kalerkantho

বুধবার । ১৩ ফাল্গুন ১৪২৬ । ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০। ১ রজব জমাদিউস সানি ১৪৪১

সাতক্ষীরায় ৪৩ জন রোগী শনাক্ত

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি   

৪ আগস্ট, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সাতক্ষীরায় ৪৩ জন ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়েছে বলে শনাক্ত করা হয়েছে। এর মধ্যে বিভিন্ন হাসপাতালে এখনো পর্যন্ত ভর্তি রয়েছে ১৬ জন। চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরে গেছে আরো ২৫ জন এবং অন্যত্র রেফার করা হয়েছে দুজনকে। আক্রান্তদের সাতক্ষীরা সদর হাসপাতাল, মেডিক্যাল কলেজ, কলারোয়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সসহ বিভিন্ন বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এসব রোগীর বেশির ভাগই ঢাকা থেকে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে সাতক্ষীরায় ফিরে এসেছে। এদিকে ডেঙ্গু প্রতিরোধে এরই মধ্যে প্রশাসনের পক্ষ থেকে মশক নিধনে শোভাযাত্রা, আলোচনাসভা, মশক নিধন ওষুধ ছিটানোসহ নানা জনসচেতনতামূলক প্রচারাভিযান শুরু করা হয়েছে। সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে খোলা হয়েছে ডেঙ্গু কর্নার নামে একটি মেডিক্যাল ক্যাম্প। অন্যদিকে সাতক্ষীরা জেলায় প্রতিদিন ডেঙ্গুতে আক্রান্তদের সংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়ায় আতঙ্কিত সাধারণ মানুষ।

সাতক্ষীরার সিভিল সার্জন ডা. শেখ আবু শাহিন বলেন, ‘ডেঙ্গু হলে জ্বর, পেটে ব্যথা, মাথা ব্যথা, অনেকের প্রেসার কমে যাচ্ছে। এটি প্রতিরোধে মশার কামড় থেকে দূরে থাকতে হবে। মশা যাতে জন্মাতে না পারে সে জন্য বাড়ির আশপাশ পরিষ্কার করতে হবে এবং পরিত্যক্ত বোতল, নারকেলের খোসা, টায়ারসহ অন্য জিনিসপত্র পরিষ্কার রাখতে হবে এবং ঘুমানোর আগে অবশ্যই মশারি ব্যবহার করতে হবে। ডেঙ্গু প্রতিরোধে এরই মধ্যে শহর থেকে গ্রামের তৃণমূল পর্যায়ে বিভিন্ন প্রকার জনসচেতনতামূলক প্রচারাভিযান শুরু করা হয়েছে।’ তিনি এ সময় ডেঙ্গুতে আক্রান্তদের পানি ও পানি জাতীয় খাদ্য ডাব, শরবত, পেঁপে বেশি করে খাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা