kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৪ নভেম্বর ২০১৯। ২৯ কার্তিক ১৪২৬। ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

ক্যারি লামকে সরিয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা!

অবশেষে বিতর্কিত বিলটি স্থায়ীভাবে প্রত্যাহার

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২৪ অক্টোবর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



অবশেষে হংকংয়ের বিতর্কিত বহিঃসমর্পণ বিলটি আনুষ্ঠানিকভাবে প্রত্যাহার করে নেওয়া হয়েছে। গতকাল বুধবার দেশটির আইন প্রণেতারা বিলটি পুরোপুরিভাবে প্রত্যাহারের সিদ্ধান্ত নেন। এই সিদ্ধান্ত সত্ত্বেও গত জুনে শুরু হওয়া সরকারবিরোধী আন্দোলনে ভাটা পড়ার সম্ভাবনা কম বলেই মনে করা হচ্ছে। কারণ আন্দোলনকারীদের প্রধান পাঁচ দাবির মধ্যে এটি একটি। এদিকে বেইজিং হংকংয়ের প্রধান নির্বাহী ক্যারি লামকে সরিয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা করছে বলে দ্য ফিন্যানশিয়াল টাইমস এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে।

অপরাধীদের চীনে হস্তান্তরের সুযোগ রেখে আনা বিলকে কেন্দ্র করে জুন থেকে হংকংয়ে বিক্ষোভ চলছে। বিক্ষোভকারীরা ক্যারি লামের পদত্যাগ এবং আন্দোলনকারীদের ওপর পুলিশের নির্যাতনের স্বাধীন তদন্তসহ পাঁচ দাবিতে আন্দোলন করছে। বিক্ষোভের মুখে বিলটি আগেই স্থগিত করা হয়েছিল। এ বিষয়ে প্রধান নির্বাহী ক্যারি লাম বারবার বলেছেন, বিলটি এখন আর কার্যকর নেই। তবে অন্য দাবিগুলো মেনে নেওয়ার ব্যাপারে তাঁর কোনো নিয়ন্ত্রণ নেই।

এদিকে বিলটি পুরোপুরিভাবে প্রত্যাহার করা হলেও আন্দোলনে তেমন কোনো ভাটা পড়বে না বলে মনে করছেন বিক্ষোভে অংশ নেওয়া ২৭ বছর বয়সী কোনি। তিনি বলেন, ‘বহিঃসমর্পণ বিলের স্থগিত এবং প্রত্যাহারের মধ্যে তেমন বড় কোনো পার্থক্য দেখা দেবে না। এটি খুবই ছোট ব্যাপার এবং সিদ্ধান্ত নেওয়ার জন্য অনেক বেশি সময় নেওয়া হয়েছে। তা ছাড়া আমাদের আরো দাবি রয়েছে, যেগুলো মেনে নিতে হবে। বিশেষ করে পুলিশের নির্যাতনের বিষয়টি অবশ্যই মানতে হবে।’

বিক্ষোভকারীরা সরকারি ভবন ভাঙচুর, রাস্তায় আগুন ধরিয়ে চলাচলে প্রতিবন্ধকতা তৈরি, দোকানপাট ভাঙচুর এবং পুলিশের প্রতি পেট্রলবোমা নিক্ষেপের মতো কঠোর কর্মসূচি পালন করছে। পুলিশ জবাবে জলকামান, কাঁদানে গ্যাস, রাবার বুলেট ছুড়েছে। কিছু ক্ষেত্রে পুলিশ সরাসরি গুলিও করেছে।

এদিকে দ্য ফিন্যানশিয়াল টাইমস গতকাল মঙ্গলবার এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, চীন সরকার ক্যারি লামকে প্রত্যাহার করে নেওয়ার পরিকল্পনা করছে। সংবাদপত্রটি আরো জানিয়েছে, যদি চীনের প্রেসিডেন্ট শি চিনপিং পরিকল্পনা অনুমোদন করেন তাহলে তাঁর পরিবর্তে ‘অন্তর্বর্তী’ প্রধান নির্বাহী হিসেবে অন্য কেউ দায়িত্ব পালন করবেন। সূত্র : এএফপি।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা