kalerkantho

সোমবার । ৯ কার্তিক ১৪২৮। ২৫ অক্টোবর ২০২১। ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

নতুন সামরিক জোট গড়তে চায় ইইউ

আফগানিস্তানে মানবিক সহায়তার জন্য বাড়তি ১১ কোটি ৮০ লাখ তহবিলের অঙ্গীকার

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৬ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



নতুন সামরিক জোট গড়তে চায় ইইউ

ছবি : ইন্টারনেট

যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বের ছায়া থেকে বেরিয়ে নিজেদের নিরাপত্তাব্যবস্থা নিজেরাই জোরদার করতে চায় ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ), এমনটা জানিয়েছেন জোটের নেতা উরসুলা ভন দার লিয়েন।

ইউরোপীয় পার্লামেন্টে ‘স্টেট অব দি ইউরোপীয় ইউনিয়ন’ শীর্ষক বার্ষিক ভাষণে গতকাল বুধবার ভন দার লিয়েন বলেন, ‘ইউরোপের পরবর্তী ধাপে উন্নীত হওয়ার সময় এসেছে।’ এ লক্ষ্যে ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাখোঁ ‘ইউরোপীয় প্রতিরক্ষা সম্মেলন’ আহ্বান করবেন বলে জানান ইইউ নেতা। আগামী বছরের শুরুতে ফ্রান্স ইইউর প্রেসিডেন্সি পেতে যাচ্ছে। জোটের ছয় মাসের প্রেসিডেন্সিকালে ম্যাখোঁ ওই প্রতিরক্ষা সম্মেলন আহ্বান করবেন।

নর্থ আটলান্টিক ট্রিটি অর্গানাইজেশন (ন্যাটো) শীর্ষক বিদ্যমান থাকতেই আরেকটি জোট গঠনের চেষ্টায় সংশয় প্রকাশ করেছেন ন্যাটোর প্রধান জেনস স্টোল্টেনবার্গ। গত সপ্তাহে তিনি বলেন, ‘একই রকম আরেকটা কাঠামো দাঁড় করানোর চেষ্টা, একই রকম নেতৃত্ব গঠনের চেষ্টা করা হলে আমাদের যৌথভাবে কাজ করার ক্ষমতা দুর্বল হয়ে যেতে পারে।’

মধ্য আগস্টে আফগানিস্তান সরকারের পতন হয় এবং ওই মাসের শেষে কাবুল থেকে বিদায় নেয় যুক্তরাষ্ট্র। আফগানিস্তানে যা ঘটেছে, তা দুঃখজনক মন্তব্য করে গতকাল ভন দার লিয়েন বলেন, ‘এত তাড়াহুড়া করে কেন অভিযানটা শেষ করতে হলো, সেটা আমাদের সতর্কভাবে ভেবে দেখতে হবে। গভীর সংকটজনক অনেক প্রশ্ন রয়েছে, যেগুলোর সমাধানে ন্যাটোর মিত্রদের সমাধান করতে হবে, কিন্তু নিরাপত্তা ও প্রতিরক্ষার কোনো ক্ষেত্রেই সহযোগিতা কমানোকে সমাধান হিসেবে নেওয়া যাবে না।’

নিজেদের নিরাপত্তার স্বার্থে পারস্পরিক সহযোগিতার ওপর জোর দেওয়ার পাশাপাশি ভন দার লিয়েন আফগানিস্তানের জন্য সহায়তার প্রসঙ্গও তোলেন। আফগানিস্তানে মানবিক সহায়তার জন্য বাড়তি ১১ কোটি ৮০ লাখ তহবিলের অঙ্গীকার করেন।

এদিকে আফগানিস্তানে নতুন সরকারের পরিস্থিতি স্বাভাবিক করার চেষ্টার মধ্যে গতকাল থেকে দেশটির সঙ্গে বিমান যোগাযোগ শুরু করেছে ইরান। গত মাসে আশরাফ গনির নেতৃত্বাধীন সরকারের পতনের পর থেকে কাবুলের সঙ্গে বহির্বিশ্বের যোগাযোগ ব্যাহত হতে থাকে। মার্কিন বাহিনী কাবুল ছাড়ার পর এক সপ্তাহের বেশি সময় আফগানিস্তানের সঙ্গে বাকি বিশ্বের বিমান যোগাযোগ কার্যত বন্ধ ছিল।

উজবেকিস্তান থেকে আফগানদের সরিয়ে নিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র : গত মঙ্গলবার যুক্তরাষ্ট্র জানিয়েছে, গত রবিবার ও সোমবার উজবেকিস্তান থেকে ৪৯৪ জন সামরিক ও বেসামরিক আফগানকে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। তবে তাদের কোথায় নেওয়া হয়েছে, তা জানায়নি মার্কিন পক্ষ। এদিকে উজবেকিস্তান বলছে, তাদের ভূখণ্ডে কোনো আফগান শরণার্থী ছিল না। সূত্র : এএফপি।



সাতদিনের সেরা