kalerkantho

শুক্রবার ।  ২৭ মে ২০২২ । ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ । ২৫ শাওয়াল ১৪৪

নমুনা ভাইভা

‘দিন দিন আপনার এত অবনতি কেন?’

শামীম আহমেদ, সহকারী পরিচালক, বাংলাদেশ ব্যাংক

২২ জানুয়ারি, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



‘দিন দিন আপনার এত অবনতি কেন?’

শামীম আহমেদ

এটি ছিল আমার তৃতীয় ব্যাংক ভাইভা। বাংলাদেশ ব্যাংকের অফিসার (জেনারেল) পদের এই ভাইভায় (২০১৯) বোর্ড চেয়ারম্যানের সঙ্গে তিনজন সদস্য ছিলেন

আমি : (দরজা খুলে) আসব স্যার?

চেয়ারম্যান স্যার : আসেন।

আমি : (অনুমতি নিয়ে ভেতরে গিয়ে) আসসালামু আলাইকুম।

চেয়ারম্যান স্যার : ওয়ালাইকুম আসসালাম, বসুন।

বিজ্ঞাপন

আমি : (বসে) Thank you sir.

চেয়ারম্যান স্যার : আপনি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ম্যানেজমেন্টে বিবিএ, এমবিএ করেছেন। দাখিলে পেয়েছেন জিপিএ ৫, এইচএসসিতে পেয়েছেন জিপিএ ৪.৮০, অনার্সে ৩.৪৬ আর মাস্টার্সে জিপিএ ৩.৩৩। দিন দিন আপনার এত অবনতি কেন? (শুনে সবাই হেসে উঠল)

সদস্য-১ : পরের দুটি আউট অব ৪ (জিপিএ) না? সেটা বলতে হবে তো।

আমি : জি স্যার, বিবিএ ও এমবিএতে আউট অব ৪।

সদস্য-১ : আপনি এখন কী করেন?

আমি : আমি টিউশন করি, আর জবের জন্য চেষ্টা করছি...

সদস্য-১ : আপনার প্রিয় বিষয় কোনটি?

আমি : ট্যাক্সেশন, স্যার।

সদস্য-১ : কিছুদিন আগে টাক্সে নিয়োগ হলো, পরীক্ষা দেননি?

আমি : না স্যার।

সদস্য-১ : আচ্ছা, ট্যাক্সেশনের এমন একটি টপিকের নাম বলুন, যেটা আপনার লাইফে এখনো প্রয়োগ করেননি, তবে ভবিষ্যতে করবেন।

আমি : tax evasion... (সঠিক উত্তর Income tax)

সদস্য-১ : (হেসে) আপনি tax evasion apply করবেন?

সদস্য-২ : একটা ব্যাংক চালু করতে হলে বাংলাদেশ ব্যাংকে কত টাকা জমা রাখতে হয়?

আমি : ৪০০ কোটি টাকা, স্যার।

সদস্য-২ : রংপুরে কৃষি ব্যাংকের কয়টা শাখা আছে?

আমি : স্যরি স্যার, আমি জানি না।

সদস্য-২ : কেন রংপুরে কৃষি ব্যাংক নাই?

আমি : আছে স্যার, রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংক।

সদস্য-২ : হুম, বাংলাদেশ ব্যাংকের বর্তমান গভর্নরের নাম কী?

আমি : জনাব ফজলে কবির।

সদস্য-২ : সাবেক গভর্নরের নাম বলেন, যাঁদের ডক্টরেট ডিগ্রি ছিল।

আমি : ডক্টর আতিউর রহমান, ডক্টর খোরশেদ আলম...

সদস্য-২ : (বোর্ডের একজন সদস্যকে উদ্দেশ্য করে) ম্যাডাম, খোরশেদ আলম স্যারের কি ডক্টরেট ডিগ্রি ছিল?

ম্যাডাম : না।

সদস্য-২ : আপনি ডক্টর ফরাসউদ্দিনের নাম শুনেছেন?

আমি : জি স্যার।

সদস্য-১ : আপনি তো রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়েছেন, রাজশাহীর অর্থনৈতিক চালিকাশক্তি কী কী, বলেন তো? কী কী ফসল হয়?

আমি : স্যার, রাজশাহীতে অনেক আম, ডাল, আলু, গম ও আখ হয়।

সদস্য-১ : আচ্ছা, সুগার মিলে আখ দিলে কৃষকদের একটা ডকুমেন্ট দেওয়া হয়, সেটার নাম কী?

আমি : স্যার, আমাদের এলাকায় চিট বলে, কুপনও বলে।

সদস্য-১ : না, এটার একটা নাম আছে, আগে এটা হার্ড কপি ছিল, এখন অন্যভাবে দেওয়া হয়, সেটা কী?

আমি : স্যরি স্যার (সঠিক উত্তর—পুর্জি/ই-পুর্জি বলে)।

ম্যাডাম : বর্তমান মাথাপিছু আয় কত?

আমি :  ১৭৫১ মার্কিন ডলার (তখনকার তথ্য)।

ম্যাডাম : বর্তমানে মুদ্রাস্ফীতির হার কত?

আমি : ৫.৫৬% (তখনকার তথ্য)।

ম্যাডাম : বর্তমান গড় আয়ু কত?

আমি : ৭২.৬ বছর (তখনকার তথ্য)।

ম্যাডাম : পুরুষ কত, নারী কত?

আমি : স্যরি ম্যাম, সঠিক বলতে পারছি না।

সদস্য-২ : নাচোল কোথায়?

(ভাবতে ভাবতে স্যার অন্য প্রশ্ন করলেন। )

সদস্য-২ : তেভাগা আন্দোলন কোথায় হয়েছিল?

(উত্তর : তৎকালীন পূর্ব বাংলা ও পশ্চিম বাংলা)।

আমি : ও মনে পড়েছে স্যার, নাচোল চাঁপাইনবাবগঞ্জে।

সদস্য-২ : আপনি এখন আসতে পারেন।

আমি : ধন্যবাদ স্যার। আসসালামু আলাইকুম।

শ্রুতলিখন : এম এম মুজাহিদ উদ্দীন



সাতদিনের সেরা