kalerkantho

বুধবার । ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ১ ডিসেম্বর ২০২১। ২৫ রবিউস সানি ১৪৪৩

‘মানুষকে রক্ষার ইচ্ছা জাকারবার্গের নেই’

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২৫ অক্টোবর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



‘মানুষকে রক্ষার ইচ্ছা জাকারবার্গের নেই’

ক্ষতিকর কন্টেন্ট দ্বারা প্রভাবিত মানুষকে রক্ষায় ফেসবুক প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান নির্বাহী মার্ক জাকারবার্গ দ্রুত কোনো পদক্ষেপ নেননি বলে অভিযোগ করছেন প্রতিষ্ঠানটির সাবেক কর্মকর্তা ফ্রান্সেস হাউগেন।

গত মে মাসে ফেসবুক থেকে ইস্তফা দেওয়া হাউগেন কয়েক সপ্তাহ আগে ফেসবুকের বেশ কিছু গোপন গবেষণা নথি ফাঁস করেন। সেসব নথির ভিত্তিতে যুক্তরাষ্ট্রের শীর্ষ সংবাদমাধ্যমগুলো ধারাবাহিক প্রতিবেদন প্রকাশ করছে। এর ধারাবাহিকতায় মানুষকে রক্ষায় জাকারবার্গের অভিপ্রায়কে প্রশ্নবিদ্ধ করলেন হাউগেন।

নিউ ইয়র্ক টাইমসের একটি প্রতিবেদন জানায়, ২০২০ সালে মার্কিন নির্বাচনের সময় ফেসবুকের কর্মকর্তারা বারবার সতর্ক করেছিলেন, নির্বাচনসংক্রান্ত মিথ্যা তথ্যে ফেসবুক সয়লাব হয়েছে। অথচ এ বিষয়ে পর্যাপ্ত ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। নির্বাচনের সময় মার্কিন নাগরিকদের দেখা ১০ শতাংশ রাজনৈতিক কন্টেন্ট ছিল সম্পূর্ণ অসত্য। এসব তথ্য মার্কিন নির্বাচনে জালিয়াতির ‘অসত্য অভিযোগ’ প্রতিষ্ঠিত করতে সহায়তা করেছিল। এর ফলে রিপাবলিকান প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্পের সমর্থকরা সহিংস হয়ে ওঠে। ফলে গত ৬ জানুয়ারি ক্যাপিটাল হিলে সহিংসতার ঘটনা ঘটে।

ফেসবুকের দায়িত্বশীলতা প্রসঙ্গে ফ্রান্স হাউগেন বলেন, ‘অনেক কম্পনি রয়েছে, যারা বড় ধরনের সাংস্কৃতিক পরিবর্তনের জন্য কাজ করে। অ্যাপল বড় সাংস্কৃতিক পরিবর্তন করেছে, মাইক্রোসফট করেছে। ফেসসবুকও তা পারে। এ জন্য শুধু তাদের ইচ্ছা থাকতে হবে।’

ওয়ালস্ট্রিট জার্নালের কাছে নথি ফাঁসের কারণ জানিয়ে তিনি আরো বলেন, তিনি বাধ্য হয়েই কাজটি করেছেন। কারণ তিনি বুঝেছেন, শীর্ষ কর্তাব্যক্তিরা আসলে শোধরাবেন না। সূত্র : দ্য গার্ডিয়ান।



সাতদিনের সেরা