kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৪ নভেম্বর ২০১৯। ২৯ কার্তিক ১৪২৬। ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিশংসন তদন্ত

আরো জোরালো বক্তব্য দিলেন ইউক্রেনে নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২৪ অক্টোবর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



আরো জোরালো বক্তব্য দিলেন ইউক্রেনে নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে ক্ষমতার অপব্যবহারের যে অভিযোগ নিয়ে তোলপাড় চলছে, সেই অভিযোগকে আরো জোরালো করেছেন আরেক সাক্ষী। ইউক্রেনে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত বিল টেইলর গত মঙ্গলবার কংগ্রেসের হাউস অব রিপ্রেজেন্টেটিভের তদন্তদলের সামনে নিজের বক্তব্য তুলে ধরে জানান, রাজনৈতিক স্বার্থে ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কিকে কাজে লাগানোর চেষ্টা করেছেন ট্রাম্প।

মার্কিন গোয়েন্দা বিভাগের কাছে জমা পড়া দুটি অভিযোগে বলা হয়, প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প তাঁর রাজনৈতিক প্রতিদ্বন্দ্বী জো বাইডেনের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরুর জন্য ইউক্রেনের প্রেসিডেন্টের ওপর চাপ সৃষ্টি করেছেন। জেলেনস্কিকে তদন্ত শুরুর জন্য বাধ্য করতে তিনি ইউক্রেনকে দেওয়া সামরিক সহায়তা স্থগিত করে দেন। গোয়েন্দা বিভাগে আসা ওই দুই অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে ট্রাম্পের বিরুদ্ধে ক্ষমতার অপব্যবহারের অভিযোগ এনে তদন্ত করছে কংগ্রেসের নিম্নকক্ষের ডেমোক্র্যাট নেতারা। অভিযোগ প্রমাণিত হলে তাঁর বিরুদ্ধে অভিশংসন প্রস্তাব আনা হবে।

রিপ্রেজেন্টেটিভ নেতাদের তদন্তের অংশ হিসেবে গত মঙ্গলবার ইউক্রেনে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত টেইলরের বক্তব্য শোনা হয়। তিনি জানান, ট্রাম্পের চিফ অব স্টাফ মিক মুলভানে ইউক্রেনকে দেওয়া ৪০ কোটি ডলারের মার্কিন সামরিক সহায়তা স্থগিত করার ছয় দিন পর গত ২৫ জুলাই ট্রাম্প-জেলেনস্কি ফোনে কথা বলেন। ওই দিনের ফোনালাপে ট্রাম্প দুটি ইস্যুতে তদন্ত শুরুর জন্য জেলেনস্কির ওপর চাপ সৃষ্টি করেন—২০১৬ সালের মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রাশিয়ার হস্তক্ষেপ ইস্যু এবং ২০২০ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনকে সামনে রেখে বাইডেন ও তাঁর ছেলে হান্টারের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু। টেইলর আরো জানান, ইউরোপীয় ইউনিয়নে (ইইউ) নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত গর্ডন সন্ডল্যান্ড নিজে তাঁকে এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

টেইলরের মতে, ওই দুই ইস্যুতে ইউক্রেনে তদন্ত শুরুর জন্য নিয়মবহির্ভূত ও অনানুষ্ঠানিক পথে চেষ্টা চালিয়েছে ট্রাম্পশিবির। এ ধরনের চেষ্টা যুক্তরাষ্ট্র-ইউক্রেন সম্পর্ককে মৌলিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে বলে তাঁর দাবি। এ ক্ষতির পেছনে ইউক্রেনে সামরিক সহায়তা স্থগিত করাও একটি কারণ বলে তিনি উল্লেখ করেছেন। সূত্র : সিএনএন, এএফপি।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা