kalerkantho

শনিবার । ০৭ ডিসেম্বর ২০১৯। ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ৯ রবিউস সানি ১৪৪১     

ট্রাম্পের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক সাক্ষ্য দিলেন কূটনীতিক

‘এটাই হতে যাচ্ছে অপকর্ম প্রমাণের কেন্দ্রবিন্দু’

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২২ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



ট্রাম্পের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক সাক্ষ্য দিলেন কূটনীতিক

এবার প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিশংসন তদন্তে বিস্ফোরক সাক্ষ্য দিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের এক সিনিয়র কূটনীতিক। গর্ডন সোন্ডল্যান্ড নামের এক কূটনীতিক ‘ইউক্রেন ষড়যন্ত্রে’ ট্রাম্পকে সরাসরি জড়িয়ে বলেছেন, ট্রাম্প নিজের রাজনৈতিক প্রতিদ্বন্দ্বীর বিরুদ্ধে তদন্ত করার জন্য ইউক্রেন সরকারকে চাপ দিয়েছিলেন। বুধবার কংগ্রেসীয় তদন্ত কমিটির কাছে তিনি এ সাক্ষ্য দেন।

তদন্ত কমিটির সদস্য ডেমোক্র্যাট নেতারা এই সাক্ষ্যকে এ পর্যন্ত সবচেয়ে বড় প্রমাণ বলে মনে করেছেন। মার্কিন গণমাধ্যমগুলো এ সাক্ষ্যের দিনটিকে ট্রাম্পের জন্য ‘সর্বনাশা দিন’ বলে মন্তব্য করেছে। তবে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প তাঁর স্বভাবসুলভ কায়দায় এই সাক্ষ্যকে উড়িয়ে তদন্ত এখানেই শেষ করার আহ্বান জানিয়েছেন।

ট্রাম্পের বিরুদ্ধে ডেমোক্র্যাট নেতাদের অভিযোগ, প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প আগামী প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে নিজের সম্ভাব্য প্রতিদ্বন্দ্বী ডেমোক্র্যাট নেতা জো বাইডেন ও তাঁর ছেলের বিরুদ্ধে তদন্তে বাধ্য করতে ইউক্রেনকে মার্কিন সামরিক সহায়তা বন্ধের হুমকি দিয়েছিলেন। যুক্তরাষ্ট্রে নিজের নির্বাচনী সুবিধার জন্য বিদেশি সহায়তা চাওয়া বেআইনি—এই কারণ দেখিয়ে ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিশংসন তদন্ত চালিয়ে যাচ্ছে মার্কিন কংগ্রেসের হাউস ইন্টেলিজেন্স কমিটি, যার নেতৃত্ব দিচ্ছেন ডেমোক্র্যাট নেতারা। এই তদন্তের রুদ্ধদ্বার শুনানির পর এখন চলছে প্রকাশ্যে সাক্ষ্যগ্রহণ।

গত বুধবার টেলিভিশনে সরাসরি সম্প্রচারিত শুনানিতে ইউরোপীয় ইউনিয়নে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত গর্ডন সোন্ডল্যান্ড বলেন, তিনি জো বাইডেনের বিরুদ্ধে তদন্ত করার জন্য ইউক্রেনকে চাপ দিতে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের নির্দেশ পালন করেছেন মাত্র। আর এই নির্দেশনা এসেছিল ট্রাম্পের ব্যক্তিগত আইনজীবী রুডি গিউলিয়ানির মাধ্যমে। ইউক্রেন প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কিকে চাপ দিতে ট্রাম্পের নির্দেশনা বাস্তবায়নের নেতৃত্ব দিয়েছেন গিউলিয়ানি।

সোন্ডল্যান্ডের আরো বোমা ফাটানো মন্তব্য করে হাউস ইন্টেলিজেন্স কমিটিকে বলেন, ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্স, পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেওসহ হোয়াইট হাউস ও পররাষ্ট্র দপ্তরের শীর্ষ কর্মকর্তারাও এ বিষয়ে অবগত ছিলেন। আর গিউলিয়ানি চাইতেন জো বাইডেনের বিরুদ্ধে তদন্তের ব্যাপারে ইউক্রেন একটি বিবৃতি দিক, যে তিনি ও তাঁর ছেলে ইউক্রেনের জ্বালানি কম্পানি বারিসমার সঙ্গে দুর্নীতিতে জড়িত ছিলেন।

তবে ট্রাম্প বলেছেন, এই অভিযোগ সঠিক নয়। তিনি সোন্ডল্যান্ডকে ভালো করে চেনেনই না। টুইটারে দেওয়া এক বিবৃতিতে ট্রাম্প তদন্ত এখানেই বন্ধ করার আহ্বান জানিয়ে বলেছেন, ‘এই ডাইনি শিকার অবশ্যই বন্ধ করতে হবে। আমাদের জন্য এটা খুবই দুঃখজনক।’ অবশ্য সোন্ডল্যান্ড জানিয়েছেন, তিনি অন্তত ২০ বার প্রেসিডেন্টের সঙ্গে কথা বলেছেন।

বুধবার এই সাক্ষ্য আসার পর ট্রাম্পের অবস্থান আরো দুর্বল হয়ে গেল মনে করছেন বিরোধী দলের নেতারা। ডেমোক্র্যাট নেতারা বলেছেন, হাউস ইন্টেলিজেন্স কমিটির সামনে সোন্ডল্যান্ডের সাত ঘণ্টাব্যাপী সাক্ষ্য ট্রাম্পের অভিশংসন মামলাকে আরো শক্তিশালী করেছে। কমিটির চেয়ারম্যান ও ডেমোক্র্যাট নেতা অ্যাডাম শিফ বলেন, এ পর্যন্ত আজকের সাক্ষ্য সবচেয়ে তাৎপর্যপূর্ণ। এটাই হতে যাচ্ছে ঘুষ ও অন্য সম্ভাব্য বড় অপরাধ কিং অপকর্মগুলোর সাক্ষ্যের মূল বিষয়।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা