kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২ । ১২ আশ্বিন ১৪২৯ ।  ৩০ সফর ১৪৪৪

ইসরায়েলে ‘সিরিয়াল ধর্ষকের’ শিকার এবার ৮২ বছরের নারী!

অনলাইন ডেস্ক   

৯ আগস্ট, ২০২২ ১৮:৫৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ইসরায়েলে ‘সিরিয়াল ধর্ষকের’ শিকার এবার ৮২ বছরের নারী!

ছবি: সিরিয়াল ধর্ষক আদেল হায়েব (৪২)

৭০ বছর বয়সী একজনসহ মোট ১৪ জন নারীকে ধর্ষণের অভিযোগে সাড়ে আট বছর কারা ভোগ করেন আদেল হায়েব (৪২) নামের এক ইসরায়েলের বাসিন্দা। ছয় মাস আগে তিনি মুক্তি পান। এবার ইহুদি গণহত্যায় বেঁচে যাওয়া ৮২ বছর বয়সের এক নারীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে আদেলের বিরুদ্ধে।

দায়ের করা অভিযোগ থেকে জানা যায়, আদেল হায়েব (৪২) একজন সিরিয়াল ধর্ষক।

বিজ্ঞাপন

 আজ মঙ্গলবার (৯ আগস্ট) ইসরায়েলের গণমাধ্যম ওয়াই নেট নিউজ প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানানো হয়।

পুলিশের অনুসন্ধানে জানা যায়, আদেল ভুক্তভোগীর শহরেই বাস করেন। এক সপ্তাহ আগে রাস্তায় তাদের পরিচয় হয়। তখন আদেল তার সৌন্দর্যের প্রশংসা করেন। আদেল নিজেকে একজন মিস্ত্রি বলে পরিচয় দিলে ওই নারী কিছু সংস্কারের কাজ করতে তাকে বাসায় যেতে বলেন। বাড়িতে প্রবেশ করার পর আদেল তাকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দেয় ও ধর্ষণ করে। পরে তার প্রচুর রক্তক্ষরণ হয় এবং অস্ত্রোপচার করার প্রয়োজন পড়ে। পরবর্তী সময়ে তাকে জিভ মেডিক্যাল সেন্টারে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়।

ইসরায়েলি পুলিশের কর্মকর্তা রোই জিয়ন ও অমিত শিট্রিট বলেন, ‘প্রথমে তিনি আমাদের জানাতে লজ্জা পাচ্ছিলেন। পরে একজন সমাজকর্মীর সঙ্গে কথা বলার পর আমাদের জানানো হয়। প্রচুর রক্তক্ষরণ হওয়ার ফলে তার জীবন ঝুঁকির মধ্যে ছিল। আমরা তার বিবৃতি নিয়েছি। তিনি বলেছেন তাকে পশুর মতো নির্মমভাবে আক্রমণ করা হয়েছে। ’

উল্লেখ্য, আদে এর আগেও ১৪ জন নারীকে ধর্ষণ করেছে। এ ছাড়া ৭০ বছর বয়সী একজনকে ধর্ষণ করার অভিযোগে সারে আট বছর কারা ভোগের পর ছয় মাস আগে তিনি মুক্তি পান।  কারাগারে আদেল ইসরায়েল প্রিজন সার্ভিসের একটি বিশেষ ইউনিটের নজরদারিতে ছিলেন। যেখানে গুরুতর অপরাধীদের ওপর নজরদারি করা হয়, যাতে তারা পুনরায় আর অপরাধ না করে।  

অন্যদিকে তার আইনজীবী অ্যাটর্নি ফাথি ফুকরার দাবি, অতীতে তাকে তার অপরাধের জন্য গ্রেপ্তার করা হয়েছিল। কিন্তু বর্তমানে তিনি একটি চাকরি করছেন এবং সম্পর্কেও জড়িয়েছেন। এ ছাড়া তার থেরাপি চলছে। আদেল এই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন এবং তা প্রমাণের জন্য যথেষ্ট প্রমাণ তার কাছে রয়েছে বলে দাবি তার।

ইসরায়েলি পুলিশ সার্ভিসেস বলেছে, ঘটনার তদন্ত চলছে, তাই তারা বিস্তারিত বলতে পারবেন না। এ ছাড়া আদেলকে মুক্তি দেওয়ার সময় কী শর্ত দেওয়া হয়েছিল সেটিও গোপনীয়।



সাতদিনের সেরা