kalerkantho

শনিবার । ১ অক্টোবর ২০২২ । ১৬ আশ্বিন ১৪২৯ ।  ৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

অধূমপায়ীদের ফুসফুসে ক্যান্সারের কারণ বায়ুদূষণ : গবেষণা

অনলাইন ডেস্ক   

১০ সেপ্টেম্বর, ২০২২ ১৮:৪৭ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



অধূমপায়ীদের ফুসফুসে ক্যান্সারের কারণ বায়ুদূষণ : গবেষণা

প্রতীকী ছবি।

বায়ুদূষণ কিভাবে অধূমপায়ীদের ফুসফুসে ক্যান্সারের কারণ হয় এবার তা জানা গেছে নতুন এক গবেষণায়।

গবেষকরা জানিয়েছেন, যানবাহন থেকে নির্গত ধোঁয়া সিগারেটের ধোঁয়ার মতোই একইভাবে টিউমারকে প্রভাবিত করে। দূষণ কিভাবে ক্যান্সারের জ্বালানি হিসেবে কাজ করে সেই প্রক্রিয়াই পাওয়া গেছে গবেষণাটিতে। দেখা গেছে, জীবাশ্ম জ্বালানি পোড়ানো হলে তা থেকে বেরিয়ে আসা ক্ষুদ্র কণা ফুসফুসের মাধ্যমে রক্তে প্রবেশ করে রক্তকে আরো আঠাল করে তোলে এবং প্রদাহ সৃষ্টি করে।

বিজ্ঞাপন

কণাগুলো আকারে মানুষের চুলের প্রস্থের ৫০ ভাগেরও কম।

ক্ষতিকর কণাগুলো আসে ডিজেলের ধোঁয়া, ব্রেক প্যাড, টায়ার এবং রাস্তার ধুলা থেকে। এর থেকে সৃষ্ট রোগের সবচেয়ে সাধারণ রূপ হলো নন-স্মল সেল ফুসফুস ক্যান্সার।

গবেষণাটি মানবদেহ এবং পরীক্ষাগারে একটি নির্দিষ্ট জিনের পরিবর্তনের বিশ্লেষণ ভিত্তি করে করা হয়েছে। যেখানে দেখা যায় প্রায় অর্ধেক রোগী কখনো ধূমপান করেননি। পর্যালোচনায় যুক্তরাজ্য, দক্ষিণ কোরিয়া এবং তাইওয়ানে বসবাসকারী প্রায় পাঁচ লাখ মানুষ অন্তর্ভুক্ত ছিল।

ফ্রান্সিস ক্রিক ইনস্টিটিউটের প্রধান লেখক অধ্যাপক চার্লস সোয়ানটন বলেছেন, ‘ধূমপানের চেয়ে বায়ুদূষণে ফুসফুসের ক্যান্সারের ঝুঁকি কম। কিন্তু শ্বাস নেওয়ার মাধ্যমে আমরা কী গ্রহণ করব তার ওপর আমাদের কোনো নিয়ন্ত্রণ নেই। বিশ্বব্যাপী, সিগারেটের ধোঁয়ার বিষাক্ত রাসায়নিকের চেয়ে বেশি মানুষ বায়ুদূষণের অনিরাপদ মাত্রার সংস্পর্শে আছে। এই নতুন তথ্যগুলো মানবস্বাস্থ্যের উন্নতির জন্য জলবায়ু মোকাবেলা করার গুরুত্ব বাড়িয়ে দেবে। ’

এদিকে চলতি বছরের শুরুর দিকের একটি গবেষণায় দেখা গেছে, বায়ুদূষণ প্রতিবছর সারা পৃথিবীর ১৮ লাখ মৃত্যুর জন্য দায়ী।

গবেষণায় অংশ না নেওয়া হংকংয়ের চাইনিজ ইউনিভার্সিটির অধ্যাপক টনি মোক বলেছেন, ‘আমরা দীর্ঘদিন ধরে দূষণ এবং ফুসফুসের ক্যান্সারের মধ্যে যোগসূত্র সম্পর্কে জানি। তবে এখন আমাদের কাছে এর সম্ভাব্য ব্যাখ্যা রয়েছে। যেহেতু জীবাশ্ম জ্বালানির ব্যবহার দূষণ এবং কার্বন নির্গমনের মতোই, ফলে পরিবেশগত এবং স্বাস্থ্য উভয় কারণেই এ সমস্যাগুলো মোকাবেলা করার জন্য আমাদের শক্তিশালী হতে হবে। ’

অধ্যাপক সোয়ানটনের এবং অধ্যাপক মোক দুজনই ক্যান্সারনসহ ফুসফুসের রোগের ঝুঁকি কমাতে বায়ুদূষণ কমানোর গুরুত্বের ওপর জোর দিয়েছেন। এই বছর যুক্তরাষ্ট্রে ফুসফুসের ক্যান্সারে নতুন আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় দুই লাখ ৩৬ হাজার। আমেরিকান ক্যান্সার সোসাইটির অনুমান, যার মধ্যে এক লাখ ৩০ হাজার ১৮০ জন মারা যাবে।

গবেষকরা ইউরোপীয় সোসাইটি ফর মেডিক্যাল অনকোলজি কংগ্রেস ২০২২-এ তাদের প্রাপ্ত ফলাফল উপস্থাপন করেছেন।

সূত্র : স্টাডিফাইন্ডস।



সাতদিনের সেরা