kalerkantho

সোমবার । ১৮ নভেম্বর ২০১৯। ৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ২০ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

হংকংয়ে আন্দোলন

বিতর্কিত হস্তান্তর বিল প্রত্যাহারের ঘোষণা ক্যারি লামের

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



হংকংয়ের চীনপন্থী নেতা ক্যারি লাম অবশেষে অপরাধীদের চীনে হস্তান্তরের সুযোগ রেখে আনা বিল স্থায়ীভাবে প্রত্যাহারের ঘোষণা দিয়েছেন। গতকাল বুধবার লাম এ ঘোষণা দেন। বিলটি প্রত্যাহারের দাবিতে গত জুন মাস থেকে শুরু হওয়া আন্দোলনের চাপে লাম এর আগে স্থগিত করার ঘোষণা দিয়েছিলেন। কিন্তু আন্দোলন বন্ধ না হওয়ায় এবার তিনি স্থায়ীভাবে প্রত্যাহারের কথা জানালেন।

বিলটি প্রত্যাহারের ঘোষণা দিয়ে এক ভিডিও বার্তায় ক্যারি লাম বলেন, ‘জনগণের উদ্বেগ লাঘবে সরকার আনুষ্ঠানিকভাবে বিলটি প্রত্যাহার করে নেবে।’ তিনি আরো বলেন, ‘আসুন আমরা সংঘাতের পরিবর্তে আলোচনা করি এবং একটি সমাধান বের করি। নাগরিকদের অসন্তোষ দূর করতে আমাদের অবশ্যই একটি পথ খুঁজে বের করে সমাধান করতে হবে।’

বিক্ষোভকারীরা বিলটি বাতিলের দাবিতে গত জুনে আন্দোলন শুরু করেছিল। তিন মাসেরও বেশি সময়ের আন্দোলনে বিল বাতিলের দাবির পাশাপাশি বিক্ষোভকারীরা আরো চারটি দাবি যোগ করে। সংকট সমাধানে লামের ঘোষণা সহায়ক হবে বলে প্রত্যাশা করে স্থানীয় সংবাদমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশ হয়েছিল। পাশাপাশি হংকংয়ের স্টক মার্কেটে তেজি ভাব দেখা দিয়েছিল। স্টক মার্কেটে দর প্রায় চার ভাগ বেড়ে গিয়েছিল। কিন্তু কিছুক্ষণ পরই সংবাদমাধ্যমকে হতাশায় ডোবায় বিক্ষোভকারীরা। গণতন্ত্র সমর্থিত বিক্ষোভকারীরা ক্ষুব্ধ হয় এবং গণতন্ত্রের দাবিতে আন্দোলন অব্যাহত রাখার ঘোষণা দেয়। আন্দোলনে শীর্ষস্থানীয় নেতা এবং মানবাধিকারকর্মী জোসুয়া ওং বলেন, ‘অনেক দেরি হয়ে গেছে। আমরা বিশ্বকে এই কৌশলের বিষয়ে এবং হংকং ও চীনের সরকারের প্রতারণায় প্রতারিত না হওয়ার আহ্বান জানাচ্ছি।’

লামের ঘোষণার পর নতুন করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম সরগরম হয়ে উঠেছে। অনলাইন মেসেজ ফোরামে জানানো হয়েছে, এক হাজার জনেরও বেশি বিক্ষোভকারীকে আটক করা হয়েছে। বহুসংখ্যক আহত হয়েছে। পাঁচটি মূল দাবি, একটিও কম নয়।  সূত্র : এএফপি।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা