kalerkantho

রবিবার । ১২ আশ্বিন ১৪২৭ । ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০। ৯ সফর ১৪৪২

আগের অবস্থায় ফেরার ‘আশা নেই’ বৈরুতের

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

৯ আগস্ট, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



লেবাননে বিস্ফোরকের গুদামে ভয়াবহ বিস্ফোরণে বিধ্বস্ত রাজধানী বৈরুতে তছনছ হয়ে যাওয়া জীবন আবার আগের অবস্থায় ফেরার আশা দেখছে না অসহায় হয়ে পড়া বাসিন্দারা। গত মঙ্গলবার বৈরুতের বন্দর এলাকায় বিস্ফোরণটি ঘটে। এতে বৈরুতের অর্ধেকই ধূলিসাৎ হয়েছে। মারা গেছে অন্তত ১৪৫ জন। লাখো মানুষ ঘরহারা হয়েছে, নষ্ট হয়েছে খাবার। যত দূর চোখ যায় শুধুই ছড়িয়ে-ছিটিয়ে আছে ধ্বংসস্তূপ। সেই ধ্বংসস্তূপ থেকে আবার নিজেদের বাড়িঘর নতুন করে তোলার চেষ্টা করছে বৈরুতবাসী। কিন্তু আগের অবস্থা আর ফিরে পাওয়ার আশা নেই অনেকেরই।

বৈরুতের যে বন্দরে বিস্ফোরণ ঘটেছে তার কয়েক শ মিটার দূরেই একটি এলাকায় নিজ বাড়িতে বসে কথা বলছিলেন টনি আবদু নামের এক বসিন্দা। তাঁর কণ্ঠে স্পষ্ট হয়ে ওঠে হতাশার সুর, ‘বাড়ি আর আগের মতো করে তোলার উপায় নেই।’ কোথায় গেল রাষ্ট্র? প্রশ্ন তাঁর।

হতাশার সুরে কথা বলতে শোনা যায় এক ট্যাক্সিচালককেও। বাড়িঘরের ধ্বংসস্তূপের নিচে চাপা পড়ে যাঁর ট্যাক্সিক্যাব চুরমার হয়েছে, ‘আয় করার তো আর উপায় রইল না। আমাদের কি সরকার বলতে আসলেই কিছু আছে?’ বিস্ফোরণে সব হারিয়ে নিঃস্ব আরেক বাসিন্দা বলেন, ‘স্ত্রীর বাড়ি ছাড়া আর কোথাও এখন যাওয়ার জায়গা নেই। অর্থনীতি শূন্যে নেমেছে। এখানে আমরা কিভাবে বাঁচব?’

বিস্ফোরণে গুঁড়িয়ে যাওয়া শহরের রাস্তায় হাঁটতে বেরিয়ে বৈরুতের আরেক বাসিন্দাও প্রকাশ করেছেন চরম হাতাশা। বিস্ফোরণস্থলের কাছেই একটি হাসপাতালের উপপরিচালক তিনি। বিস্ফোরণে হাসপাতালটি সম্পূর্ণ ধ্বংস হয়েছে।সূত্র : বিবিসি, সিএনএন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা