kalerkantho

বুধবার । ২৮ শ্রাবণ ১৪২৭। ১২ আগস্ট ২০২০ । ২১ জিলহজ ১৪৪১

দক্ষিণ কোরিয়ার গণমাধ্যমে ভুল সংবাদ

বন্দি পররাষ্ট্রমন্ত্রী বসে আছেন উনের পাশে!

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

৪ জুন, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



উত্তর কোরিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী কিম ইয়ং চোলকে সশ্রম বন্দিশালায় (লেবার ক্যাম্প) পাঠানো হয়েছে—দক্ষিণ কোরিয়ার গণমাধ্যমে প্রকাশিত এমন খবর ভুল প্রমাণিত হয়েছে। গতকাল সোমবার একটি অনুষ্ঠানের ছবি ছাপে উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্রায়ত্ত সংবাদপত্র ‘রোদোং সিনমুন’। ওই ছবিতে দেখা যায়, একটি অনুষ্ঠানে কিম ইয়ং চোল দেশটির নেতা কিম জং উনের পাশে বসে আছেন।

গত শুক্রবার দক্ষিণ কোরিয়ার দ্য চোসুন ইলবো পত্রিকার এক প্রতিবেদনে বলা হয়, যুক্তরাষ্ট্রে নিযুক্ত উত্তর কোরিয়ার বিশেষ দূত কিম হাইয়োক চোলের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হয়েছে। পরমাণু নিরস্ত্রীকরণ ইস্যুতে ট্রাম্প ও উনের দ্বিতীয় বৈঠক ব্যর্থ হওয়ায় চোলের এ পরিণতি হয়েছে বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়। সঙ্গে এও বলা হয়, পররাষ্ট্রমন্ত্রী কিম ইয়ং চোলকে সশ্রম বন্দিশালায় (লেবার ক্যাম্প) পাঠিয়েছেন উন।

কিন্তু কিম ইয়ং চোলকে নিয়ে চোসুন ইলবোর সংবাদকে গতকাল ভুল প্রমাণিত করে ‘রোদোং সিনমুন’। তাঁরা একটি ছবি ছাপে, যেখানে দেখা যায় ইয়ং চোল একটি সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের দর্শকসারিতে বসে আছেন। তাঁর ডান পাশে চারজনের পরেই বসে আছেন কিম জং উন। দক্ষিণ কোরিয়ার মুনওয়া ইলবো পত্রিকা গতকাল তাদের সান্ধ্য সংস্করণে ওই ছবিটি ছেপেছে। পত্রিকাটি নিশ্চিত করেছে যে উনের পাশে বসা ব্যক্তি ইয়ং চোলই ছিলেন।

তবে রোদোং সিনমুনের প্রতিবেদনে কিম হাইয়োক চোলের মৃত্যুদণ্ড কার্যকরের বিষয়টি পরিষ্কার করা হয়নি। প্রতিবেদনে তাঁর কোনো ছবিও ছিল না, ছিল না কোনো ব্যাখ্যাও।

সূত্র : এএফপি।

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা