kalerkantho

শনিবার ।  ২১ মে ২০২২ । ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ । ১৯ শাওয়াল ১৪৪৩  

ট্রাম্প থেকে বাইডেন

যেভাবে বদলে গেছে হোয়াইট হাউস

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২০ জানুয়ারি, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সাবেক প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের তুলনায় ভিন্নধর্মী নীতি নিয়ে ক্ষমতার প্রথম বছরে হোয়াইট হাউসকে অনেকটাই বদলে ফেলেছেন বর্তমান প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। ডোনাল্ড ট্রাম্প ও মেলানিয়া ট্রাম্প দম্পতির সময় যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে বিখ্যাত এই বাড়ির যে আবহ তৈরি হয়েছিল, জো বাইডেন ও ফার্স্ট লেডি জিল বাইডেন সেখানে ওঠার পর তা ভিন্ন রকমের হওয়ার বিস্তর কারণও রয়েছে।

পোষা প্রাণী

ট্রাম্পই যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম আধুনিক যুগের প্রেসিডেন্ট, যার কোনো পোষা প্রাণী ছিল না। তাঁর ছিল অতিমাত্রায় জীবাণুভীতি।

বিজ্ঞাপন

তবে ট্রাম্প তাঁর প্রতিপক্ষকে অপমান করতে ঠিকই ‘কুকুর’ শব্দটি ব্যবহার করতে পছন্দ করতেন।

আর বাইডেন আন্তরিকভাবেই কুকুরপ্রেমী। গত বছরের জুনে বাইডেন দম্পতির প্রিয় কুকুর চ্যাম্প (একটি বয়স্ক জার্মান শেফার্ড) মারা যায়। তারপর মেজর নামের আরেকটি কুকুর পোষা শুরু করেন এই দম্পতি। চঞ্চল কুকুরটি হোয়াইট হাউসের নিরাপত্তাকর্মী ও অন্যদের প্রায়ই কামড়ে দেয়। তবে গত বড়দিনের ছুটিতে ডেলাওয়্যারের সমুদ্র সৈকতে বেড়ানোর সময় বাইডেন দম্পতির সঙ্গে ছিল কমান্ডার নামের একটি জার্মান শেফার্ড জাতের কুকুরছানা।

পারিবারিক বেষ্টনী

দেশ পরিচালনায় ট্রাম্পের সঙ্গে তাঁর পরিবারের সদস্যরাও সংশ্লিষ্ট ছিলেন। বাইডেনের সঙ্গে এ কাজে তাঁর পরিবারের কেউ যুক্ত না থাকলেও তাঁকে পরিবারের সদস্যদের নিয়ে দক্ষিণ লনে জগিং করতে দেখা যায়।

ডোনাল্ড ট্রাম্পের মেয়ে ইভাংকা ট্রাম্প তাঁর বাবার সিনিয়র উপদেষ্টা হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ইভাংকাকে ওভাল অফিসের বৈঠক এবং আন্তর্জাতিক শীর্ষ সম্মেলনেও অংশ নিতে দেখা গিয়েছিল। তাঁর স্বামী ব্যবসায়ী জেরার্ড কুশনার বিভিন্ন সময় মধ্যপ্রাচ্যের শান্তি আলোচনা থেকে শুরু করে করোনাসংক্রান্ত বিষয়সহ অনেক কিছুই পরিচালনা করেছিলেন। সূত্র : এএফপি



সাতদিনের সেরা