kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৭ ফাল্গুন ১৪২৭। ২ মার্চ ২০২১। ১৭ রজব ১৪৪২

অভিবাসীদের জন্য দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা বাইডেনের

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২০ জানুয়ারি, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



অভিবাসীদের জন্য দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা বাইডেনের

ডোনাল্ড ট্রাম্পের সব বিশৃঙ্খলা মুছে প্রেসিডেন্সির প্রথম দিন থেকেই কোমর বেঁধে মাঠে নামছেন জো বাইডেন। এর অংশ হিসেবে এদিনই নতুন অভিবাসন আইনের প্রস্তাব উত্থাপনের পরিকল্পনা করেছেন। তবে করোনাভাইরাস সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণের জন্য আরোপিত ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা বহাল রাখার কথা জানিয়েছে আসন্ন মার্কিন প্রশাসন।

যুক্তরাষ্ট্রের স্থানীয় সময় আজ বুধবার দুপুরে প্রেসিডেন্ট হিসেবে শপথ নিচ্ছেন বাইডেন। শপথগ্রহণের আনুষ্ঠানিকতা শেষ করেই তিনি প্রশাসনিক কাজে হাত লাগাবেন। এদিন নতুন অভিবাসন আইন প্রস্তাব করার পরিকল্পনা আছে তাঁর। এই পরিকল্পনা বাস্তবায়িত হলে যুক্তরাষ্ট্রে বসবাসরত এক কোটি ১০ লাখ অনিবন্ধিত অভিবাসীর বৈধ হওয়ার পথ খুলে যাবে আট বছরের মধ্যে।

নতুন মার্কিন প্রশাসনের অভিবাসননীতির কেন্দ্রে থাকবে আট বছর মেয়াদি এক পরিকল্পনা। এর আওতায় অনিবন্ধিত অভিবাসীদের যোগ্যতার ভিত্তিতে পাঁচ বছরের জন্য যুক্তরাষ্ট্রে বসবাসের অস্থায়ী অনুমতি দেওয়া হবে। এই পাঁচ বছরের মধ্যে তাদের সব তথ্য পরীক্ষা করে দেখা হবে। পাশাপাশি তারা নিয়মিত কর দেওয়াসহ অন্যান্য শর্ত পূর্ণ করলে পাঁচ বছর পর তাদের গ্রিন কার্ড দেওয়া হবে। এর তিন বছর পর তারা যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিকত্বের জন্য আবেদন করতে পারবে। বাইডেনের পরিকল্পিত এই আইন বাস্তবায়নের জন্য মার্কিন কংগ্রেসের অনুমোদন প্রয়োজন হবে।

শুধু অভিবাসননীতি নয়, ট্রাম্পের আমলের সব গোলমেলে নীতি ফেলে দিয়ে যুক্তরাষ্ট্রকে আগের অবস্থায় ফিরিয়ে নেওয়ার প্রতিশ্রুতি বাইডেন দিয়েছেন আরো এক বছর আগে। এ ছাড়া করোনাকালে ট্রাম্প যেসব বিশৃঙ্খলার জন্ম দিয়েছেন, সেগুলোও নির্মূল করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন তিনি।

করোনা সংক্রমণ রোধে ট্রাম্প যে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা জারি করেছিলেন, সেটা অবশ্য আপাতত উঠছে না; যদিও ওই নিষেধাজ্ঞা তোলার নির্দেশনা ট্রাম্প এরই মধ্যে দিয়েছেন। গত সোমবার হোয়াইট হাউসের জারি করা একটি ডিক্রিতে বলা হয়, যুক্তরাজ্য, ইউরোপীয় ইউনিয়নের বেশির ভাগ দেশ ও ব্রাজিলের ওপর যুক্তরাষ্ট্রের আরোপিত ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা আগামী মঙ্গলবার থেকে তুলে নেওয়ার আদেশ দিয়েছেন ট্রাম্প। এই আদেশ জারির কিছুক্ষণের মধ্যে বাইডেনের মুখপাত্র জেন সাকি টুইটারে বলেছেন, ‘আমাদের চিকিৎসকদলের পরামর্শ অনুযায়ী, ১/২৬-এ ওই বিধি-নিষেধ প্রত্যাহার করতে চায় না প্রশাসন।’ সূত্র : এএফপি, বিবিসি।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা