kalerkantho

সোমবার। ২৭ জানুয়ারি ২০২০। ১৩ মাঘ ১৪২৬। ৩০ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১     

সু চিকে বললেন মাইক পেন্স

রোহিঙ্গা নিপীড়নের কোনো অজুহাত চলে না

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৫ নভেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



রোহিঙ্গা নিপীড়নের কোনো অজুহাত চলে না

মিয়ানমারে রোহিঙ্গাদের ওপর নিপীড়নের বিরুদ্ধে এবার কোনো মাধ্যম হয়ে নয়, সরাসরি অং সান সু চির সঙ্গে কথা বলে নিন্দা জানিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্স। সিঙ্গাপুরে গতকাল বুধবার সু চির সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠকে এই মার্কিন কূটনীতিক বলেন, রোহিঙ্গাদের ওপর মিয়ানমারের সেনাবাহিনীর সহিংসতার ‘কোনো অজুহাত চলে না’।

দক্ষিণ-পূর্ব এশীয় দেশগুলোর সংগঠন আসিয়ানের ৩৩তম সম্মেলনে উপলক্ষে সিঙ্গাপুরে উপস্থিত মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদ গত মঙ্গলবার রোহিঙ্গা ইস্যুতে সু চির কড়া সমালোচনা করেন। তাঁর মতে, রোহিঙ্গা নির্যাতনে সু চির নীরবতা ‘অমার্জনীয়’। মাহাথিরের এমন মন্তব্যের পরদিন যুক্তরাষ্ট্রের ভাইস প্রেসিডেন্ট পেন্স রোহিঙ্গা সংকট নিয়ে কথা বললেন।

আসিয়ান সম্মেলনের ফাঁকে দ্বিপক্ষীয় বৈঠকের উদ্দেশ্য নিয়ে বর্তমানে সিঙ্গাপুরে রয়েছেন পেন্স। এর অংশ হিসেবে গতকাল সু চির সঙ্গে বৈঠকের সময় তিনি রোহিঙ্গাদের ওপর মিয়ানমারের সেনাবাহিনীর নির্মমতার নিন্দা জানিয়ে বলেন, ‘সামরিক বাহিনী ও সীমান্তরক্ষীদের যে সহিসংতা ও নিপীড়নের ফলে সাত লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে যেতে বাধ্য হয়েছে, এর কোনো অজুহাত চলে না।’ এ ঘটনায় দোষী ব্যক্তিদের শাস্তি নিশ্চিত করার প্রক্রিয়ায় যথাযথ অগ্রগতি না হওয়ায় উদ্বেগ জানান এই কূটনীতিক।

মিয়ানমারের রাখাইনে সংখ্যালঘু মুসলিম রোহিঙ্গারা কখনোই সে দেশের সংখ্যাগরিষ্ঠ বৌদ্ধ ও শাসক শ্রেণির কাছে গ্রহণযোগ্যতা পায়নি। কয়েক প্রজন্ম ধরে সেখানে বাস করা রোহিঙ্গারা নাগরিকত্ব পাওয়া দূরে থাক, ন্যূনতম মৌলিক অধিকার পর্যন্ত ভোগ করতে পারে না। তাদের ওপর শাসকগোষ্ঠীর নিপীড়ন নৈমিত্তিক ঘটনা।

গত বছর শেষ নাগাদ সেই নিপীড়ন গণহত্যা, ধর্ষণ আর জ্বালাও-পোড়াওয়ের পর্যায়ে চলে যায়। লাখ লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়। আশ্রয় নেয় আশপাশের দেশগুলোতেও। কিন্তু এ ঘটনায় একেবারে মুখে কুলুপ এঁটে ছিলেন শান্তিতে নোবেল পুরস্কারজয়ী সু চি। তাঁর এ নীরবতার কারণে এরই মধ্যে বিভিন্ন সংস্থা তাঁকে দেওয়া পুরস্কার প্রত্যাহার করে নিয়েছে, যার সর্বশেষ উদাহরণ অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের ‘অ্যাম্বাসাডর অব কনসায়েন্স অ্যাওয়ার্ড’ প্রত্যাহারের ঘটনা। সূত্র : এএফপি।

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা