kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৩ আষাঢ় ১৪২৭। ৭ জুলাই ২০২০। ১৫ জিলকদ  ১৪৪১

সংক্ষিপ্ত

চীনে স্কুলে ছুরি হামলা, জখম শিশুসহ ৪০

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

৫ জুন, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সাতসকালে সবে স্কুল খুলেছে। আচমকাই একের পর এক খুদে পড়ুয়াকে ছুরি নিয়ে আক্রমণ করে স্কুলেরই নিরাপত্তারক্ষী। ছাড় পাননি স্কুলের শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মীরাও। সব মিলিয়ে ৪০ জনকে ছুরিবিদ্ধ করেছেন ওই নিরাপত্তারক্ষী। চীনের একটি প্রাথমিক স্কুলে এই মর্মান্তিক ঘটনায় হতবাক স্কুল কর্তৃপক্ষ ও অভিভাবকরা। জানা গিয়েছে, আহতদের মধ্যে তিনজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। আততায়ী নিরাপত্তারক্ষীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। কিন্তু কী কারণে হামলা, তা নিয়ে কার্যত অন্ধকারে পুলিশ প্রশাসন ও স্কুল কর্তৃপক্ষ। গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে নিয়ম মতোই খুলেছিল গুয়াংজি ঝুয়াং স্বায়ত্তশাসিত এলাকার উঝোউ শহরের ওয়াংফু টাউন সেন্ট্রাল প্রাইমারি স্কুল। কিন্তু সকাল সাড়ে ৮টা নাগাদ আচমকাই ছুরি নিয়ে স্কুলের মধ্যে ঢুকে পড়েন স্কুলের নিরাপত্তারক্ষী লি জিয়াওমিন। কেউ কিছু বুঝে ওঠার আগেই একের পর এক শিশুকে ছুরিবিদ্ধ করতে থাকেন। বাধা দিতে গেলে কয়েকজন শিক্ষক-শিক্ষিকা ও শিক্ষাকর্মীকেও ছুরি দিয়ে আঘাত করেন লি। শেষ পর্যন্ত কোনোক্রমে তাঁকে ধরে ফেলেন তাঁরাই। পরে পুলিশ গিয়ে তাঁকে গ্রেপ্তার করে। অন্যদিকে পড়ুয়াসহ আহতদের স্থানীয় একটি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে, আহতদের মধ্যে তিনজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। পুলিশি তদন্তে জানা গিয়েছে, বছর পঞ্চাশের ওই নিরাপত্তারক্ষী দক্ষিণ চীনের হংকংয়ের বাসিন্দা। দীর্ঘদিন ধরেই তিনি স্কুলে নিরাপত্তারক্ষীর কাজ করছেন। কিন্তু আচমকা এমন হামলা  কেন চালালেন তিনি, তা বুঝতে পারছেন না কেউ। পুলিশ তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদ করে কারণ জানার চেষ্টা চালাচ্ছে। সূত্র : এএফপি।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা