kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৮ আশ্বিন ১৪২৮। ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১৫ সফর ১৪৪৩

আসাম-মিজোরাম উত্তেজনা বনাঞ্চল নিয়ে বিরোধে

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

৩১ জুলাই, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ভারতের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলীয় আসাম রাজ্যের বাসিন্দাদের পার্শ্ববর্তী মিজোরাম ভ্রমণ থেকে বিরত থাকতে বলা হয়েছে। দুই রাজ্যের সীমান্তে সংঘর্ষের পর এই সতর্কতা জারি করা হয়। দুই রাজ্যের পুলিশ বাহিনীর মধ্যে গোলাগুলির মধ্যে দিয়ে এই বিরোধের সূত্রপাত ঘটে। তাতে আট পুলিশ সদস্য নিহত হন। আহত হন বেশ কয়েকজন কর্মকর্তা।

এই সংঘর্ষের জন্য উভয় রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীসহ শীর্ষ কর্মকর্তারা একে অন্যকে দোষারোপ করেছেন। ওই ঘটনার পর আর কোনো সংঘর্ষের ঘটনা অবশ্য ঘটেনি। তবে উভয় রাজ্যেই তীব্র উত্তেজনা বিরাজ করছে।

মিজোরাম সরকারের অভিযোগ, আসাম সরকার সীমান্তে পুলিশ সদস্যদের নানাভাবে উসকানি দিচ্ছে। আসামের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে তারা কেন্দ্রীয় সরকারের কাছে দাবি জানিয়েছে।

অন্যদিকে আসাম বলছে, তারা এরই মধ্যে সীমান্ত এলাকা থেকে নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যদের সরিয়ে নিয়েছে। কিন্তু মিজোরাম এখনো সরায়নি। ভ্রমণ সতর্কতা সংক্রান্ত এক ভিডিওতে আসাম আরো অভিযোগ করেছে যে সীমান্ত এলাকায় মিজোরামের অনেক বেসামরিক লোকজন আগ্নেয়াস্ত্র বহন করছে। এ কারণে মিজোরামে বসবাসরত আসামের নাগরিকদের সর্বোচ্চ সতর্কতা অবলম্বন করতে বলা হয়েছে।

সীমান্ত-বিরোধ নিয়ে দুই রাজ্যের মধ্যে কয়েক মাস ধরে উত্তেজনা বিরাজ করছে। বিরোধ মীমাংসার লক্ষ্যে ১৯৯৪ সাল থেকে দুই রাজ্যের মধ্যে একটা চুক্তির চেষ্টা করছে কেন্দ্রীয় সরকার।

ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চলে মিজোরাম, আসামসহ সাতটি রাজ্যের অবস্থান। ওই অঞ্চলের সঙ্গে বাংলাদেশ ও মিয়ানমারের সীমান্ত রয়েছে। ঔপনিবেশিক শাসনামলে ‘লুসাই হিলস’ নামে পরিচিত ছিল মিজোরাম। ওই সময় মিজোরাম ছিল আসামের অংশ। ভারত স্বাধীন হওয়ার প্রায় তিন দশক পর ১৯৭২ সালে স্বায়ত্তশাসিত অঞ্চলের স্বীকৃতি পায় মিজোরাম। এরপর ১৯৮৭ সালে এটিকে আলাদা রাজ্য ঘোষণা করা হয়। কাছার, হাইলাকান্দি ও করিমগঞ্জ—আসামের এই তিন জেলার সঙ্গে মিজোরামের তিন জেলার ১৬৪ কিলোমিটারের দীর্ঘ সীমান্ত রয়েছে। এই সীমান্ত এলাকায় অনেক বনাঞ্চলও রয়েছে।

উভয় রাজ্যই একে অন্যের বিরুদ্ধে সীমান্ত লঙ্ঘনের অভিযোগ করে আসছে। এ নিয়ে প্রথম বিরোধ শুরু হয় ১৯৯৪ সালে। ওই সময় উভয় পক্ষকে নিয়ে কয়েক দফায় আলোচনায় বসে কেন্দ্রীয় সরকার। কিন্তু কোনো পক্ষই শান্তিচুক্তির ব্যাপারে রাজি হয়নি।

এর আগে দুই রাজ্যের মধ্যে সংঘর্ষ হয় ২০২০ সালের অক্টোবরে। ওই সময় দুই রাজ্যের বাসিন্দাদের মধ্যে দুই দফা সংঘর্ষ হয়। সূত্র : বিবিসি।



সাতদিনের সেরা