kalerkantho

রবিবার । ৪ আশ্বিন ১৪২৮। ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১১ সফর ১৪৪৩

ময়লা পানিতে পা ভিজেছে?

বর্ষাকালে অনেক সময় জমে থাকা পানিতে পা ভিজে যায়। এমন নোংরা পানিতে পা ভিজে গেলে দরকার আলাদা সতর্কতা। পরামর্শ দিয়েছেন বারডেম হাসপাতালের চর্মরোগ বিশেষজ্ঞ অধ্যাপক নজরুল ইসলাম। লিখেছেন এ এস এম সাদ

২ আগস্ট, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



ময়লা পানিতে পা ভিজেছে?

পথে হাঁটছেন। হঠাত্ অবিরাম বৃষ্টি। পথের ধুলা-ময়লার ভোগান্তির সঙ্গে যুক্ত হলো কাদাপানি। এমনিতেই ঢাকার ফুটপাতে ভোগান্তির শেষ নেই। তার ওপর নিত্যনতুন খোঁড়াখুঁড়ি লেগেই থাকে। ফলে সহজেই রাস্তায় পানি জমে যায়। ডুবে যায় মূল রাস্তাও। রিকশায় থাকলেও পা ভিজে যায় জমে থাকা নোংরা পানিতে। হাঁটতে গেলেও হঠাত্ করে ছিটে লাগে কাদাপানি। এমন ভোগান্তি পেরিয়ে যখন গন্তব্যে যাওয়া হয় ততক্ষণে অনেকটা সময় নোংরা পানির সংস্পর্শ পায় পা।

রাস্তায় জমে থাকা নোংরা পানি দীর্ঘ সময় পায়ে লেগে থাকলে ফাঙ্গাল ইনফেকশনসহ নানা সমস্যা দেখা দিতে পারে। ফুসকুড়ি, চুলকানি, দাদ থেকে খোস-পাঁচড়ার মতো চর্মরোগ হতে পারে। তাই এমন পানিতে পায়ের সংস্পর্শ লাগলে দরকার বিশেষ যত্ন। 

দ্রুত পা পরিষ্কার করুন 

যত দামি জুতা পরুন না কেন বৃষ্টির মধ্যে পা কিন্তু ভিজবেই। আবার অনেক সময় অসাবধানতায়ও জমে থাকা নোংরা পানিতে পা পড়ে আমাদের। এমন পানিতে পা ভিজে গেলে যত দ্রুত সম্ভব পরিষ্কার করে নেওয়া উচিত। দীর্ঘক্ষণ ভেজা পায়ে থাকলে দ্রুত জীবাণু সংক্রমণ দেখা দিতে পারে। তাই রাস্তায় জমে থাকা ময়লা পানিতে পা ভিজে গেলে অবশ্যই গন্তব্যস্থলে পৌঁছে দ্রুত পরিষ্কার করে নিন। প্রথমে জুতা খুলে পরিষ্কার পানি দিয়ে পা ধুয়ে নিন। পায়ে লেগে থাকা ময়লাগুলো সাবান দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সম্ভব হলে এক মগ পানিতে এক চামচ তরল জীবাণুনাশক মিশিয়ে এই পানিতে পা জীবাণুমুক্ত করে নিতে পারেন। এরপর টাওয়েল দিয়ে পা মুছে নিন। ভেজা পায়ে থাকবেন না।

বাড়তি জুতা রাখুন

পায়ে নোংরা পানি লেগে থাকা ক্ষতিকর। নোংরা পানিতে ভেজা জুতা পরে থাকা আরো বেশি ক্ষতিকর। এ জন্য অফিসে কিংবা বাসায় অতিরিক্ত স্পঞ্জ কিংবা জুতা রাখুন। বাড়তি এক জোড়া মোজাও রাখতে পারেন। যাতে নোংরা পানিতে ভেজা জুতার বদলে পরিষ্কার আরেকটি জুতা পরতে পারেন।  

পেডিকিউর করুন

পায়ের যত্নে পেডিকিউর সব থেকে ভালো। এখন ঘরে বসেই পেডিকিউর করে নেওয়া যায়। সপ্তাহে এক দিন পেডিকিউর করতে পারেন। এতে সপ্তাহব্যাপী পায়ের ওপর দিয়ে যে ধকল যায় তার উপশম মেলে।

পেট্রোলিয়াম জেলির ব্যবহার

নোংরা পানিতে পা বেশিক্ষণ ভিজে থাকলে ত্বক নরম হয়ে যায়। সাদাটে দেখায়। ময়েশ্চারাইজার হারিয়ে পায়ের ত্বক রুক্ষ হয়ে ওঠে। এ জন্য পানিতে ভেজা পা ভালো করে পরিষ্কার করে শুকিয়ে নিন। এরপর পেট্রোলিয়াম জেলি মালিশ করুন। এতে পায়ের ত্বক দ্রুত ময়েশ্চারাইজড হবে। পা ভালো থাকবে।

প্যাক ব্যবহার করুন

নিয়মিতই যদি নোংরা পানির সংস্পর্শ পায় পা তাহলে কিছু প্যাক ব্যবহার করতে পারেন। রাতে শোবার আগে পা ভালোভাবে পরিষ্কার করে নিন। নারকেল তেল ও জলপাই তেল একসঙ্গে মিশিয়ে কুসুম গরম করুন। এরপর মিশ্রণটি পায়ের ত্বকে আলতো করে মালিশ করুন। চাইলে তেলের মিশ্রণের সঙ্গে সামান্য চিনি মিশিয়ে নিতে পারেন। পায়ে লাগানোর পর শুকিয়ে গেলে কুসুম গরম পানি দিয়ে পা ধুয়ে ফেলুন। এরপর ভালো কোনো ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করুন। এ ছাড়া এই সময় আরামদায়ক জুতা ব্যবহার করুন। বাজারে এখন বৃষ্টি উপযোগী নানা মডেলের জুতা পাওয়া যায়। এমন জুতা পরলে ময়লা পানি লাগলেও বেশিক্ষণ জুতা ভিজে থাকবে না।