kalerkantho

শনিবার । ৯ ফাল্গুন ১৪২৬ । ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২০। ২৭ জমাদিউস সানি ১৪৪১

অভিশংসনের শুনানি

যুক্তিতর্ক উপস্থাপন শুরু ট্রাম্পের পক্ষে

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২৬ জানুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



যুক্তিতর্ক উপস্থাপন শুরু ট্রাম্পের পক্ষে

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের অভিশংসন নিয়ে মার্কিন সিনেটে (কংগ্রেসের উচ্চকক্ষ) যে বিচার কার্যক্রম চলছে, তার দ্বিতীয় দফার শুনানি শুরু হয়েছে। বাংলাদেশ সময় গতকাল শনিবার রাত ৯টায় ট্রাম্পের পক্ষে তাঁর আইনজীবীরা শুনানি শুরু করেন। এর আগে টানা তিন দিন ট্রাম্পের বিরুদ্ধে শুনানি করেন ডেমোক্র্যাট পক্ষের আইনজীবীরা।

ট্রাম্পকে ক্ষমতা থেকে অপসারণের লক্ষ্যে মোট ২৪ ঘণ্টা নানা যুক্তিতর্ক ও তথ্য-প্রমাণ তুলে ধরেন ডেমোক্র্যাট আইনজীবীরা। ১০০ সিনেট সদস্যের সামনে তাঁরা এটাই প্রমাণের চেষ্টা করেন, ডেমোক্র্যাট দলের প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী জো বাইডেনের বিরুদ্ধে দুর্নীতির তদন্ত করতে ডোনাল্ড ট্রাম্প ক্ষমতার অপব্যবহার করে ইউক্রেনকে চাপ দিয়েছিলেন। আর এটি তিনি করেছিলেন রাজনৈতিক সুবিধা পাওয়ার উদ্দেশ্যেই। ডেমোক্র্যাটরা দাবি করেন, এ বিষয়ে পর্যাপ্ত তথ্য-প্রমাণ ও সাক্ষী রয়েছে। ডেমোক্র্যাট নেতা অ্যাডাম স্কিফ বলেন, ট্রাম্পকে ক্ষমতায় বহাল রাখা হলে তিনি (ট্রাম্প) ‘খুব দ্রুতই হুমকি’ হয়ে দাঁড়াবেন।

এ ধরনের শুনানিতে সিনেটে কেউ সাক্ষ্য দিতে পারবেন কি না, সেই ক্ষমতা রিপাবলিক আইনপ্রণেতাদের হাতে। এ অবস্থায় রিপাবলিকানদের উদ্দেশে অ্যাডাম স্কিফ বলেন, ‘আমি করজোড়ে আপনাদের অনুরোধ করছি, যুক্তরাষ্ট্রকে একটা ন্যায়বিচার উপহার দিন।’

ট্রাম্প এরই মধ্যে ইঙ্গিত দিয়েছেন, দলের মধ্যে এখনো তাঁর ব্যাপক জনসমর্থন রয়েছে। সিনেটের অনেক রিপাবলিকান সদস্যও ট্রাম্পের পক্ষে সমর্থন জানিয়েছেন। সিনেটর রিক স্কট শুক্রবার গণমাধ্যমকর্মীদের বলেন, ‘ডেমোক্র্যাটরা এখন পর্যন্ত যেসব অভিযোগ তুলেছে, তা অভিশংসনের জন্য পর্যাপ্ত বলে আমার কাছে মনে হয় না। তার পরও আমি দলের সিদ্ধান্তের দিকেই তাকিয়ে থাকব।’

গতকালের পর আগামীকাল সোম ও মঙ্গলবারও ট্রাম্পের পক্ষে শুনানিতে অংশ নেবেন তাঁর আইনজীবীরা। এরপর সিনেট সিদ্ধান্ত নেবে, এ ব্যাপারে কারো সাক্ষ্য নেওয়া হবে কি না। যদিও শুরু থেকেই ডেমোক্র্যাটরা এই দাবি জানিয়ে আসছে।

ফক্স নিউজকে রিপাবলিকান সিনেটর মাইক ব্রাউন বলেন, ‘ট্রাম্পের পক্ষে যে যুক্তিতর্ক তুলে ধরা হবে, তা হবে খুবই সংক্ষিপ্ত ও সহজবোধ্য।’

ডেমোক্র্যাটরা বলছেন, হোয়াইট হাউসের কর্মকর্তাদের সাক্ষ্য নেওয়ার অনুমতি দিতে ট্রাম্প অস্বীকৃতি জানিয়েছেন। এ ছাড়া তদন্তের কাগজপত্র সরবরাহের অনুমতিও তিনি দেননি। এর মধ্য দিয়ে তিনি কংগ্রেসের কার্যক্রমে বাধা দিয়ে আরেকটি অপরাধ করেছেন।

ডেমোক্র্যাটদের ‘ইমপিচমেন্ট ম্যানেজার’ ভ্যাল ডেমিংস সিনেটে বলেন, ‘প্রয়োজনীয় নথির জন্য ৭১ বার অনুরোধ করা হলেও ট্রাম্প তা ফিরিয়ে দিয়েছেন। অভিশংসনের তদন্তে তাঁর এই প্রতিবন্ধকতা নজিরবিহীন।’ সূত্র : এএফপি।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা