kalerkantho

সোমবার । ৬ বৈশাখ ১৪২৮। ১৯ এপ্রিল ২০২১। ৬ রমজান ১৪৪২

ধর্ষণ এড়াতে পর্দার পরামর্শ

ইমরানের মন্তব্য ‘নিরেট অজ্ঞতা’

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

৮ এপ্রিল, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ইমরানের মন্তব্য ‘নিরেট অজ্ঞতা’

ধর্ষণ রোধে নারীদের পোশাক-পরিচ্ছদের দিকে নজর দিতে বলে তোপের মুখে পড়েছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। দেশটির মানবাধিকারকর্মীরা প্রধানমন্ত্রীর এমন মন্তব্যের তীব্র প্রতিক্রিয়া জানিয়ে একে ‘নিরেট অজ্ঞতা’ অ্যাখ্যা দিয়েছেন।

ইমরানের মন্তব্য ‘আসলে অসত্য, সংবেদনশীল ও ভয়াবহ’ উল্লেখ করে গতকাল বুধবার অনলাইনে বেশ কয়েকটি সংগঠন এক বিবৃতি প্রকাশ করে। কয়েক শ মানবাধিকারকর্মী ওই বিবৃতিতে সমর্থন জানিয়ে স্বাক্ষর করেন।

বিবৃতিতে বলা হয়, ‘ধর্ষণের জন্য একমাত্র ধর্ষক এবং তাঁকে ধর্ষক হিসেবে গড়ে তোলা সমাজব্যবস্থাই দায়ী। এ বক্তব্যের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান সক্রিয়ভাবে ধর্ষণ সংস্কৃতির পক্ষালম্বন করেছেন।’

পাকিস্তানের মানবাধিকার কমিশন গত মঙ্গলবার জানায়, ইমরানের এমন মন্তব্যে তারা ‘হতবাক’। কমিশন জানায়, ‘কোথায়, কেন ও কিভাবে ধর্ষণের ঘটনা ঘটল সে বিষয়টাকে উপেক্ষা করে ইমরান শুধু বিশ্বসঘাতকতা ও নিরেট অজ্ঞতার পরিচয়ই দেননি, বরং ধর্ষণের পর বেঁচে যাওয়া ভুক্তভোগীদের ওপরও তিনি এর দায় চাপিয়ে দিয়েছেন। আর সরকারের অবশ্যই জেনে রাখা উচিত, এসব ভুক্তভোগীর মধ্যে যেমন শিশুরা রয়েছে, তেমনি দেশটিতে সম্মান বাঁচানোর নামে চলমান অনার কিলিংয়ের শিকার নারীরাও রয়েছেন।

স্থানীয় এক টেলিভিশনে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে ইমরান মন্তব্য করেন, ধর্ষণ বেড়ে যাওয়া যেকোনো সমাজে অশ্লীলতা বেড়ে যাওয়াকে ইঙ্গিত করে। তিনি বলেন, সমাজে নারীদের ধর্ষণের ঘটনা খুব দ্রুত হারে বাড়ছে। নারীদের ‘পর্দা’ মেনে চলার উপদেশ দিয়ে তিনি বলেন, ইসলাম ধর্মে পর্দার সম্পূর্ণ ধারণা এসেছে প্রলোভন এড়ানোর জন্যই। প্রলোভন এড়ানোর ইচ্ছাশক্তি সবার নেই।’ সূত্র : এএফপি।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা