kalerkantho

মঙ্গলবার । ৬ আশ্বিন ১৪২৮। ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১৩ সফর ১৪৪৩

গনিকে সরানোর দাবি

দোভাষীর শিরশ্ছেদ করল তালেবান

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২৪ জুলাই, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



গনিকে সরানোর দাবি

আফগানিস্তানে দখল আর হত্যাকাণ্ড চালাতে থাকা তালেবান এবার প্রেসিডেন্ট আশরাফ গনিকে সরিয়ে নতুন সরকার গড়ার দাবি তুলেছে। তালেবান জানিয়েছে, সবার কাছে গ্রহণযোগ্য সমঝোতার সরকার গঠন করলে তারা অস্ত্রবিরতি করতে রাজি।

যুক্তরাষ্ট্র-তালেবান চুক্তি অনুসারে এ বছরের ১ মে আফগানিস্তান থেকে বিদেশি সেনা সরিয়ে নেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু হয়।

বিদেশি সেনা প্রত্যাহার শুরু হতে না হতেই আফগানিস্তানে দখল তৎপরতা শুরু করে দেয় তালেবান। দখলে থাকা অঞ্চলগুলোয় শরিয়াহ শাসন চালু করেছে তালেবান—এমন খবরও মিলছে। চলছে হত্যাকাণ্ডও। সবচেয়ে ঝুঁকিতে আছেন মার্কিন সেনাদের জন্য দোভাষীর কাজ করা আফগানরা। গত ১২ মে তেমনই এক দোভাষীর শিরশ্ছেদ করে তালেবানরা। ৩২ বছর বয়সী সোহেইল পারদিস ঈদ উপলক্ষে বোনকে আনতে কাবুল থেকে খোস্ত প্রদেশে যাচ্ছিলেন। মাঝপথে এক তালেবান চেকপোস্টে তাঁকে প্রাণ হারাতে হয়।

এ অবস্থায় গত সপ্তাহে কাতারের দোহায় আফগান সরকারের সঙ্গে ফের শান্তি আলোচনা শুরু করেছে তালেবান। এর আগেও কয়েক দফা দোহায় আলোচনায় বসেছে দুই পক্ষ।

এবারের আলোচনা শুরুর পর অ্যাসোসিয়েটেড প্রেসকে (এপি) দেওয়া সাক্ষাৎকারে তালেবানের মুখপাত্র সুহেইল শাহীন বেশ কিছু স্পষ্ট কথা বলেছেন। তিনি জানান, ‘কারচুপির নির্বাচনের মাধ্যমে’ ক্ষমতায় থাকা প্রেসিডেন্ট গনিকে পদত্যাগ করতে হবে। আফগান লড়াইয়ে সংশ্লিষ্ট সব পক্ষের কাছে গ্রহণযোগ্য হয়, এমন একটি সমঝোতার সরকার গঠন করতে হবে। সমঝোতার সরকার গঠনের পর তালেবান অস্ত্র ত্যাগ করবে বলে অঙ্গীকার করেন তিনি।

দোহায় শান্তি আলোচনায় অংশ নেওয়া তালেবান প্রতিনিধিদলের সদস্য সুহেইল আরো বলেন, ‘তালেবান একদলীয় শাসনব্যবস্থায় বিশ্বাস করে না। অতীতে এ ধরনের সরকার সফল হতে পারেনি বলে আমরা ওই ব্যবস্থার পুনরাবৃত্তি চাই না।’ নতুন সমঝোতার সরকার গঠনের পর পেশাদার নারীরা নিজ নিজ কাজে যাওয়ার অনুমতি পাবেন, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে যেতে পারবেন, রাজনীতিতে অংশ নিতে পারবেন। বাইরে যাওয়ার ক্ষেত্রে তাঁদের সঙ্গে পুরুষ সঙ্গী থাকার বাধ্যবাধকতাও রাখা হবে না। তবে সে ক্ষেত্রে নারীদের অবশ্যই হিজাব পরতে হবে। সূত্র : টাইমস অব ইন্ডিয়া, সিএনএন।



সাতদিনের সেরা