kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৪ নভেম্বর ২০১৯। ২৯ কার্তিক ১৪২৬। ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

নোবেলজয়ীর সঙ্গে সাক্ষাতের পর মোদি

অভিজিতের কৃতিত্বে গর্বিত গোটা ভারত

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২৩ অক্টোবর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে সাক্ষাৎ করলেন ২০১৯ সালে অর্থনীতিতে নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়। সাক্ষাতের পর অভিজিৎ সম্পর্কে মোদি বলেন, ‘ভারত তাঁর জন্য গর্বিত।’

অভিজিতের নোবেল জয়ে ভারতজুড়ে উচ্ছ্বাসের মধ্যেই গত শনিবার দিল্লিতে পা রাখেন তিনি। গতকাল মঙ্গলবার সকালে তিনি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। সাক্ষাতে অভিজিতের সঙ্গে বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হয়েছে জানিয়ে পরে নিজের টুইটার হ্যান্ডলে মোদি লেখেন, ‘নোবেলজয়ী অভিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে দেখা হলো। বিভিন্ন বিষয়ে ওঁর সঙ্গে সুষ্ঠু ও সবিস্তার আলোচনা হয়েছে। মানবজাতির ক্ষমতায়ন নিয়ে আলাদা আবেগ রয়েছে ওঁর। ওঁর কৃতিত্বে ভারত গর্বিত। ভবিষ্যৎ কর্মসূচির জন্য ওঁকে শুভেচ্ছা জানাই।’ এর আগে এই অর্থনীতিবিদের নীতিনির্ধারণসংক্রান্ত নানা বিষয়ের তীব্র সমালোচনা করেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী পীযূষ গোয়েলের মতো বিজেপি নেতারা। প্রখ্যাত অর্থনীতিবিদের প্রতি এই সমালোচনা এবং বিতর্কের মাঝেই প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ হলো নোবেলজয়ীর।

ম্যাসাচুসেটস ইনস্টিটিউট অব টেকনোলজির ভারতীয়-আমেরিকান অধ্যাপক অভিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়, তাঁর স্ত্রী এস্থার ডুফলো এবং আরেক অর্থনীতিবিদ মাইকেল ক্রেমারের সঙ্গে মিলিতভাবে ‘বিশ্বজুড়ে দারিদ্র্য বিমোচনে পরীক্ষামূলক পদ্ধতির জন্য’ ২০১৯ সালের নোবেল অর্থনীতি পুরস্কার পান।

গতকাল মোদির সঙ্গে বৈঠকের পর সংবাদমাধ্যমের সামনে হাজির হয়ে অভিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, ‘সাংবাদিকদের তিনি বলেন, ‘আমার সঙ্গে তাঁর সাক্ষািট সৌহার্দ্যপূর্ণ ও ভালো ছিল। প্রধানমন্ত্রী মোদিবিরোধী বলে কিভাবে আমাকে ফাঁদে ফেলার চেষ্টা করা হবে তা নিয়েও মজা করেন...তিনি টিভি দেখছেন এবং তিনি আপনাদেরও দেখছেন। এবং তিনি জানেন যে আপনারা কী করার চেষ্টা করছেন।’  সূত্র : এনডিটিভি।

 

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা