kalerkantho

হংকংয়ে বিক্ষোভ

রাতে সংঘর্ষের পর ফের আন্দোলনের প্রস্তুতি

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২৬ আগস্ট, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



কয়েক দিন শান্ত থাকার পর আবার উত্তাল হয়ে উঠছে হংকং। অপরাধীদের চীনে হস্তান্তরের সুযোগ রেখে আনা বিলকে কেন্দ্র করে গত জুন মাসে দেশটিতে আন্দোলন শুরু হয়। পরবর্তী সময়ে তা সরকারবিরোধী আন্দোলনে রূপ নেয়। আগের দিন পুলিশের সঙ্গে ব্যাপক সংঘর্ষের পর গতকাল রবিবার বিক্ষোভকারীরা বড় ধরনের আন্দোলনের প্রস্তুতি নিয়ে শহরের একটি স্টেডিয়ামে জড়ো হয়।

প্রায় তিন মাস ধরে চলা এই আন্দোলনে হংকংয়ের জনজীবনে নেতিবাচক প্রভাব ফেলছে। ব্যস্ত সময়ে যোগাযোগের অন্যতম মাধ্যম রেল চলাচল বন্ধ করে দেওয়ায় লাখ লাখ মানুষকে সমস্যায় পড়তে হচ্ছে। গতকালও আন্দোলনের প্রধান এলাকা সুয়েন ওয়ানের কাছাকাছি রেলস্টেশন বন্ধ ছিল। এ নিয়ে দ্বিতীয় দিনের মতো স্টেশনটি বন্ধ থাকে। তা সত্ত্বেও গতকাল কোয়াই চুং স্পোর্টস স্টেডিয়ামে বিক্ষোভকারীরা জড়ো হতে শুরু করে। সুয়েন ওয়ান এলাকার দিকে মিছিল যাওয়ার জন্য মিছিল শুরুর আগে হওয়া বৃষ্টিও তাদের রুখতে পারেনি। এদিন দ্বিতীয় আরো একটি মিছিল বের হয়। এ মিছিলে অংশগ্রহণকারীর সংখ্যা বেশি ছিল না। তবে মিছিলে পুলিশ সদস্যদের বেশ কয়েকজন স্বজন ছিল। মিছিলে থাকা এক পুলিশ কর্মকর্তার স্ত্রী বলেন, তাঁদের যথেষ্ট পরিমাণ সমালোচনার মোকাবেলা করতে হচ্ছে। বলেন, ‘আমার বিশ্বাস এই কয়েক মাসে পুলিশকে যথেষ্ট দুর্নাম কুড়াতে হয়েছে।’ পুলিশ সদস্যদের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘আমি সত্যিকার অর্থে তোমাদের জানাতে চাই, যদি সারা পৃথিবী তোমাদের নিন্দা করে তার পরও পরিবারের সদস্য হিসেবে আমরা তা করব না। তবে মনে করবে, তোমার দায়িত্ব হচ্ছে হংকংয়ের নাগরিকদের সেবা করা, হংকংয়ের শত্রুদের নয়।’

বিক্ষোভ দমাতে হংকংয়ের পুলিশ কর্মকর্তারা বিক্ষোভকারীদের ওপর চড়াও হচ্ছেন। এ কারণে পুলিশ প্রায় সময়ই বিক্ষোভকারীদের ক্রোধের কেন্দ্রবিন্দুতে পরিণত হচ্ছে। গত শনিবার পুলিশ ও বিক্ষোভকারীদের সংঘর্ষে ১০ জন আহত হয়, তাদের মধ্যে দুজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। তবে তারা পুলিশ না বিক্ষোভকারী সে বিষয়ে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ কিছু জানায়নি। সূত্র : এএফপি।

মন্তব্য