kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৮ আশ্বিন ১৪২৮। ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১৫ সফর ১৪৪৩

নাইজেরিয়ার নিরাপত্তা বাহিনী ১১৫ জনকে হত্যা করেছে

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

৬ আগস্ট, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নাইজেরিয়ার নিরাপত্তা বাহিনী ১১৫ জনকে হত্যা করেছে

অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের হিসাবে, নাইজেরিয়ায় বিদ্রোহী গোষ্ঠীগুলোর ওপর সরকারি বাহিনী দমন-পীড়ন চালাচ্ছে। দমন-পীড়ন চলাকালে এ বছর ১১৫ জনকে হত্যা করা হয়েছে বলে সংস্থাটির অভিযোগ। গতকাল বৃহস্পতিবার অ্যামনেস্টি এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানায়।

নাইজেরিয়ার দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলে সরকারি বাহিনী ও বিদ্রোহীদের মধ্যে লড়াই চলছে। দেশটির পুলিশের ভাষ্য, লড়াইয়ে এ বছর সেখানে কমপক্ষে ১২৭ পুলিশ ও নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্য নিহত হয়েছেন। স্থানীয় গণমাধ্যমগুলো জানায়, সেখানে ২০টি পুলিশ স্টেশন এবং নির্বাচন কমিশনের দপ্তরে ভাঙচুর চালানো হয়। এ সংঘর্ষের জন্য ইনডিজেনাস পিপল অব বায়াফ্রা (আইপিওবি) নামক গোষ্ঠীর সশস্ত্র বাহিনী ইস্টার্ন সিকিউরিটি নেটওয়ার্ককে (ইএসএন) দায়ী করা হয়েছে। তবে নিষিদ্ধঘোষিত আইপিওবি এ অভিযোগ অস্বীকার করেছে। ইগবো নামের ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর স্বাধীনতার দাবিতে আইপিওবি আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছে।

অ্যামনেস্টি বলেছে, আন্দোলন দমন করতে গিয়ে দেশটির নিরাপত্তা বাহিনী সশস্ত্র বিদ্রোহীদের পাশাপাশি অনেক বেসামরিক মানুষকেও হত্যা করেছে। অ্যামনেস্টির নাইজেরিয়া ডিরেক্টর ওসাই ওজিঘো বলেন, ‘ইমো, আনামব্রা ও আবিয়া প্রদেশ থেকে সংগ্রহ করা তথ্য নাইজেরিয়ার নিরাপত্তা বাহিনীর নির্বিচারে অত্যাচার চালানোর প্রতিচ্ছবিই তুলে ধরে। তথ্য অনুসারে, সেখানে কমপক্ষে ১১৫ জনকে হত্যার কথা উঠে এসেছে।  সূত্র : এএফপি।



সাতদিনের সেরা