kalerkantho

বুধবার । ৩০ নভেম্বর ২০২২ । ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ ।  ৫ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

ইরানে হিজাব উত্তেজনা

‘সর্বশক্তি দিয়ে’ বিক্ষোভ ঠেকানোর হুঁশিয়ারি

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ইরানে কঠোর পোশাকবিধি লঙ্ঘনের অপরাধে গ্রেপ্তার হওয়া মাশা আমিনি পুলিশ হেফাজতে মারা যাওয়ার পর থেকে যে বিক্ষোভ চলছে, নিজেদের সর্বশক্তি দিয়ে তা প্রতিরোধ করা হবে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছে দেশটির পুলিশ।

স্থানীয় সংবাদ সংস্থা ফারস নিউজে পুলিশ কমান্ডের যে বিবৃতি প্রকাশ করা হয়েছে, তাতে বলা হয়, ইরানের শত্রুরা ও কিছু দাঙ্গাকারী আজ দেশের শৃঙ্খলা, নিরাপত্তা ও স্বস্তি নষ্ট করার চেষ্টা চালাচ্ছে। পুলিশ নিজেদের সর্বশক্তি দিয়ে বিপ্লববিরোধীদের ষড়যন্ত্র আর শত্রুতা রুখবে।

১৬ সেপ্টেম্বর মাশা আমিনির মৃত্যুর পর থেকে চলমান বিক্ষোভে এরই মধ্যে ৭৫ জনের বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

মৃতদের কাতারে যোগ হয়েছেন হাদিস নাসাফি নামের ২০ বছরের এক তরুণী, যাঁর খোলা চুল পেছনে বেঁধে সাহসিকতার সঙ্গে বিক্ষোভে যোগ দেওয়ার ভিডিও ভাইরাল হয়েছিল। তাঁকে গুলি করে হত্যা করা হয়েছে বলে জানায় স্থানীয় সংবাদমাধ্যম। হাদিসকে ‘পনিটেইল গার্ল’ নামে ডাকা হতো। অন্য অনেক ইরানি নারী যাঁরা সাহসের সঙ্গে প্রতিবাদ করার জন্য চুল খুলে পুলিশের মুখোমুখি হয়েছিলেন, হাদিস তাঁদেরই একজন। তাঁর ভিডিও ভাইরাল হওয়ার পর তিনি মাশা আমিনির মৃত্যুর প্রতিবাদে ইরানজুড়ে চলা বিক্ষোভের প্রতীকে পরিণত হন।

ইরানের বিক্ষোভ ‘যুগান্তকারী বিপ্লব’ ইরানের প্রয়াত নেতা মোহাম্মদ রেজা পাহলভির তথা রেজা শাহর ছেলে রেজা পাহলভি দেশটিতে চলমান গণবিক্ষোভের প্রশংসা করে বলেছেন, এই বিক্ষোভ ইরানি নারীদের একটি যুগান্তকারী বিপ্লব।

১৯৭৯ সালের ইসলামী বিপ্লবে মোহাম্মদ শাহ পাহলভি ক্ষমতাচ্যুত হন। তিনি ছিলেন ইরানের শেষ শাহ। তাঁর বড় ছেলে রেজা পাহলভি বর্তমানে যুক্তরাষ্ট্রে নির্বাসিত জীবন যাপন করছেন। ইরানে চলমান নারী বিক্ষোভের প্রশংসা করার পাশাপাশি দেশটির ধর্মীয় নেতৃত্বের ওপর চাপ সৃষ্টি করতে বিশ্বের প্রতি আহবান জানিয়েছেন তিনি।

রেজার দাদা ১৯৩৬ সালে ইরানে সব ধরনের পর্দার বিধান নিষিদ্ধ করেছিলেন। আর রেজার বাবা হিজাব পরা যার যার পছন্দের বিষয়—এমন নীতিতে বিশ্বাসী ছিলেন। রেজার বাবাকে উত্খাত করে ইরানে ইসলামী প্রজাতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করার পর ইরানে জনসমক্ষে নারীদের পর্দা প্রথা বলবৎ করা হয়। সূত্র : এএফপি



সাতদিনের সেরা