kalerkantho

বুধবার । ২৯ জুন ২০২২ । ১৫ আষাঢ় ১৪২৯ । ২৮ জিলকদ ১৪৪৩

ইউক্রেনে প্রথম যুদ্ধাপরাধের বিচারে রুশ সেনার যাবজ্জীবন

অনলাইন ডেস্ক   

২৩ মে, ২০২২ ২০:০৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ইউক্রেনে প্রথম যুদ্ধাপরাধের বিচারে রুশ সেনার যাবজ্জীবন

ভাদিম শিশিমারিন। ছবি : এএফপি

ইউক্রেনের এক আদালত রাশিয়ার আগ্রাসনের পর প্রথম যুদ্ধাপরাধের বিচারে রুশ বাহিনীর এক ট্যাংক কমান্ডারকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে। একজন প্রবীণ বেসামরিক নাগরিককে হত্যা করার জন্য বন্দি সার্জেন্ট ভাদিম শিশিমারিনকে এ দণ্ড দেওয়া হয়।

ভাদিম শিশিমারিন গত ২৮ ফেব্রুয়ারি ৬২ বছর বয়সী ওলেক্সান্ডার শেলিপভকে হত্যার জন্য দোষী সাব্যস্ত হয়েছেন। সার্জেন্ট শিশিমারিন বৃদ্ধ শেলিপভকে গুলি করার কথা স্বীকার করেছেন।

বিজ্ঞাপন

তবে একই সঙ্গে দাবি করেছেন, তিনি অন্য সেনাদের আদেশে এ কাজ করেছেন। ইউক্রেন অন্যান্য অনেক যুদ্ধাপরাধের অভিযোগের বিষয়ে তদন্ত করছে।

প্রচুর সাক্ষ্য-প্রমাণ থাকা সত্ত্বেও মস্কো তার সেনাদের যুদ্ধের সময় বেসামরিক লোকদের লক্ষ্যবস্তু করার বিষয়টি অস্বীকার করে আসছে। ইউক্রেন বলছে, ১১,০০০-এরও বেশি যুদ্ধাপরাধ সংঘটিত হয়ে থাকতে পারে।

মস্কো সোমবার এর আগে বলেছিল, তারা রাশিয়ার সেনা শিশিমারিনের পরিণতি নিয়ে উদ্বিগ্ন এবং তাকে রক্ষা করার বিকল্পগুলো খতিয়ে দেখবে।

ক্রেমলিনের মুখপাত্র দিমিত্রি পেসকভ মন্তব্য করেছেন, রাশিয়ার সশরীরে তার স্বার্থ রক্ষা করার ক্ষমতা নেই যেহেতু কিয়েভে রাশিয়ার দূতাবাস বর্তমানে বন্ধ।

দণ্ডিত ভাদিম শিশিমারিন (২১) রাশিয়ার মর্যাদাপূর্ণ কান্তেমিরোভস্কায়া ট্যাংক বিভাগে কাজ করেন। হত্যার সময় তিনি অন্যান্য সেনার সঙ্গে অন্যদের কাছ থেকে ছিনিয়ে নেওয়া একটি গাড়িতে ছিলেন। নিজেদের কনভয় আক্রমণের শিকার হওয়ায় তারা ইউনিট থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছিলেন। শিশিমারিন আদালতকে বলেন, যখন তারা শেলিপভকে দেখেন তখন তিনি ফোনে কথা বলছিলেন।

শিশিমারিন বলেন, তাকে একটি অ্যাসল্ট রাইফেল দিয়ে বৃদ্ধকে গুলি করতে বলা হয়। এর আগে শুক্রবার তার আইনজীবী আদালতকে বলেন, শিশিমারিন আদেশ পালন করতে দুইবার অস্বীকার করার পরে গুলি চালিয়েছিলেন। তিন থেকে চারটি গুলির মধ্যে মাত্র একটি লক্ষ্যে লাগে।

সূত্র : বিবিসি



সাতদিনের সেরা