kalerkantho

শুক্রবার  । ১৮ অক্টোবর ২০১৯। ২ কাতির্ক ১৪২৬। ১৮ সফর ১৪৪১              

নবীনগরে আ. লীগের ‘বিতর্কিত’ প্রার্থী বদল

নবীনগর (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি   

৪ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর উপজেলা নির্বাচনে আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন পরিবর্তন করা হয়েছে। তৃণমূলের ভোটে একক দলীয় প্রার্থী উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি হাবিবুর রহমান স্টিফেনের পরিবর্তে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় উপকমিটির সহসম্পাদক কাজী জহির উদ্দিন ছিদ্দিক টিটুকে মনোনয়ন দেওয়া হয়েছে। তিনি সাবেক সংসদ সদস্য কাজী আকবর উদ্দিন ছিদ্দিকের ছেলে।

জানা গেছে, আসন্ন উপজেলা নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের স্থানীয় ১৯ জন নেতা মনোনয়ন পেতে আবেদন করেছিলেন। কিন্তু তৃণমূল আওয়ামী লীগ একক প্রার্থী হিসেবে দলটির সহসভাপতি হাবিবুর রহমান স্টিফেনের নাম ঘোষণা করে। কিন্তু হাবিবুর রহমান স্টিফেনকে ভুয়া মুক্তিযোদ্ধা ও যুদ্ধাপরাধী গোলাম আযমের স্বজন এমন অভিযোগ এনে দলের অন্য প্রার্থীরা ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেস ক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে।

এ ঘটনার পর স্টিফেনের কর্মী-সমর্থকরা উপজেলা সদরে বিক্ষোভ মিছিল করে জাতির জনক ও প্রধানমন্ত্রীর ছবিসংবলিত ওই তিন প্রার্থীর পোস্টার ও ব্যানার ছিঁড়ে ফেলে। পরদিন দলীয় কার্যালয়ে হাবিবুর রহমান স্টিফেন সংবাদ সম্মেলন ডেকে তাঁর বিরুদ্ধে আনা সব অভিযোগ অসত্য আখ্যা দিয়ে ওই তিন প্রার্থীর বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়ারও দাবি তোলেন।

এদিকে জাতির পিতা ও প্রধানমন্ত্রীর ছবিসংবলিত ওই তিন প্রার্থীর পোস্টার ও ব্যানার ছিঁড়ে ফেলার অভিযোগে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার দ্রুত বিচার আদালতে ওই তিন প্রার্থীর পক্ষে এক স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা আদালতে মামলা ঠুকে দেন। এরপর জেলা ছাত্রলীগ জাতির জনকের পোস্টার ছেঁড়ার অভিযোগে নবীনগর ছাত্রলীগের সাবেক ছয় নেতাকে বহিষ্কারের নোটিশ পাঠায়।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা