kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৩ মাঘ ১৪২৮। ২৭ জানুয়ারি ২০২২। ২৩ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

মিয়ানমারে জান্তার অভিযান

গুলি করে পুড়িয়ে ১৩ জনকে হত্যার অভিযোগ

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

৯ ডিসেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মিয়ানমারের মধ্যাঞ্চলীয় মনিওয়া শহরের কাছে জান্তাবিরোধী সশস্ত্র গোষ্ঠীর বোমা হামলার পরিপ্রেক্ষিতে ১৩ জনকে হত্যা করেছেন সেনা সদস্যরা।

স্থানীয় লোকজন জানায়, সেনাবাহিনীর বহর লক্ষ্য করে দুটি বোমা বিস্ফোরণের পরিপ্রেক্ষিতে আশপাশের গ্রামে অভিযান চালানো হয়। এর মধ্যে একটি বোমা পেতে রাখতে গিয়ে বিস্ফোরিত হলে ঘটনাস্থলেই গণতন্ত্রপন্থী পিপলস ডিফেন্স ফোর্সেসের দুই স্বেচ্ছাসেবীর মৃত্যু হয়। এরপর পেতে রাখা আরেকটি বোমা বিস্ফোরিত হলে পিপলস ডিফেন্স ফোর্সেসের দুজনকে আটকের পর গুলি করে মারেন সেনা সদস্যরা।

বিজ্ঞাপন

এরপর সংলগ্ন গ্রামগুলোতে অভিযান, সাঁড়াশি অভিযান ও ধরপাকড় চালায় সেনাবাহিনী। এ সময় ছয় পুরুষ ও পাঁচ কিশোরকে হাত পিছমোড়া করে বেঁধে নিয়ে যায় তারা। ওই ১১ জনকে গুলি করে পরে মরদেহে আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়। তাদের দগ্ধ দেহ পাওয়া যায় গত মঙ্গলবার।

এসব অভিযোগের ব্যাপারে জান্তা সরকারের তাত্ক্ষণিক মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

গত ১ ফেব্রুয়ারি সামরিক অভ্যুত্থানে গণতান্ত্রিক সরকারকে হটিয়ে অং সান সু চিকে বন্দি করে সেনাবাহিনী। বিভিন্ন অভিযোগে সু চির বিরুদ্ধে মামলা চলছে এবং এরই মধ্যে দুটি অভিযোগে তাঁকে দুই বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। এদিকে অভ্যুত্থানের পর থেকে চলমান সহিংসতায় নিরাপত্তা বাহিনীর হাতে কমপক্ষে এক হাজার ৩০৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। গ্রেপ্তার করা হয়েছে ১০ হাজার ৬০০ জনকে। গ্রেপ্তার ব্যক্তিদের মধ্যে জান্তাবিরোধী বিক্ষোভকারীদের পাশাপাশি রয়েছে আইনজীবী, মানবাধিকারকর্মী, সাংবাদিকসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ।

রাজপথে বিক্ষোভের পাশাপাশি জান্তার বিরুদ্ধে সশস্ত্র প্রতিরোধ গড়ে তুলতে গঠন করা হয় পিপলস ডিফেন্স ফোর্স। সেনাবাহিনী ও সামরিক সরকারসংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের লক্ষ্য করে শত শত বোমা হামলা ও আত্মঘাতী হামলা চালিয়েছেন গণতন্ত্রপন্থী ওই বাহিনীর সদস্যরা। সূত্র : বিবিসি।



সাতদিনের সেরা