kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৬ আগস্ট ২০২২ । ১ ভাদ্র ১৪২৯ । ১৭ মহররম ১৪৪৪

ইউক্রেনে আরো ক্ষেপণাস্ত্র পাঠাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

৩ জুলাই, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ইউক্রেনের দনবাস হিসেবে পরিচিত অঞ্চলের লুহানস্ক প্রদেশের অন্যতম শহর লিসিচানস্কে এখন যুদ্ধের তীব্রতা সবচেয়ে বেশি। সেখানকার নিয়ন্ত্রণ নিয়ে ভিন্ন ভিন্ন দাবি করছে ইউক্রেনীয় বাহিনী ও রুশপন্থী বিচ্ছিন্নতাবাদীরা। এর মধ্যে ইউক্রেনে আরো ক্ষেপণাস্ত্র ও গোলাবারুদ পাঠানোর ঘোষণা দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

বর্তমানে দনবাসের অঞ্চলের বেশির ভাগ রুশ বাহিনী অথবা রুশপন্থী বিচ্ছিন্নতাবাদীদের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।

বিজ্ঞাপন

ইউক্রেনে সামরিক অভিযান শুরুর প্রথম পর্যায়ে রাজধানী কিয়েভ দখলে ব্যর্থ হওয়া রুশ বাহিনীর লক্ষ্যই ছিল গোটা দনবাসে পূর্ণ নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠা করা। লক্ষ্য অর্জনের দিকে এগোতে থাকা রুশ বাহিনীর হামলা এখন যেসব জায়গায় জোরদার হয়েছে, সেগুলোর একটি লিসিচানস্ক।

ওই শহরের পরিস্থিতি সম্পর্কে রুশপন্থী বিচ্ছিন্নতাবাদীদের দাবি, শহরটির চারপাশ তারা ঘিরে ফেলেছে। তাদের ভাষায়, দনবাসে কৌশলগতভাবে গুরুত্বপূর্ণ সর্বশেষ শহরটি এখন তাদের ও রুশ বাহিনীর দখলে।

অন্যদিকে কিয়েভ কর্তৃপক্ষ বলছে, চারপাশ থেকে ঘিরে ফেলা হলেও শত্রুপক্ষের বিরুদ্ধে ইউক্রেনীয় বাহিনী শক্ত প্রতিরোধ গড়ে তুলেছে।

এদিকে কৃষ্ণ সাগরে ইউক্রেনের অন্যতম কৌশলগত গুরুত্বপূর্ণ দ্বীপ স্নেক আইল্যান্ডে রুশ বাহিনী প্রাণঘাতী ফসফরাস বোমা ছুড়েছে বলে অভিযোগ করেছে ইউক্রেনীয় বাহিনী। রুশ বাহিনী ওই দ্বীপের দখল ছাড়ার দুই দিনের মাথায় এ অভিযোগ করল কিয়েভ।

এমন যুদ্ধ পরিস্থিতির মধ্যে মার্কিন সেনা সদর দপ্তর পেন্টাগন গত শুক্রবার জানায়, আরো ৮২ কোটি ডলারের ক্ষেপণাস্ত্র ও গোলাবারুদ ইউক্রেনে পাঠাচ্ছে তারা। এটি হতে যাচ্ছে ইউক্রেনের জন্য যুক্তরাষ্ট্রের পাঠানো ১৪তম অস্ত্র সহায়তার প্যাকেজ। সূত্র : এএফপি



সাতদিনের সেরা