kalerkantho

সোমবার । ২১ অক্টোবর ২০১৯। ৫ কাতির্ক ১৪২৬। ২১ সফর ১৪৪১       

ঢাকা ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল

ডেঙ্গু পরীক্ষা বন্ধ

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি   

২ আগস্ট, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ঢাকা ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ডেঙ্গু পরীক্ষার জন্য নেই এনএস-১ টেস্টের উপকরণ। এমনকি কমপ্লিট ব্লাড কাউন্ট (সিবিসি) নির্ণয়ের একমাত্র মেশিনটিও নষ্ট। ফলে বন্ধ হয়ে গেছে ডেঙ্গু ভাইরাস শনাক্তকরণ পরীক্ষা। এতে চরম ভোগান্তিতে পড়েছে এখানে চিকিৎসাসেবা নিতে আসা ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগীরা। এ ছাড়া টাকা ফেরত না দিয়ে হাসপাতালের বিরুদ্ধে মিথ্যা রিপোর্ট দেওয়ার অভিযোগ রয়েছে। জানা যায়, ঢাকা ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে সিবিসি নির্ণয়ের মেশিন নষ্ট ও ডেঙ্গু এনএস-১ পরীক্ষার উপকরণ শেষ হলেও পরীক্ষার নামে রোগীদের কাছ থেকে অর্থ নিয়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। গত বুধবার ও বৃহস্পতিবার শতাধিক রোগীর কাছ থেকে এ অর্থ নেয় তারা। পরে বৃহস্পতিবার রোগীর লোকজন রিপোর্ট নিতে এলে তাদের রিপোর্ট দেওয়া হয়নি। কাউকে কাউকে মিথ্যা রিপোর্টও ধরিয়ে দেওয়া হয়। এদিন রিপোর্ট বাবদ প্রায় ৮০ জনের টাকা ফেরত দেওয়া হয়।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, ঢাকা ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের কাউন্টারের সামনে শতাধিক মানুষ রিপোর্ট নেওয়ার জন্য দাঁড়িয়ে আছে। কিন্ত রিপোর্ট দিতে না পারাই রোগীর স্বজনরা মারমুখী হয়ে ওঠে। এ সময় তাদের টাকা ফেরত দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করা হয়। ঢাকা ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের উপপরিচালক এ কে এম নুরুন নবী বলেন, ‘ঢাকার কোথাও ডেঙ্গু এনএস-১-এর অ্যান্টিজেন্ট পাওয়া যাচ্ছে না। আর হঠাৎ সিবিসি মেশিন নষ্ট হয়ে গেছে। এ কারণে আমরা পরীক্ষা করতে পারছি না। এ জন্য সবাইকে টাকা ফেরত দেওয়া হচ্ছে।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা