kalerkantho

শুক্রবার । ১৫ নভেম্বর ২০১৯। ৩০ কার্তিক ১৪২৬। ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

মনোনয়নপত্র কেনার পর জেলে যুবদল নেতা

বগুড়ায় সাত বিএনপি নেতার মনোনয়ন সংগ্রহ

নিজস্ব প্রতিবেদক, বগুড়া ও নন্দীগ্রাম প্রতিনিধি   

১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



মনোনয়নপত্র কেনার পর জেলে যুবদল নেতা

আলেকজান্ডার

আগামী ১৮ মার্চ দ্বিতীয় ধাপে বগুড়ার ১২টি উপজেলা পরিষদের ভোট। গত বৃহস্পতিবার পর্যন্ত চেয়ারম্যানসহ অন্যান্য পদে বিএনপির কমপক্ষে ৯ জন মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন। এর মধ্যে নন্দীগ্রাম উপজেলা যুবদলের আহ্বায়ক মো. আলেকজান্ডার চেয়ারম্যান পদে মনোনয়ন কেনার এক দিন পর তাঁকে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত, যদিও সংশ্লিষ্ট মামলায় তিনি হাইকোর্ট থেকে জামিনে ছিলেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, আলেকজান্ডার পৌর সদরের পূর্বপাড়ার মৃত নিজামুদ্দিনের ছেলে। গত ৩০ ডিসেম্বর জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে ককটেল বিস্ফোরণসহ পেট্রল ঢেলে মোটরসাইকেল পোড়ানোর মামলায় তাঁকে আসামি করা হয়। পরে তাঁর আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে হাইকোর্ট চার সপ্তাহের জামিন মঞ্জুর করেন। ১৬ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত তাঁর জামিনের মেয়াদ ছিল। আলেকজান্ডার নন্দীগ্রাম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে গত মঙ্গলবার মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেন। বৃহস্পতিবার তিনি বগুড়ার দ্বিতীয় অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতে হাজির হয়ে স্থায়ী জামিন প্রার্থনা করলে বিচারক তা নামঞ্জুর করেন।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বগুড়া-৪ (নন্দীগ্রাম-কাহালু) আসনের মহাজোট মনোনীত নৌকার প্রার্থী ছিলেন এ কে এম রেজাউল করিম তানসেন। তাঁর পক্ষে গত ২১ ডিসেম্বর রাতে সিমলা বাজারে জেলা আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা গণসংযোগ করছিল। গণসংযোগ শেষে নন্দীগ্রামে ফেরার পথে নামুইট এলাকায় ধানের শীষের নেতাকর্মীরা হামলা চালায়। এ সময় ককটেল বিস্ফোরণসহ পেট্রল ঢেলে মোটরসাইকেলে আগুন দেয়। হামলায় নৌকার চার কর্মী আহত হয়। এ ঘটনায় উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক রেজাউল করিম বকুল বাদী হয়ে বিএনপির ৬১ জনের নাম উল্লেখসহ ৩২ জনকে অজ্ঞাতপরিচয় আসামি করে মামলা করেন।

তবে আলেকজান্ডারের বড় ভাই পৌর বিএনপি নেতা আনোয়ার হোসেন বলেন, ‘ওই ঘটনার দিন আলেকজান্ডার ছিল না। তার বিরুদ্ধে হয়রানিমূলক মিথ্যা মামলা করা হয়েছে। কয়েক দিনের মধ্যেই হাইকোর্ট থেকে জামিন নেওয়া হবে। মনোনয়নপত্র উত্তোলন করা হয়েছে। দাখিলও করা হবে।’

উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক গোলাম রব্বানী বলেন, ‘মোটরসাইকেল পোড়ানো মামলায় আমাকেও আসামি করা হয়েছে। বিএনপির নেতাকর্মীদের হয়রানি করতেই এ মামলা করা হয়েছে। দল উপজেলা নির্বাচনে অংশ নিচ্ছে না। তবে আলেকজান্ডার যুবদল করেন। তিনি ব্যক্তিগতভাবে নির্বাচন করতে পারেন।’

স্থানীয় সূত্রে আরো জানা গেছে, নন্দীগ্রাম পৌর বিএনপির সভাপতি আহসান বিপ্লব রহিম চেয়ারম্যান পদে, ভাইস চেয়ারম্যান পদে উপজেলা বিএনপির সভাপতি ও বর্তমান ভাইস চেয়ারম্যান এ কে আজাদ এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে বিএনপি নেত্রী  শ্রাবণী আখতার বানু মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন।

এ ছাড়া শিবগঞ্জে চেয়ারম্যান পদে জেলা বিএনপির মহিলাবিষয়ক সম্পাদক বিউটি বেগম, সদর উপজেলায় বিএনপির জেলা যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাফতুন আহম্মেদ খান রুবেল, ধুনটে বিএনপি নেতা আকতার আলম সেলিম মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে উপজেলা মহিলা দলের সভাপতি অ্যাডভোকেট খায়রুন নাহার চৌধুরী ও দুপচাঁচিয়ায় ভাইস চেয়ারম্যান পদে থানা ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি মোজাফ্ফর রহমান টিটু মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন।

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা