kalerkantho

বুধবার ।  ১৮ মে ২০২২ । ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ । ১৬ শাওয়াল ১৪৪৩  

পদত্যাগের জন্য প্রচণ্ড চাপে বরিস জনসন

অনলাইন ডেস্ক   

২০ জানুয়ারি, ২০২২ ০১:২৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পদত্যাগের জন্য প্রচণ্ড চাপে বরিস জনসন

পার্লামেন্টে আত্মপক্ষ সমর্থনের চেষ্টায় বরিস জনসন -ছবি গার্ডিয়ান পত্রিকা। (ডানে) পদত্যাগের দাবি তোলা নিজ দলের এমপি সাবেক মন্ত্রী ডেভিড ডেভিস -ছবি বিবিসি

লকডাউনে ১০ ডাউনিং স্ট্রিটের বাসভবনে পার্টি করা নিয়ে এমপিদের বিভ্রান্ত করার অভিযোগে পদত্যাগের চাপ বেড়েছে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর বরিস জনসনের ওপর। পার্টি করার অভিযোগ নিয়ে গতকাল বুধবার পার্লামেন্টে ব্যাপক সমালোচনার শিকার হন।

পার্লামেন্টে গতকাল এমপিদের তীক্ষ্ণ বাক্যবাণে বিদ্ধ হন বরিস জনসন। নিজের কনজারভেটিভ দলের বর্ষীয়ান এমপি ও সাবেক মন্ত্রী ডেভিড ডেভিস তাকে উদ্দেশ্য করে বলেন, ‘ঈশ্বরের নামে বলি, আপনি এবার যান।

বিজ্ঞাপন

তবে নিজ দলের এমপিদের মুখে পদত্যাগের আহ্বান শুনতে হলেও জনসন বলেছেন, তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত তিনি পদ ছাড়বেন না।

কনজারভেটিভ এমপি ক্রিস্টিয়ান ওয়েকফোর্ড এ নিয়ে দল ত্যাগ করে লেবার দলে ভিড়েছেন। তিনি একে ‘জীবনের কঠিনতম সিদ্ধান্ত’ বলে অভিহিত করেন।

বিরোধী লেবার দলের নেতা কেয়ার স্টারমার বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী পার্টি করা নিয়ে আজগুবি সাফাই গাইছেন। ’ 

বরিস জনসন বলেছিলেন, তিনি জানতেন না ওই পার্টির মাধ্যমে আইনভঙ্গ হচ্ছে। এ ছাড়া কেউ তাকে এ নিয়ে সতর্ক করেনি।

প্রধানমন্ত্রী ‘বিবেচনার ভুল’ করার জন্য দুঃখ প্রকাশ করেন। তবে আবারও বলেন, তদন্তের ফলের জন্য অপেক্ষা করা উচিত। ২০১৯ সালে নির্বাচিত দলের ১০ জন এমপি বরিস জনসনের বিরুদ্ধে অনাস্থাপত্র দিয়েছেন বলে জানা গেছে। আরো কিছু এমপি একই কাজ করেছেন। তবে দলের নেতৃত্ব নিয়ে নতুন ভোটের আয়োজন করার জন্য ৫৪ জন এমপির আবেদন প্রয়োজন। এ পর্যন্ত জনসনের ওপর অনাস্থা প্রকাশ করা মোট এমপির সংখ্যা স্থানীয় সময় গতকাল বিকেল পর্যন্ত স্পষ্ট ছিল না। সূত্র: বিবিসি



সাতদিনের সেরা