kalerkantho

আমাজনে আগুন বেড়েই চলেছে

ব্রাজিলে পরিবেশবিরোধী অপরাধে জরিমানা কমেছে ব্যাপক হারে

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২৬ আগস্ট, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



ব্রাজিলে পরিবেশবিরোধী অপরাধে জরিমানা কমেছে ব্যাপক হারে

ব্রাজিলে হনদোনিয়া রাজ্যের রাজধানী পোর্তো ভেহলোর কাছে আমাজনের পুড়ে যাওয়া অংশের এ ছবি গতকাল তোলা হয়। ছবি : এএফপি

আমাজনে আরো কয়েক শ অগ্নিকাণ্ডের খবর শনিবার নিশ্চিত করেছে ব্রাজিলের সরকারি সূত্র। বিশ্বের সর্ববৃহৎ এই চিরহরিৎ বনে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ক্রমাগত বৃদ্ধির সঙ্গে অন্য একটি ঘটনার যোগসূত্র আবিষ্কার করেছে বিবিসি। সংবাদমাধ্যমটি জানায়, পরিবেশবিরোধী কর্মকাণ্ডের দায়ে ব্রাজিলে জরিমানা করার হার আশঙ্কাজনক হারে কমে গেছে। এ নিয়ে ব্যাপক সমালোচনার মধ্যে দেশটির প্রেসিডেন্ট জাইর বোলসোনারো আমাজনে অগ্নিকাণ্ড সামাল দিতে সেনা মোতায়েনের নির্দেশ দেন।

সরকারি তথ্য মতে, চলতি বছর ব্রাজিলের জঙ্গলে এ পর্যন্ত ৭৮ হাজার ৩৮৩টি অগ্নিকাণ্ড ঘটেছে। ২০১৩ সালের পর এ বছরই অগ্নিকাণ্ড এত বেড়েছে। বিরাট সংখ্যার অগ্নিকাণ্ডের অর্ধেকেরও বেশি ঘটেছে আমাজনে। সর্বশেষ গত বৃহস্পতিবার ও শুক্রবার প্রায় এক হাজার ৬৬৩টি আগুনের ঘটনা রেকর্ড করেছে ব্রাজিলের ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট ফর স্পেস রিসার্চ (আইএনপিই)।

বনে আগুনের তীব্রতা বেড়ে যাওয়ায় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে সাতটি রাজ্য সেনাবাহিনীর সাহায্য চেয়েছে। ঘরে-বাইরে চরম সমালোচনার মুখে প্রেসিডেন্ট বোলসোনারো শেষমেষ গত শনিবার সেনা পাঠানোর নির্দেশ দেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে এরই মধ্যে হনদোনিয়া রাজ্যে ছয়টি হেলিকপ্টার পাঠানো হয়েছে। এর মধ্যে দুটি হেলিকপ্টারের প্রতিটি ১২ হাজার লিটার পানি বহনে সক্ষম। এ বহরের সঙ্গে গতকাল রবিবার ৩০ জন অগ্নিনির্বাপণকর্মীর যোগ দেওয়ার কথা ছিল।

প্রেসিডেন্টের এ নির্দেশের দিনই যুক্তরাজ্যভিত্তিক সংবাদমাধ্যম বিবিসি একটি বিশ্লেষণমূলক প্রতিবেদন প্রকাশ করে। এতে বলা হয়, একদিকে আমাজনে এ বছর অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা বেড়েছে, অন্যদিকে মারাত্মক হারে কমে গেছে পরিবেশবিরোধী কর্মকাণ্ডের জেরে জরিমানা করার ঘটনা। ব্রাজিলের ইনস্টিটিউট অব এনভায়রনমেন্ট অ্যান্ড রিনিউয়েবল নেচারাল রিসোর্সেসের (আইবিএএমএ) তথ্যানুযায়ী, গত ১ জানুয়ারি বোলসোনারো ক্ষমতাসীন হওয়ার পর থেকে এ পর্যন্ত মোট ছয় হাজার ৮৯৫টি জরিমানা করা হয়েছে। গত বছর একই মেয়াদে সংখ্যাটি ছিল ৯ হাজার ৭৭১। সে হিসাবে জরিমানার হার ২৪.৪ শতাংশ কমেছে।

সংস্থাটি আরো জানায়, ব্রাজিলের যে ৯ রাজ্যজুড়ে আমাজনের অবস্থান, সেসব রাজ্যে বনবিরোধী কর্মকাণ্ডের দায়ে জরিমানার সংখ্যা গত বছর জানুয়ারি-আগস্টে ছিল দুই হাজার ৮১৭টি এবং চলতি বছর একই মেয়াদে এ সংখ্যা এক হাজার ৬২৭। পরিবেশবিরোধী অপরাধসংক্রান্ত জরিমানার সংখ্যা কমার কারণ সম্পর্কে জানতে চাইলে আইবিএএমএ এবং পরিবেশ মন্ত্রণালয় উভয়ের কেউ জবাব দেয়নি।

আইবিএএমএর অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এলিজাবেথ উয়েমা জানান, প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রচারকালে বোলসোনারো অঙ্গীকার করেছিলেন, তিনি ক্ষমতাসীন হলে পরিবেশবিষয়ক সংস্থার প্রভাব কমাবেন এবং রেইনফরেস্ট ধ্বংসের দায়ে জরিমানার লাগাম টানবেন। ক্ষমতায় এসে বোলসোনারো তাঁর অঙ্গীকার বাস্তবায়ন করে ছেড়েছেন বলে দাবি উয়েমার।

না বললেই নয়, প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রচারকালে বোলসোনারো বাণিজ্যিক কার্যক্রমের জন্য আমাজন উন্মুক্ত করার ওপর জোর দিয়েছিলেন। এদিকে বিশেষজ্ঞরা বলছেন, কৃষিকাজ ও পশুচারণের জন্য শুষ্ক মৌসুমে আগুন ধরিয়ে দিয়ে জমি পরিষ্কার করার যে প্রচলন রয়েছে, সেটার কারণেই এবার আমাজনে অগ্নিকাণ্ডের প্রকোপ আরো বেড়েছে। সূত্র : এএফপি, বিবিসি।

মন্তব্য