kalerkantho

শুক্রবার । ৯ ডিসেম্বর ২০২২ । ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ । ১৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

বিচার শুরুর আগেই ধর্ষণ মামলার মীমাংসা চীনা ধনকুবেরের!

অনলাইন ডেস্ক   

২ অক্টোবর, ২০২২ ১৭:৪৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বিচার শুরুর আগেই ধর্ষণ মামলার মীমাংসা চীনা ধনকুবেরের!

চীনা ইকমার্স কম্পানি জেডি ডট কমের প্রতিষ্ঠাতা রিচার্ড লিউ। (ছবি : আইসি ফটো)

যুক্তরাষ্ট্রের মিনেসোটা বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন সাবেক শিক্ষার্থীর দায়ের করা ধর্ষণ মামলা মীমাংসা করতে সম্মত হয়েছেন চীনা ধনকুবের এবং জেডি ডটকমের প্রতিষ্ঠাতা রিচার্ড লিউ। জিংইয়াও লিউ নামের ওই শিক্ষার্থী অভিযোগ করেছিলেন, ২০১৮ সালে চীনা কর্মকর্তাদের সাথে রাতের খাবার এবং মদ্যপানের পর তার মিনিয়াপোলিস অ্যাপার্টমেন্টে রিচার্ড তাকে ধর্ষণ করেছিলেন। শনিবার মামলার দুই পক্ষ মীমাংসার ব্যাপারটি যৌথভাবে ঘোষণা করেছে।

চীনের প্রযুক্তি শিল্পে সরকারি যাচাই-বাছাই বৃদ্ধি করা হলে চলতি বছরে বেইজিংভিত্তিক ই-কমার্স কম্পানি জেডি ডটকমের প্রধান নির্বাহী পদ থেকে পদত্যাগ করেন রিচার্ড।

বিজ্ঞাপন

এ ছাড়া ওই নারীকে ধর্ষণের অভিযোগও অস্বীকার করেছিলেন তিনি।

গতকাল শনিবার রাতে প্রকাশিত একটি যৌথ বিবৃতিতে মামলার দুই পক্ষের আইনজীবীরা বলেছেন, ২০১৮ সালে মিনেসোটাতে জিংইয়াও লিউ এবং রিচার্ড লিউয়ের মধ্যকার ঘটনাটি আসলে একটি ভুল-বোঝাবুঝি ছিল। ঘটনাটি জনসাধারণের মধ্যে সাড়া ফেলেছে এবং জিংইয়াও, রিচার্ড ও তাদের পরিবারকে বিব্রত করেছে। এখন দুই পক্ষই মামলার ফলে সৃষ্ট যন্ত্রণা এড়াতে চাইছেন। তাই আজ তারা তাদের আইনি বিরোধ মীমাংসা করতে সম্মত হয়েছেন।

তবে মীমাংসার পরিমাণ প্রকাশ করা হয়নি। মিনিয়াপোলিস আদালতে বিচার শুরু হওয়ার মাত্র দুই দিন আগে মীমাংসার ঘোষণাটি প্রকাশ করা হলো।

রিচার্ডকে ২০১৮ সালের আগস্টে গুরুতর ধর্ষণের সন্দেহে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল। কিন্তু আইনজীবীরা বলেছিলেন, মামলাটিতে শক্ত প্রমাণের অভাব রয়েছে। ফলে তারা ফৌজদারি অভিযোগ দায়ের করতেও অস্বীকৃতি জানান।

জিংইয়াও ২০১৯ সালে রিচার্ডের বিরুদ্ধে মামলাটি দায়ের করেছিলেন। তিনি বলেছিলেন, রিচার্ড এবং অন্য ব্যবসায়ীরা একসাথে রাতের খাবার খাওয়ার পর তাকে মদ্যপান করতে বাধ্য করেছিলেন। প্রথমে রিচার্ড গাড়িতে জিংইয়াওয়ের ওপর জোর খাটান এবং পরে তার অ্যাপার্টমেন্টে তাকে ধর্ষণ করেন।

সূত্র : এবিসি নিউজ



সাতদিনের সেরা