kalerkantho

বুধবার । ১৩ নভেম্বর ২০১৯। ২৮ কার্তিক ১৪২৬। ১৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

তিন উপজেলায় বিএনপির ১২ নেতা বহিষ্কার

প্রিয় দেশ ডেস্ক   

৫ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বগুড়ার শাজাহানপুর ও নন্দীগ্রামে ১০ জন এবং নওগাঁর সাপাহারে দুই বিএনপি নেতাকে বহিষ্কার করা হয়েছে। দলীয় নির্দেশ উপেক্ষা করে আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করায় বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটি তাঁদের বহিষ্কার করে। বিস্তারিত প্রতিনিধিদের পাঠানো খবরে :

বগুড়ার শাজাহানপুর উপজেলা বিএনপির আহ্বায়ক আবুল বাশারসহ সাত নেতাকে বহিষ্কার করা হয়েছে। অন্য ছয় বহিষ্কৃত নেতা হলেন উপজেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক জহুরুল ইসলাম জাহেরুল, কহিনুর আকতার, জুলেখা বেগম, উপজেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক সুলতান আহমেদ, জাতীয়তাবাদী আইনজীবী পরিষদ নেত্রী অ্যাডভোকেট রহিমা খাতুন মেরী, জেলা ছাত্রদলের সহস্বাস্থ্যবিষয়ক সম্পাদক ডা. মেহেরুল আলম মিশু। বগুড়া জেলা বিএনপি সূত্রে এ তথ্য নিশ্চিত হওয়া গেছে।

সূত্র জানায়, উপজেলা বিএনপির আহ্বায়ক আবুল বাশার চেয়ারম্যান পদে এবং ভাইস চেয়ারম্যান পদে উপজেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক জাহেরুলসহ তিনজন প্রার্থী হন। এ ছাড়া মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে উপজেলা বিএনপির যুগ্ম সম্পাদক কহিনুর আকতারসহ তিনজন প্রার্থী হন। দলের সিদ্ধান্ত উপেক্ষা করে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করায় দলের কেন্দ্রীয় সহদপ্তর সম্পাদক বেলাল আহমেদ স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এই সাত নেতাকে বহিষ্কার করা হয়।

এদিকে নন্দীগ্রামে বিএনপির তিন নেতাকে প্রাথমিক সদস্য পদসহ সব পর্যায়ের পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সহদপ্তর সম্পাদক বেলাল আহমেদ স্বাক্ষরিত চিঠিতে এ বহিষ্কারাদেশ দেওয়া হয়। বহিষ্কৃতরা হলেন চেয়ারম্যান প্রার্থী জেলা বিএনপির সহসভাপতি অ্যাডভোকেট রাফি পান্না, উপজেলা যুবদলের আহ্বায়ক আলেকজান্ডার ও ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী উপজেলা বিএনপির সভাপতি এ কে আজাদ।

বহিষ্কৃৃত উপজেলা বিএনপির সভাপতি এ কে আজাদ বলেন, ‘বহিষ্কারের খবর শুনেছি। তবে কোনো চিঠি হাতে পাইনি।’

অন্যদিকে নওগাঁর সাপাহারে দুই বিএনপি নেতাকে দল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। তাঁরা হলেন সাপাহার উপজেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক জয়নাল আবেদীন ও সদর ইউনিয়ন বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আশরাফুল ইসলাম।

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা