kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১১ আগস্ট ২০২২ । ২৭ শ্রাবণ ১৪২৯ । ১২ মহররম ১৪৪৪

ভস্ম থেকে উত্থান হংকংয়ের : চিনপিং

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১ জুলাই, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ভস্ম থেকে উত্থান হংকংয়ের : চিনপিং

শি চিনপিং

ভস্ম থেকে হংকংয়ের উত্থান হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন চীনের প্রেসিডেন্ট শি চিনপিং। যুক্তরাজ্যের কাছ থেকে চীনের কাছে হংকং নগর হস্তান্তরের ২৫তম বার্ষিকী এবং নতুন প্রধান নির্বাহী জন লির অভিষেক উদযাপন উপলক্ষে গতকাল বৃহস্পতিবার হংকংয়ে গিয়ে এ মন্তব্য করেন তিনি। ২০১৭ সালের পর এই প্রথম হংকং সফরে এলেন চীনা প্রেসিডেন্ট।

উচ্চগতির ট্রেনে চড়ে হংকং শহরের প্রাণকেন্দ্রে এসে চিনপিং বলেন, ‘হংকং অতীতে একাধিক গুরুতর পরীক্ষার সম্মুখীন হয়েছে এবং একাধিক ঝুঁকি ও চ্যালেঞ্জ অতিক্রম করতে সক্ষম হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

ঝড়ের পর ভস্ম থেকে পুনর্জন্ম হয়েছে হংকংয়ের এবং প্রাণবন্ত হয়ে আবির্ভূত হয়েছে। ’

১৯৯৭ সালে হংকং হস্তান্তরকালে ৫০ বছরের জন্য হংকংয়ে পৃথক শাসনব্যবস্থা কার্যকর করতে সম্মত হয় যুক্তরাজ্য ও চীন। ‘এক চীন দুই নীতি’র আওতায় এই ৫০ বছরের মধ্যে হংকংয়ে নিজেদের কোনো আইন প্রয়োগ করতে পারবে না চীন, সেটাই ছিল শর্ত। কিন্তু ২০১৯ সালে হংকংয়ে বিতর্কিত জাতীয় নিরাপত্তা আইন কার্যকরের মধ্য দিয়ে সেই শর্ত চীন ভঙ্গ করেছে বলে সমালোচকদের অভিযোগ।

চিনপিং অবশ্য বলেন, ‘বাস্তবতা প্রমাণ করেছে যে এক দেশ দুই ব্যবস্থা খুবই শক্তিশালী ও প্রাণপ্রাচুর্যে ভরপুর। এটি দীর্ঘ মেয়াদে হংকংয়ে স্থিতিশীলতা ও উন্নতির নিশ্চয়তা দেয়। ’

কভিড-১৯ মহামারি শুরুর পর এই প্রথম চীনের মূল ভূখণ্ড থেকে বাইরে এলেন চিনপিং। সঙ্গে ছিলেন স্ত্রী পেং লিইউয়ান ও পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ই। পতাকা নাড়িয়ে এবং ফুলের তোড়া দিয়ে চিনপিংকে স্টেশনে স্বাগতম জানায় স্কুল শিক্ষার্থীরা। এ সময় তারা মান্দারিন ভাষায় ‘স্বাগতম, স্বাগতম’ বলছিল।

এ সময় হংকংয়ের সাবেক প্রধান নির্বাহী ক্যারি লাম এবং তাঁর উত্তরসূরি জন লি উপস্থিত ছিলেন।

চিনপিংয়ের আগমন উপলক্ষে হংকংয়ে নিরাপত্তাব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে। শহরে সাময়িকভাবে ড্রোন ওড়ানো নিষিদ্ধ করা হয়েছে। হংকংয়ে সম্ভ্রান্ত ব্যবসায়ী ও রাজনীতিকদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন চিনপিং।

হংকং ছেড়ে চীনের মূল ভূখণ্ডের শেনজেন প্রদেশে রাত কাটাবেন চিনপিং ও তাঁর স্ত্রী পেং। সকালে হংকংয়ে এসে নগর হস্তান্তরের আড়াই দশক ও জন লির অভিষেক উদযাপন করবেন তাঁরা।

নিরাপত্তাজনিত কারণে ১৩ জন স্থানীয় ও বিদেশি সাংবাদিককে অনুষ্ঠান সম্প্রচারের অনুমতি দেওয়া হয়নি।

সূত্র : এএফপি



সাতদিনের সেরা