি। ফলে ওই এলাকায় প্রায় ২৫ গ্রামের মানুষের ভোগান্তিতে পড়তে হবে। এলাকাবাসী দ্রুত সেতুটি ভেঙে নতুন সেতু নির্মাণের দাবি জানিয়েছে।

জানা যায়, উপজেলার সনমান্দি ইউনিয়নের অলিপুরা ও সাদিপুর ইউনিয়নের পঞ্চমীঘাট খালে সেতুটির অবস্থান। দীর্ঘদিন ধরে সেতুটি ব্যবহার অনুপযোগী হয়ে পড়ে। পঞ্চমীঘাটে বাজার ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান রয়েছে। তা ছাড়া সনমান্দি ইউনিয়নের অলিপুরা, বাংলাবাজার, নাজিরপুর, ফতেপুর, দড়িকান্দি, ইমানের কান্দিসহ প্রায় ২৫ গ্রামের মানুষের চলাচলের একমাত্র পথ। এ পথ দিয়ে প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ যাতায়াত করে। সম্প্রতি সেতুর মাঝখানে ভেঙে বড় ফাটল দেখা দিয়েছে। যেকোনো সময় এ সেতুটি ধসে বড় ধরনের দুর্ঘটনার কবলে পড়তে পারে এলাকাবাসী।

বাংলাবাজার গ্রামের পনির খন্দকার জানান, দীর্ঘদিন ধরে সেতুটি বেহাল রয়েছে। এ সেতু দিয়ে প্রায় ২৫ গ্রামের হাজার হাজার মানুষের চলাচল। সেতুটি ভেঙে গেলে এ অঞ্চলের মানুষের ব্যবসা-বাণিজ্যের ব্যাঘাত ঘটবে। সেতুটি দ্রুত নির্মাণের উদ্যোগ নিতে প্রশাসনের কাছে জোর দাবি জানিয়েছেন।

সনমান্দি ইউনিয়নের সাবেক মেম্বার রুহুল আমিন জানান, ‘সেতুটি এতই ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে যেকোনো সময় ধসে পড়ে হতাহতের ঘটনা ঘটতে পারে। সেতুটি ভেঙে নতুন সেতু নির্মাণ অথবা মেরামত করা জরুরি।’ সাদিপুর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আ. রশিদ মোল্লা জানান, ‘সেতুটির বেহাল অবস্থার কথা কর্তৃপক্ষকে জানিয়েছি। তারা দ্রুত সংস্কার করবে বলে জানিয়েছে।’

সোনারগাঁ উপজেলার প্রধান প্রকৌশলী আলী হায়দার খান জানান, ‘সেতুটি একবার সংস্কার করা হলেও তা আবার ভেঙে পড়েছে। তবে এ সেতু পুনর্নির্মাণের জন্য চাহিদা পাঠানো হয়েছে। জনচলাচল অব্যাহত রাখতে অতিদ্রুত সংস্কার করা হবে।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা