kalerkantho

শুক্রবার । ২২ নভেম্বর ২০১৯। ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ২৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

সৌদিতে অস্ত্র রপ্তানি বন্ধের আহ্বান জার্মানির

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২৩ অক্টোবর, ২০১৮ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সাংবাদিক জামাল খাশোগি হত্যার বিষয়ে সন্তোষজনক ব্যাখ্যা না পাওয়া পর্যন্ত সৌদি আরবে অস্ত্র রপ্তানি বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে জার্মানি। একই সঙ্গে তারা ইউরোপীয় ইউনিয়নকেও (ইইউ) একই পথ অনুসরণের আহ্বান জানিয়েছে। জার্মানির অর্থমন্ত্রী পিটার আল্টম্যায়ার সোমবার এ কথা জানিয়েছেন।

জেডডিএফ সম্প্রচার মাধ্যমকে তিনি বলেন, খাশোগির ঘটনায় সৌদি আরব এ পর্যন্ত যেসব ব্যাখ্যা দিয়েছে তা সন্তোষজনক নয়। তিনি বলেন, ‘আমরা কী ঘটেছে তা জানতে চাই। তাই সরকার এ মুহূর্তে সৌদি আরবে আর কোনো অস্ত্র রপ্তানির অনুমোদন দেবে না বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছে।’ তা ছাড়া খাশোগির ঘটনায় সৌদি আরবের ওপর চাপ বাড়ানোর জন্য ইইউর অন্য দেশগুলোরও দেশটিতে অস্ত্র রপ্তানি বন্ধ করা উচিত বলে আল্টম্যায়ার মন্তব্য করেন। তিনি বলেন, ‘ইউরোপীয় দেশগুলোর সবাই মিলে একটি যৌথ পদক্ষেপ নেওয়া প্রয়োজন জরুরি বলে আমি মনে করি। কারণ সব ইউরোপীয় দেশ একাট্টা হলে রিয়াদ সরকারের ওপর এর একটা প্রভাব পড়বে। কিন্তু আমরা রপ্তানি বন্ধ করলেও অন্য দেশগুলো যদি সেই শূন্যস্থান পূরণ করতে থাকে তাহলে এতে কোনো কাজ হবে না।’

গত ২ অক্টোবর তুরস্কের ইস্তাম্বুলের সৌদি কনস্যুলেটে খাশোগিকে হত্যা করা হয়েছে বলে এত দিন পর সরাসরি স্বীকার করেছে সৌদি আরব। এর আগে কনস্যুলেট ভবনে ঢোকার পর খাশোগি নিখোঁজ হওয়ার সময় থেকে সৌদি আরব বিভিন্ন সময়ে নানা রকম কথা বলে এসেছে।

ঘটনার ১৭ দিন পর গত শনিবার কনস্যুলেট ভবনের ভেতরেই খাশোগি নিহত হয়েছেন বলে স্বীকার করে সৌদি আরব। কিন্তু আন্তর্জাতিক মহল তাদের দেওয়া ঘটনার ব্যাখ্যা মেনে নেয়নি।

রবিবার সৌদি পররাষ্ট্রমন্ত্রী আদেল আল-জুবায়ের সরাসরি খাশোগি নিহত হয়েছেন জানিয়ে এ ঘটনাটিকে একটি ‘বড় ধরনের মারাত্মক ভুল’ বলে মন্তব্য করেন। জার্মানির চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মার্কেল রবিবার বলেছেন, খাশোগির বিষয়টি নিয়ে এ অস্পষ্টতা যত দিন না কাটবে তত দিন পর্যন্ত সৌদি আরবে অস্ত্র রপ্তানি বন্ধ রাখবে জার্মানি।

সূত্র : রয়টার্স, এএফপি।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা